ঢাকা, সোমবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নতুন ধামাকা নিয়ে এলো অ্যাপল ওয়াচ ৫

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ বুধবার, ০৩:৫৭ পিএম
নতুন ধামাকা নিয়ে এলো অ্যাপল ওয়াচ ৫

অ্যাপলপ্রেমীদের মনে এখন যেন নতুন উৎসবের দোল লেগেছে। আইফোন ১১ এরই মধ্যে সবার সামনে চলে এসেছে। এছাড়াও অ্যাপল ওয়াচ, আইপ্যাড নিয়েও হৈচৈও একেবারে কম নয়। নতুন অ্যাপল ওয়াচেও তাকছে নতুন ধামাকা।

অ্যাপল ওয়াচ ৫ সিরিজে যুক্ত করা হয়েছে অলওয়েজ অন ডিসপ্লে ফিচার। ডিসপ্লের আলো সবসময় জ্বলে থাকলেও এতে অতিরিক্ত ব্যাটারি খরচ হবে না। হাত না নড়ানো পর্যন্ত ডিসপ্লের ব্রাইটনেস কম থাকবে। হাত নড়ালে ব্রাইটনেস বাড়বে। আশার কথা হলো, অ্যাপল ওয়াচ সিরিজ ৪ এর মতোই এতে ১৮ ঘণ্টার ব্যাকআপ পাওয়া যাবে।

অ্যাপল ওয়াচ ৫ এর জন্য অ্যালুমিনিয়াম, সিরামিক ও স্টেইনলেস স্টিল ও টিটেনিয়ামের কেসিং পাওয়া যাবে। পছন্দমতো স্ট্র্যাপ ও কেসিং অর্ডার করার সুবিধা দিতে অ্যাপল ওয়াচ স্টুডিও নামে নিজেদের ওয়েবসাইটে নতুন একটি পেজ খুলেছে অ্যাপল। ওয়েবসাইট ছাড়াও অ্যাপ আকারে পাওয়া যাবে ওয়াচ স্টুডিও। ভবিষ্যতে অ্যাপলের রিটেইল শপেও পছন্দ মতো স্ট্র্যাপ ও কেসিং বেছে নেওয়ার সুবিধা আনা হবে।

নতুন দুই ফিচারের মধ্যে থাকছে ইন্টারন্যাশনাল ইমার্জেন্সি কলিং ও কম্পাস। এছাড়াও, ওয়াচওএস ৬ সফটওয়্যার যুক্ত হওয়ায় এতে মেনস্ট্রুয়াল সাইকেল ট্র্যাকিংয়ের সুবিধা থাকবে। স্লিপ ট্র্যাকিং থাকার কথা থাকলেও অ্যাপল ফিচারটি এবার আসেনি।

তবে অ্যাপল ওয়াচকে মেডিকেল টুল হিসেবে ব্যবহার করে স্বাস্থ্য সংক্রান্ত তথ্য জানতে রিসার্চ অ্যাপ আনছে অ্যাপল। বছরের শেষ দিকে অ্যাপটির মাধ্যমে যুক্তরাষ্ট্রের ব্যবহারকারীরা তিনটি গবেষণার জন্য তথ্য সরবরাহ করতে পারবে। গবেষণার ক্ষেত্রগুলো হলো হিয়ারিং, উইমেন’স হেলথ ও হার্ট অ্যান্ড মুভমেন্ট।

স্মার্টওয়াচটি দুটি সংস্করণে পাওয়া যাবে। শুধু জিপিএস সুবিধা সম্বলিত অ্যাপল ওয়াচ সিরিজ ৫ কিনতে চাইলে দাম পড়বে ৩৯৯ ডলার, বাংলাদেশি টাকায় ৩৩ হাজার ৫১৬ টাকা। জিপিএস ও সেলুলার সুবিধা চাইলে খরচ করতে হবে ৪৯৯ ডলার (৪১ হাজার ৯১৬ ডলার)। ইতোমধ্যে এর প্রি-অর্ডার শুরু হয়েছে এই ওয়াচের। আগামী ২০ সেপ্টেম্বর এই ওয়াচ বাজারেও আসতে যাচ্ছে।

বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ