ঢাকা, রোববার, ১৮ এপ্রিল ২০২১, ৫ বৈশাখ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

বিচ্ছিন্ন ঘটনায় ম্লান হচ্ছে বড় অর্জন

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১ শনিবার, ০৯:০০ পিএম
বিচ্ছিন্ন ঘটনায় ম্লান হচ্ছে বড় অর্জন

উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে আত্মপ্রকাশের দ্বিতীয় ধাপ পেরোলো বাংলাদেশ। আজ শনিবার বিকেলে যখন এই সুখবরটি জাতিকে জানাতে সংবাদ সম্মেলনে এলেন প্রধানমন্ত্রী, তখন শাহবাগে চলছিলো বাম ছাত্র সংগঠন গুলোর বিক্ষোভ। মুশতাক হত্যার বিচার এবং ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবীতে তাদের এই আন্দোলন। জাতিসংঘ যখন বাংলাদেশের উন্নয়নে মুগ্ধ তখন কারাবন্দী লেখক মুশতাকের মৃত্যুতে উদ্বেগ জানালো ১৩টি দেশের ঢাকাস্থ রাষ্ট্রদূতরা। অর্গানাইজেশন ফর ইকোনমিক কোঅপারেশন এন্ড ডেভেলপমেন্ট (ওইসিডি) ভুক্ত দেশ গুলো এক বিবৃতিতে তাদের উদ্বেগ উৎকণ্ঠার কথা জানায়।

বাংলাদেশ উন্নয়ন শীল দেশে উত্তরণের সাফল্য কেবল ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের নয়। গোটা দেশের। দেশের সব মানুষের এই আনন্দ ভাগাভাগি করে নেয়ার কথা ছিলো। কিন্তু বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনা আমাদের বড় অর্জন গুলোকে ম্লান করে দিচ্ছে।

আজ খুলনায় বিএনপির একটি সমাবেশ করার কথা ছিলো। অস্তিত্বের সংকটে ধুকতে থাকা দলটি সমাবেশে দেশের রাজনৈতিক ক্যানভাসে কোন পরিবর্তন হতো না। কিন্তু অতি উৎসাহীরা সরকারকে খুশী করতে ২৪ ঘণ্টা পরিবহন চলাচল বন্ধ করলো। বিএনপির লাভ হলো, ক্ষতি হলো আওয়ামী লীগের। এগুলো পুরনো বস্তাপচা স্বৈরাচারী কৌশল। বিএনপি-জামাত জোট ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত সময়ে আওয়ামী লীগ সভাপতির এরকম সমাবেশ বানচালের নানা কূটকৌশল করেছিল। ফেরী বন্ধ রাখা, গাড়ী বহরে হামলা, নেতাদের বিরুদ্ধে কাপ-চামচ চুরির মামলা দিয়েছিল। মানুষ এসব পছন্দ করেনি। এখনো যারা বিরোধী দলের সমাবেশ বন্ধে এরকম নোংরা কৌশল আনে, তারা আসলে সরকারের শুভাকাঙ্ক্ষী কিনা ভাবা দরকার।

শিক্ষার্থীরা তাদের পরীক্ষার দাবীতে আন্দোলন করছে। এই আন্দোলনে লাঠিপেটা করা হবে কেন? কারা এসব করছে? এরা কি সরকারের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের উস্কে দিতে চায়?

পৌরসভা নির্বাচনে যেকোনো মূল্যে জেতার নোংরা খেলায় কারা মাতছে? এরা কি আওয়ামী লীগের শুভার্থী। দু:সময়ে এরা কি পাশে থাকবে? এদের জন্য গোটা নির্বাচন ব্যবস্থাই প্রশ্ন বিদ্ধ হচ্ছে।

গত এক যুগে আওয়ামী লীগ সরকারের অনেক অর্জন। কিন্তু কিছু বিচ্ছিন্ন ঘটনায় পদ্মা সেতু, মেট্রো রেল, কর্ণফুলী টানেলের মতো উন্নয়ন স্বারক গুলো ম্লান হয়ে যাচ্ছে। তাই এই বিচ্ছিন্ন ঘটনা কারা ঘটাচ্ছে তাদের চিহ্নিত করতে হবে। অতি উৎসাহী, চাটুকারদের হাত থেকে রক্ষা করতে হবে সরকারকে।