ঢাকা, শনিবার, ১৯ জুন ২০২১, ৪ আষাঢ় ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

করোনা পজিটিভ কিনা গন্ধ শুকে বলে দেবে কুকুর 

নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২ জুন ২০২১ বুধবার, ০৮:০১ এএম
করোনা পজিটিভ কিনা গন্ধ শুকে বলে দেবে কুকুর 

কুকুরের ঘ্রাণশক্তির চমৎকার প্রতিভা রোগ নির্ধারণের ক্ষেত্রে আগেই প্রমাণিত হয়েছে। ক্যান্সার, ম্যালেরিয়া এমনকী কুষ্ঠ রোগে আক্রান্তদের চিহ্নিত করতে পারে কুকুর। আর এবার একাধিক গবেষণায় জানা গেল SARS-CoV-2 ভাইরাসও চিহ্নিত করতে পারবে কুকুর।

এক্ষেত্রে পোষ্য কুকুরই বলে দেবে আশেপাশে কেউ করোনা আক্রান্ত রয়েছেন কি না। সোমবার এমনই তথ্য উঠে এল এক গবেষণায়। প্রশিক্ষণ নিলে কোভিড সংক্রমণের ৯০ শতাংশই ধরে ফেলতে পারবে কুকুর। এমনকী মৃদু বা উপসর্গহীন ব্যক্তিদের ক্ষেত্রেও তা সম্ভব। এর ফলে আগে থেকেই আক্রান্তদের কোয়ারোন্টিনে রাখা যাবে বলে আশাবাদী গবেষকদল।

লন্ডন স্কুল অব ট্রপিক্যাল মেডিসিনের গবেষকরা এ বিষয়ে একটি পরীক্ষা করেন। উপসর্গহীন করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির শরীরের সঙ্গে রয়েছে এমন রাসায়নিক যৌগ থেকে কোনো আলাদা গন্ধের সন্ধান কুকুর পায় কিনা তা পরীক্ষা করে দেখেন। এর জন্য করোনা আক্রান্তদের জামাকাপড়, মুখের মাস্ক থেকে স্যাম্পেল সংগ্রহ করেন। প্রায় ২০০ জন সংক্রমিতের থেকে মোজার স্যাম্পেলও সংগ্রহ করা হয়। 

কোনটি করোনা আক্রান্তদের আর কোনটি নয়, ধরতে পারলেই কুকুরদের জন্য পুরস্কারের ব্যবস্থা ছিল। যাতে সেই লোভে মিথ্যা কেস না ধরে ফেলে তার জন্যও ৬টি কুকুরকে সঠিকভাবে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়। গোটা পরীক্ষায় দেখা যায় মোট স্যাম্পেলের ৮২ শতাংশই তারা চিহ্নিত করতে সক্ষম হয়েছে। গবেষকদের মতে, বিভিন্ন বিমানবন্দরে বা টার্মিনাল স্টেশনগুলির প্রবেশে কুকুরদের ব্যবহার করেই প্রায় ৯১ শতাংশ করোনা আক্রান্ত চিহ্নিত করা যাবে। আর এর ফলে সংক্রমণের আশঙ্কাও প্রায় দ্বিগুণ কম করা যাবে।  

গবেষকরা আরও বলেন, `করোনা টেস্টের বাকি উপায়গুলির থেকে সবচেয়ে দ্রুত হল কুকুরের ঘ্রাণশক্তি। তবে আমরা বলছি প্রথমে প্রশিক্ষিত কুকুরকে রাখা হোক প্রাথমিক চিহ্নিতকরণের জন্য। তারপর রোগীকে অবশ্যই আরটিপিসিআর টেস্ট করাতে হবে।`

ব্রিস্টল বিশ্ববিদ্যালয়ের তুলনামূলক রোগ-প্রতিরোধ বিদ্যার অধ্যাপক মিক বেইলির মতে, `এই গবেষণা সত্যিই যুগান্তকারী। খুবই উপযোগী এবং বিজ্ঞানসম্মতও বটে। তবে বিমানবন্দর বা রেলস্টেশনে করোনা চিহ্নিত করতে কুকুরকে রাখার মতো পরিস্থিতি আরও খতিয়ে দেখা প্রয়োজন।`

বিষয়: কুকুর