ঢাকা, শুক্রবার, ২০ জুলাই ২০১৮ , ৪ শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

গোপনে কেন প্রেম-বিয়ে?

বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২ জুলাই ২০১৮ বৃহস্পতিবার, ০৯:০৫ পিএম
গোপনে কেন প্রেম-বিয়ে?

যখন আপনি তারকা, তখন আপনার প্রেমটি গোপন রাখতে হবে। বিয়ের খবরও যেন কেউ না জানতে পারে। তারকাদের প্রেম ও বিয়ের খবর গোপন রাখার থিওরি কে আবিস্কার করেছেন জানা সম্ভব হয়নি। তবে বহুকাল ধরে হলিউড, বলিউড, বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশের শোবিজে অঙ্গনে এই চর্চা চালু।

প্রেম-বিয়ের খবর জানলে নাকি দর্শকের আগ্রহ থাকে না। এমন হাস্যকর কথা ও ভাবনা তারকারা বলে থাকেন। তাঁরা দেখেও দেখেন না নায়ক রাজ রাজ্জাক, আলমগীর, শাবানা, সালমান শাহ, শাহরুখ খানদের।

বাংলাদেশের চলচ্চিত্র জগতে তারকাদের গোপন প্রেম-বিয়ের প্রবণতা নব্বই দশক থেকে যেন একটু বেশিই বেড়েছে। ১৯৯৩ সালে চলচ্চিত্রে আসেন শাবনূর। একে একে নায়ক সাবি্বর, সালমান শাহ, রিয়াজ, চীনা নাগরিক মাইকেল চ্যাং এবং সবশেষে নায়ক অনিকের সঙ্গে তার গোপন প্রেমের কথা মিডিয়ায় প্রচার হয়। নায়িকা বারবার অস্বীকার করেছেন এসব খবর। শেষ পর্যন্ত সন্তান সম্ভবা হয়ে নিজেই স্বীকার পেয়েছেন বিবাহিত যুবক অনিকের সঙ্গে তার গোপন প্রেম ও বিয়ের কথা।

চলচ্চিত্রে আসার অল্পদিনের মধ্যেই পপি প্রেমে পড়ে যান শাকিল খানের। এ প্রেম গোপন বিয়ে পর্যন্ত গড়ায়। পপির মা বিয়েটা না মানলে মামলা আদালত পর্যন্ত গড়ায়। শেষ পর্যন্ত বিবাহ বিচ্ছেদ। এরপর মাঝে মধ্যে চলচ্চিত্র এবং এ জগতের বাইরের লোকজনকে জড়িয়ে পপির প্রেম-বিয়ের কথা বাতাস ভারি করলেও পপি থাকেন নিশ্চুপ। বছর চারেক আগে খুব করে রটেছিল তাঁর গ্রামের বাড়ি খুলনার এক বিবাহিত ডাক্তারের সঙ্গে পপির গোপন বিয়ের খবর। আবার এফডিসি পাড়ায় এখন গুঞ্জন, নায়ক জায়েদ খানের সঙ্গে তার সম্পর্ক রয়েছে। সত্য মিথ্যা সময়ই বলে দিবে। কেউ তো আর মুখ খুলে না।

এক সময় নায়ক রিয়াজ ও প্রয়াত মান্নার সঙ্গে গোপন প্রেমের গুঞ্জন উঠে পূর্ণিমার। অবশেষে ২০১০ সালে পূর্ণিমা আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকার করেন ২০০৭ সালে প্রেম করে গোপনে চট্টগ্রামের ব্যবসায়ী আহমদ ফায়াদ জামিলকে বিয়ে করেছেন।

২০০৬ সালে বুলবুল জিলানীর হাত ধরে চলচ্চিত্রে আসেন রেসি। এ নির্মাতার `নীল আঁচল’ ছবি করতে গিয়ে প্রেমে পড়েন। কিন্তু সে সম্পর্ক খুব বেশিদিন চলেনি। অন্য এক মডেলের প্রেমে পড়েন রেসি। কিন্তু সে সম্পর্ক ভেঙ্গে ডিপজলের সঙ্গে গড়ে তোলেন সুসম্পর্ক। সে সম্পর্কটা এফডিসির মানুষ প্রেম বলেই ধরে নিয়েছিল। চুটিয়ে প্রেম ও সিনেমা করেছেন ডিপজলের সঙ্গে। কিন্তু রেসির মন ডিপজলেও খুব বেশিদিন টেকেনি। রেসির মন উড়ে যায় চট্টগ্রামের এক ব্যবসায়ীর ঘরে। ডিপজল ঘর ছাড়া করেন তাকে। অত:পর বিয়ের পিড়িতে সেই যুবকের সঙ্গে। এখন ঘর সংসার নিয়ে ব্যস্ত আছেন।

ক্যারিয়ারের চেয়ে প্রেম ভালবাসায় বেশি দূর্বল ছিলেন আঁচল। নায়ক বাপ্পিসহ অনেকের সঙ্গে তার প্রেম ভালবাসার গুজব শোনা যায়। জুয়েল নামের এক চিত্র প্রযোজককে গোপনে বিয়ে করেন তিনি। ১২.১২.১২ তারিখে তারা বিয়ের পিঁড়িতে বসেন। আঁচলের বিয়ে নিয়ে তার ক্ষিপ্ত মায়ের হস্তক্ষেপে শেষ পর্যন্ত ১৪.৪.১৩-তে বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটে।

ববি ও পরিচালক ইফতেখার চৌধুরির প্রেম বিয়ে তো এখন ওপেন সিক্রেট। শাকিব খান ও অপু বিশ্বাসের দীর্ঘদিনের প্রেম ও বিয়ের খবর বহুবার মিডিয়ায় প্রকাশ পেয়েছে। তবে দুজনার অভিনয়গুনে তা কখনো সত্য হয়নি। একদা অপু বিশ্বাস ফাঁস করে দেন গোপন প্রেম ও বিয়ের খবর। হাজির হন সন্তান নিয়ে। এখন শাকিব খানের সঙ্গে নায়িকা বুবলীর প্রেমের গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। অনেকে বলছেন তাঁরা বিয়েও করেছেন। বিপরীতে বাপ্পি ও অপু বিশ্বাসের প্রেমের খবরও মিডিয়ায় রটেছে। যদিও এর কোন সত্যতা পাওয়া যায়নি।

অভিনেত্রী মম ও পরিচালক শিহাব শাহিন। তাদের প্রেম-বিয়ে নিয়ে নিজেরাও যেমন জটলা খোলে না। মিডিয়াও তৈরী করে নানা কথা। ভাবনা – অনিমেষ আইচ কিংবা শাফায়াত মনসুর রানা ও অপর্ণার প্রেমের গুঞ্জনও শোনা যাচ্ছে বহুদিন ধরে। শোনা যাচ্ছে শবনম ফারিয়া ও নুসরাত ফারিয়া বিয়ে করেছেন মিডিয়ার বাইরের মানুষকে। এমন অনেক গোপন ও গুঞ্জন চাওড় আছে শোবিজে।  

চলচ্চিত্রের প্রবীণ মানুষেরা বলেন, প্রেম-বিয়ে অপরাধ নয়, এতে ক্যারিয়ারেরও কোনো ক্ষতি হয় না। এমন প্রমাণ শোবিজে ভুড়ি ভুড়ি রয়েছে। বরং এসব খবর গোপন করলেই হিতেবিপরীত হয়। এতে নির্মাতা ও দর্শকের গ্রহণ যোগ্যতা হারান নায়ক ও নায়িকারা। তাদের উপর সাধারণ দর্শক বিশ্বাস হারিয়ে ফেলেন। যেমন হারিয়ে ফেলেছে শাকিব খানের উপর থেকে। শাকিবকে জড়িয়ে কোন নায়িকার সঙ্গে যদি প্রেম ও বিয়ের গুঞ্জন উঠে। সকলে ধরে নেয়, এমন হতে পারে।



বাংলা ইনসাইডার/এমআরএইচ