ঢাকা, শুক্রবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৮, ৪ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

‘কৌতুক’ যখন সম্পর্ক ভাঙার অস্ত্র

বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ সোমবার, ০৯:৩৭ পিএম
‘কৌতুক’ যখন সম্পর্ক ভাঙার অস্ত্র

আধুনিক বিজ্ঞান বলে, শিল্প সংস্কৃতি মানুষের মনে গভীর প্রভাব ফেলে। কখনো ইতিবাচক, আবার কখনো নেতিবাচক। মেগা সিরিয়াল দেখে বিচ্ছেদ, হত্যা, আত্মহত্যার মতো অপ্রীতিকর অনেক ঘটনা শোনা যায়। কিন্তু কৌতুক শুনিয়ে সম্পর্ক ভেঙ্গেছেন এমন ঘটনা হয়তো আগে শোনা যায়নি। অথচ স্কটিশ এক ব্যক্তি এই কৌতুককেই বানিয়েছেন বিচ্ছেদের হাতিয়ার।

নাম তাঁর ড্যানিয়েল স্লোস। একজন রসিক মানুষ হিসবেই তিনি সর্বজনে পরিচিত। অর্থাৎ, তিনি একজন পেশাদার কৌতুকশিল্পী। এমনই তাঁর কৌতুক যে, হেসে গড়াগড়ি খাওয়ার বদলে মানুষ বিচ্ছেদের দিকে ঝুঁকছে।

নেটফ্লিক্সে গত ১১ সেপ্টেম্বর থেকে ‘জিগস’ শিরোনামে ড্যানিয়েলের একটি কমেডি শো প্রচারিত হয়। মাত্র ২০ মিনিট ব্যাপ্তির এই শো’র একটি পর্ব মানুষের মনে হাসির খোরাক জোগানর বদলে এনেছে বিষণ্ণতার ছায়া। পর্বটি দেখে এ পর্যন্ত প্রায় ৪ হাজার মানুষের সম্পর্ক ভেঙেছে। এরমধ্যে বিবাহ বিচ্ছেদের ঘটনা ঘটেছে ১৭টি। 

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ‘মিরর’-কে ড্যানিয়েল নিজেই বলেছেন, তাঁর কৌতুক শুনে সম্পর্ক ভাঙার সংখ্যাটা আগে ছিল পাঁচশো, নেটফ্লিক্সে দেখানো শুরু হওয়ার পর তা প্রায় ৪ হাজার ছাড়িয়েছে।

কিন্তু কি রয়েছে ড্যানিয়েলের কৌতুকে? ড্যানিয়েল জানান, ‘অনেক সময় অনিচ্ছা সত্ত্বেও আমাদের কোনো একটি সম্পর্কে জড়িয়ে থাকতে হয়। দিনের পর দিন বয়ে বেড়াতে হয় মিথ্যে সম্পর্ক। সৃষ্টি হয় নানান জটিলতা। একসময় অসাড় হয়ে পড়ে দেহ, মন। কৌতুকের ছলে মানুষের এসব গোঁড়া ধ্যান ধারনা থেকে বেরিয়ে আসার কথাই বলতে চেয়েছি।’

সম্পর্ক ছিন্নকারী মানুষজন ড্যানিয়েলকে তাঁর কৌতুকের জন্য কৃতজ্ঞতা জানাতে ভুলছেন না। কারণ তাঁর কৌতুকই তো তাঁদের ভুল সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসার টনিক হিসেবে কাজ করেছে।     

বাংলা ইনসাইডার/ এইচপি