ঢাকা, সোমবার, ২১ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

জীবনে যে একটি ‘হিন্দী’ সিনেমাই দেখেছিলেন গান্ধী

বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২ অক্টোবর ২০১৯ বুধবার, ০৩:৫৭ পিএম
জীবনে যে একটি ‘হিন্দী’ সিনেমাই দেখেছিলেন গান্ধী

১৯৪৫ সালের ঘটনা। নির্মাতা বিজয় ভাট ১৯৪৩ সালে নির্মিত তার মিথলজিক্যাল ড্রামা ‘রাম রাজ্য’র বিশেষ প্রদর্শনীর আয়োজন করেছিলেন। মহাত্মা গান্ধীর জন্যই এই বিশেষ প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছিল। আর এটিই ছিল মহাত্মা গান্ধীর দেখা একমাত্র হিন্দি সিনেমা।

আজ ২ অক্টোবর মহাত্মা গান্ধীর ১৫০তম জন্মবার্ষিকী। ৭৬ বছর আগে এই দিনে ‘রাম রাজ্য’ ছবিটিও পুরো ভারতে মুক্তি পেয়েছিল। গান্ধী অনেক ইংরেজি ছবি দেখেছিলেন। তবে তার দেখা একমাত্র হিন্দি সিনেমা বিজয় ভাটের ‘রাম রাজ্য।’

বিজয় ভাটের সঙ্গে গান্ধীর দেখা হয় ১৯৩০ সালের শেষের দিকে ভালসাদে বেড়াতে গিয়ে। গান্ধী যখন জানতে পারেন বিজয় ভাট একজন নির্মাতা, তখন তিনি বলেন, ‘আপনি নারসি মেহতাকে নিয়ে সিনেমা নির্মাণ করছেন না কেন?’ নার্সি মেহতা হলেন গুজরাটের একজন আধ্যাত্মিক কবি যিনি ‘বৈষ্ণব জান তো তেনে রে কাহিয়ে যে’ ভজনটির রচয়িতা। এই ভজনিটি গান্ধীর খুব পছন্দ ছিল।

গান্ধীর কথামতো বিজয় নির্মাণ করেছিলেন ‘নারসি মেহতা।’ ১৯৪০ সালে হিন্দি ও গুজরাটি ভাষায় নির্মাণ করা হয় ছবিটি। তবে বিজয় ভাটের আফসোস, তিনি গান্ধীকে এই ছবিটি দেখানোর সুযোগ পাননি।

১৯৪৫ সালে জুহুর একটি বাংলোতে কিছুদিন ছিলেন মহাত্মা গান্ধী। সেই সময়ে গান্ধীর সহকারীর সাহায্য নিয়ে বিজয় ভাট মাত্র ৪০ মিনিট সময় পেয়েছিলেন সিনেমা দেখানোর জন্য। গান্ধীকে দেখানোর জন্য ‘রাম রাজ্য’ ছবিটি নির্বাচন করেন বিজয়। ছবি শুরু হওয়ার পর গান্ধী এতটাই মুগ্ধ হয়েছিলেন যে তিনি ৪০ মিনিটের বদলে পুরা ৯০ মিনিট ধরে ছবিটি দেখেন।

সমালোচকদের প্রশংসা পেয়েছিলো ছবিটি। ‘রাম রাজ্য’ ছবিটি বক্স অফিসেও সাফল্য পেয়েছিল। ১০০ সপ্তাহ চলেছিল থিয়েটারে। 


বাংলা ইনসাইডার/এমআরএইচ