ঢাকা, সোমবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

দুই সপ্তাহ পর বেনাপোল বন্দর দিয়ে ভারত থেকে কাঁচামাল আমদানি শুরু

শেখ নাছির উদ্দিন
প্রকাশিত: ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯ রবিবার, ১১:১৩ এএম
দুই সপ্তাহ পর বেনাপোল বন্দর দিয়ে ভারত থেকে কাঁচামাল আমদানি শুরু

গত দুই সপ্তাহ ধরে বেনাপোল বন্দর দিয়ে ভারত থেকে কাঁচামাল আমদানি বন্ধ থাকার পর গতকাল রোববার বিকেল থেকে পুনরায় শুরু হয়েছে আমদানি বাণিজ্য। ফলে কর্মব্যস্ততা বেড়েছে বেনাপোল বন্দরে। বেনাপোল বন্দরে কাঁচামাল যেমন ফল, পানা, মাছ ,আদা, রসুন আমদানি শুরু হয়।

বেনাপোল বন্দর ব্যবহারকারী ব্যবসায়ী সাইদুর রহমান বলেন, ভারতের সাথে বেনাপোল দিয়ে যোগাযোগ ব্যবস্থা সহজ হওয়ায় এ পথে আমদানিকারকদের আগ্রহ বেশি। কিন্তু কিছু বাণিজ্যিক সমস্যার কারণে বেনাপোল বন্দর থেকে ব্যবসায়ীরা মুখ ফিরিয়ে নিয়েছিল। তবে আজ থেকে পুরোদমে আবারও শুরু হয়েছে এ পথে কাঁচামাল আমদানি। এতে বৃদ্ধি পাচ্ছে সরকারের রাজস্ব আয়। 

বেনাপোল বন্দরের ৯২৫ এর শ্রমিক তরিকুল ইসলাম বলেন, হঠাৎ কাঁচামাল আমদানি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় তারা মানবেতর জীবনযাপন করছিলেন। আবার চালু হওয়ায় তারা বেশ খুশি।

বেনাপোল কাস্টমস হাউসের সহকারী কমিশনার উওম চাকমা জানান, কাঁচামাল আমদানি বন্ধ থাকার পর আজ থেকে পুনরায় শুরু হয়েছে কাঁচামাল আমদানি। বর্তমানে বন্দরে ২৪ ঘণ্টা বাণিজ্যিক কার্যক্রম চলমান রয়েছে। ব্যবসায়ীরা যাতে দ্রুত পণ্য খালাস নিতে পারে সেজন্য সব ধরনের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

যোগাযোগ ব্যবস্থা সহজ হওয়ায় বেনাপোল বন্দর দিয়ে প্রতিদিন প্রায় ৪০০ থেকে সাড়ে ৪০০ ট্রাক পণ্য আমদানি হয়ে থাকে। আর এসব পণ্যের মধ্যে ৪০-৪৫ ট্রাক মাছ, পানপাতা, আপেল, লেবু, টমেটোসহ বিভিন্ন পচনশীল জাতীয় খাদ্যদ্রব্য। প্রতিদিন এসব আমদানি পণ্য থেকে সরকারের প্রায় দেড় থেকে দু’কোটি টাকা রাজস্ব আয় হয়।

উল্লেখ্য, ঘোষণা ছাড়া অতিরিক্ত পণ্য আমদানির অভিযোগ এনে ৩০ নভেম্বর বিজিবি সদস্যরা যশোর থেকে ৯ ট্রাক পানপাতা আটক করে। এর জের ধরে বেনাপোল বন্দরে খাদ্যদ্রব্য জাতীয় কাঁচামাল আমদানি বন্ধ করে দেন ব্যবসায়ীরা।

 

বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ