ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৪ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Bagan Bangla Insider

বেগম জিয়ার জেলযাত্রায় ৫ স্যুটকেস?

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ মঙ্গলবার, ০৮:০০ পিএম
বেগম জিয়ার জেলযাত্রায় ৫ স্যুটকেস?

বেগম খালেদা জিয়া ৮ ফেব্রুয়ারি জেলে যাচ্ছেন, এ সম্পর্কে তিনি মোটামুটি নিশ্চিত। কিন্তু তার জেলটা কোথায় হবে সে সম্পর্কে তিনি এখনো নিশ্চিত নন। সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছেন এমন দুইজন বিএনপি নেতা বিএনপি চেয়ারপারসনকে আশ্বস্ত করেছে যে, গুলশানে বেগম জিয়ার বাসভবনেই সাব জেল ঘোষণা করে তাকে সেখানে রাখা হবে। কিন্তু এই ব্যাপারে সংশয়মুক্ত নন বেগম জিয়া নিজেই। তার ঘনিষ্ঠদের বলেছেন, এতো বড় বাড়ীকে কীভাবে সাব জেল করা সম্ভব?

একাধিক গোয়েন্দা সূত্র বলছে, গুলশানের বাসভবন সাবজেল করার ক্ষেত্রে কিছু আইনগত সমস্যা রয়েছে। জেলকোড অনুযায়ী কাউকে সাবজেলে অন্তরীন করা হলে তাকেএকটি কক্ষ বা এলাকাতে অন্তরীন রাখা হবে। কারা বিধি অনুযায়ী জেল কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া আটক কারো সঙ্গে দেখা-সাক্ষাৎ করতে পারবেন না। জেলকোড অনুযায়ী,আটক ব্যক্তি টেলিফোন, ইন্টারনেট সুবিধা বঞ্চিত থাকবেন। গুলশানের প্রাসাদোসম বাড়ীতে জেলকোড এবং কারাবিধি কতটা প্রতিপালন করা সম্ভব তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। ঐ বাড়ীতে বেগম জিয়া ১২জন ব্যক্তিগত স্টাফ থাকেন। এছাড়াও দলীয় স্টাফ আরও ৬জন এখানে থেকেই দাপ্তরিক কাজ করে থাকেন। পুরো বাড়িটা ওয়াই-ফাই এর আওতায়।এসবের চেয়েও বড় কথা হলো, বাড়ীটি ঢাকার স্পর্শকাতর কূটনীতিক এলাকায়। ঐ বাড়ীকে ঘিরে যদি বিএনপি আন্দোলন করতে চায় তাহলে ডিপ্লোম্যাটিক জোনের নিরাপত্তা বিঘ্নিত হতে পারে। এসব বিষয় মাথায় রেখেই আইন প্রয়োগকারী সংস্থার মাথায় বিকল্প চিন্তা এসেছে।

বেগম জিয়ার ঘনিষ্ট সূত্রগুলো বলছে, বেগম জিয়ারও ধারণা শেষ পর্যন্ত তাঁকে অন্যকোথাও নেবে। এটা কাশিমপুর না বকশীবাজারের পুরনো কারাগার নাকি অন্যকোন স্থান সে ব্যাপারে নিশ্চিত নন বিএনপি চেয়ারপারসন। তবে যেখানেই নেয়া হোক বেগম জিয়া তাঁর প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র গুছানো শুরু করেছেন। শামীম ইস্কান্দরের স্ত্রী ও তাঁর দুজন ব্যাক্তিগত স্টাফ বেগম জিয়ার ব্যাগ গুছানোর কাজ করছেন। বেগম জিয়ার ঘনিষ্ট সূত্রগুলো বলছে, কারাগারে থাকলেও তিনি তাঁর মেকআপ বক্স সঙ্গেই নেবেন। মেকআপ বক্সের বাইরে তিনি পরিধেয় শাড়ি এবং আনুষাঙ্গিক পরিধেয় নেবেন দুই স্যুটকেস। এক স্যুটকেসে থাকবে তাঁর জুতো। ঔষধপত্র এবং বিছানার চাদর ইত্যাদি নেবেন এক স্যুটকেসে। অর্থাৎ জেল যাত্রাতেও বেগম জিয়ার সঙ্গী হবে ৫ স্যুটকেস। কারা কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা গেছে, যদি বেগম জিয়া দণ্ডিত হয়ে জেলএ যান,সেক্ষেত্রে তিনি ডিভিশন প্রাপ্ত কয়েদীর মর্যাদা পাবেন। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী এবং প্রাক্তন সংসদ সদস্য হিসেবে কারা বিধি অনুযায়ী তিনি এই ভি আই পি মর্যাদা পাবেন। এতে তাঁকে দেখভাল করার জন্য দুইজন ফালতু (দীর্ঘদিন দণ্ডিত কয়েদী) দেয়া হবে।

Read in English- http://bit.ly/2E7fMGs

বাংলা ইনসাইডার