ঢাকা, শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮ , ৬ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

যে কারনে বলিউড ছাড়েন তনুশ্রী

বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮ বুধবার, ০৮:৪৭ পিএম
যে কারনে বলিউড ছাড়েন তনুশ্রী

চলচ্চিত্র ছেড়ে এখন হার্ডকোর ড্রামার প্রস্তুতি নিচ্ছেন এক সময়ের পর্দা কাঁপানো বলিউড অভিনেত্রী তনুশ্রী দত্ত। ভারতের জনপ্রিয় রিয়্যালিটি শো ‘বিগবস ১২’ তে অংশগ্রহণ করছেন এই তারকা। কিছুদিন আগে তাঁর বেশকিছু ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়ে। সেখানে এবড়ো থেবড়ো চেহারার তনুশ্রীকে দেখে বিস্মিত হয়ে যান ভক্তরা। অথচ একসময় তাঁর রূপে মোহবিষ্ট হয়েছেন অনেকেই।

বলিউডে সর্বশেষ ২০১০ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘অ্যাপার্টম্যান্ট’ ছবিতে দেখা যায় তনুশ্রীকে। এরপর তিনি নাকি বেশকিছুদিন আধ্যাত্মিক চর্চা করেন। তিব্বতে গিয়ে দালাই লামার সঙ্গে দেখাও করেন। সেখানে ধ্যানতত্বের ওপর কিছু দীক্ষা নেন। চলচ্চিত্র থেকে ধীরে ধীরে বিচ্ছিন্ন হতে থাকেন তনুশ্রী। এরপর যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি জমান। কিন্তু ইদানিং হঠাৎ ভারতে ফিরে আসাতে অনেকেই তাঁর বিষয়ে কৌতূহলী হয়। শুরু হয় তাঁকে নিয়ে কানাঘুষা। প্রশ্ন ওঠে, এতদিন কোথায় ছিলেন? কেনই বা বলিউড থেকে তিনি হারিয়ে গেলেন?

চলচ্চিত্রের প্রতি এক ধরনের অভিমান থেকেই নাকি নিজেকে আড়াল করে নেন তনুশ্রী। ভারতীয় কয়েকটি সংবাদমাধ্যম এমনটিই উঠে আসে। জানা যায়, ২০০৮ সালে ‘হর্ন ওকে প্লিজ’ ছবির শুটিং সেটে নাকি তনুশ্রীকে যৌন হয়রানি করেন অভিনেতা নানা পাটেকার। এরপর তিনি অভিনেতার সঙ্গে কোনও ধরনের ঘনিষ্ঠ দৃশ্য করতে চাননি। ঘটনাটি এখানেই থামিয়ে দেননি তনুশ্রী। এ বিষয়ে তিনি নাকি থানায় অভিযোগও করেন। যার ফলে ছবি থেকে তাঁর নাম কেটে দেওয়া হয়। কারণ নানা পাটেকার বড় অভিনেতা ও ছবির প্রধান নায়ক ছিলেন। স্বভাবত তাঁর কথাই শোনা হয়। তখন তনুশ্রী পাশে কেউই দাঁড়াননি, উল্টো নাকি তাঁকে হয়রানি বিভিন্নভাবে হয়রানি করা হয়।

পরবর্তীতে ঐ ছবিতে নেওয়া হয় আরেক অভিনেত্রী রাখি সাওয়ান্তকে। অনুমুতি না নিয়ে নায়িকা বদল করায় পুনরায় থানায় অভিযোগ করেন তনুশ্রী। কিন্তু তাঁর অভিযোগ আমলে নেওয়া হয়নি। এমন ঘটনায় ভেঙে পড়েন তনুশ্রী। অভিমান চেপে অনেকটা নিরবেই সিনেমা থেকে দূরে সরে যান ‘আশিক বানায়া আপনে’ খ্যাত এই তারকা।

ধারনা করা হচ্ছে সালমান খানের উপস্থাপনায় এবারের ‘বিগবস’-এ বিষয়টি প্রকাশ্যে আনতে পারেন তনুশ্রী।

বাংলা ইনসাইডার/ এইচপি