ইনসাইড ক্যারিয়ার

এক্সিকিউটিভ পদে লোক নেবে স্কয়ার টেক্সটাইলস

প্রকাশ: ০৮:৫২ এএম, ০৩ জুলাই, ২০২২


Thumbnail

সম্প্রতি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে স্কয়ার গ্রুপের অধীন স্কয়ার টেক্সটাইলস ডিভিশন। প্রতিষ্ঠানটি তাদের পাবলিক রিলেশন বিভাগে লোকবল নিয়োগ দেবে। আগ্রহীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

পদের নাম: এক্সিকিউটিভ, পাবলিক রিলেশন।

পদের সংখ্যা: উল্লেখ্য নেই।

 আবেদন যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতা: স্নাতক/মাস্টার্স, এমবিএ পাস। ২-৩ বছরের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। প্রার্থীর বয়সসীমা ৩৫ বছরের বেশি হওয়া যাবে না। চূড়ান্ত নিয়োগের পর ঢাকার উত্তরা অফিসে কাজ করতে হবে।

এ ছাড়াও যোগাযোগ দক্ষতা, টেক্সটাইল ইন্ডাস্ট্রি সম্পর্কে সম্যক ধারণা, পাবলিক রিলেশন সংক্রান্ত কাজ পরিচালনায় সিদ্ধহস্ত হতে হবে।

বেতন ও সুযোগ সুবিধা: বেতন আলোচনা সাপেক্ষে। কোম্পানির নীতিমালা অনুসারে অন্যান্য সুবিধা দেওয়া হবে।

আবেদন যেভাবে: আগ্রহীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন। আবেদন করতে ক্লিক করুন এখানে।

আবেদনের শেষ তারিখ: ১৩ জুলাই, ২০২২

স্কয়ার টেক্সটাইলস   চাকরি   ক্যারিয়ার   নিয়োগ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড ক্যারিয়ার

ম্যানেজমেন্ট খাতে লোক নেবে সেভ দ্য চিলড্রেন

প্রকাশ: ০১:৫৯ পিএম, ১৬ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail ম্যানেজমেন্ট খাতে লোক নেবে সেভ দ্য চিলড্রেন

সেভ দ্য চিলড্রেন সম্প্রতি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি তাদের কেইস ম্যানেজমেন্ট খাতে লোকবল নিয়োগ দেবে। আগ্রহীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

পদের নাম : অফিসার।

পদের সংখ্যা : ১টি।

আবেদন যোগ্যতা : যেকোনো বিষয়ে স্নাতক পাস হতে হবে। তবে সোশ্যাল সায়েন্সে পাস হলে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। প্রার্থীর কাজের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে ৩ বছর। এরমধ্যে ন্যূনতম ১ বছর শিশু অধিকার রক্ষা সংক্রান্ত কাজের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে।  এছাড়াও প্রার্থীদের জেন্ডার, ডির্ভাসিটি ও ইনক্লুলেশন সম্পর্কে জানাশোনা থাকতে হবে।

চূড়ান্ত নিয়োগের পর উখিয়ায় কাজের আগ্রহ থাকতে হবে।

বেতন ও সুযোগ সুবিধা : মাসিক বেতন আলোচনা সাপেক্ষে। কোম্পানির নীতিমালা অনুসারে অন্যান্য সুবিধা প্রদান করা হবে।

আবেদন যেভাবে : আগ্রহীদের অনলাইনে আবেদন করতে হবে। আবেদন করতে ক্লিক করুন এখানে।

আবেদনের শেষ তারিখ : ২১ আগস্ট, ২০২২

সেভ দ্য চিলড্রেন   চাকরি   ক্যারিয়ার   নিয়োগ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড ক্যারিয়ার

বাংলাদেশ সেনাবাহিনীতে চাকরির সুযোগ

প্রকাশ: ০৯:৪৮ এএম, ১৪ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail বাংলাদেশ সেনাবাহিনীতে চাকরির সুযোগ

সম্প্রতি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী। সেনাবাহিনীর ৯০তম বিএমএ দীর্ঘমেয়াদি কোর্সে লোকবল নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

শিক্ষাগত যোগ্যতা: মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট বা সমমান পরীক্ষায় যেকোনো একটিতে জিপিএ-৫ ও অন্যটিতে জিপিএ-৪.৫০ পেয়ে উত্তীর্ণ হলে আবেদন করতে হবে। অথবা ও লেভেলে ছয়টি বিষয়ের মধ্যে তিনটিতে ‘এ’ গ্রেড, তিনটিতে ‘বি’ গ্রেড এবং এ লেভেলে দুটি বিষয়েই ন্যূনতম ‘বি’ গ্রেড পেয়ে উত্তীর্ণ হতে হবে। অথবা ও লেভেলে ছয়টি বিষয়ের মধ্যে দুটিতে ‘এ’ গ্রেড, তিনটিতে ‘বি’ গ্রেড ও একটিতে ‘সি’ গ্রেড এবং এ লেভেলে দুটি বিষয়ের মধ্যে একটিতে ‘এ’ গ্রেড ও একটিতে ‘বি’ গ্রেড পেয়ে উত্তীর্ণ হতে হবে।

শারীরিক যোগ্যতা: পুরুষ প্রার্থীদের জন্য উচ্চতা ৫ ফুট ৪ ইঞ্চি, বুকের মাপ স্বাভাবিক ৩০ ও প্রসারণে ৩২ ইঞ্চি, ওজন ৫৪ কেজি। নারী প্রার্থীদের জন্য উচ্চতা ৫ ফুট ২ ইঞ্চি, বুকের মাপ স্বাভাবিক ২৮ ও প্রসারণে ৩০ ইঞ্চি, ওজন ৪৭ কেজি।

এছাড়াও ২০২২ সালের এইচএসসি বা এ লেভেল পরীক্ষার্থীরা আবেদন করতে পারবেন। এ ক্ষেত্রে প্রার্থীদের অবশ্যই এসএসসি জিপিএ-৫ বা ও লেভেলে ছয়টি বিষয়ের মধ্যে তিনটিতে ‘এ’ গ্রেড, তিনটিতে ‘বি’ গ্রেড বা সমমান ফলাফল থাকতে হবে।

নির্বাচিত প্রার্থীদের এইচএসসি বা এ লেভেল পরীক্ষায় অংশগ্রহণের পরই আইএসএসবিতে অংশগ্রহণ করতে পারবেন। উভয় মাধ্যমের ক্ষেত্রে বিএমএ যোগদানের আগে অবশ্যই এইচএসসি বা এ লেভেল পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হতে হবে।

বয়সসীমা: ২০২৩ সালের ১ জুলাই ১৭ থেকে ২১ বছর (এফিডেভিট গ্রহণযোগ্য নয়)। সশস্ত্র বাহিনীতে কর্মরত প্রার্থীদের জন্য ১৮ থেকে ২৩ বছর।

আবেদন করবেন যেভাবে: আবেদন করতে হবে অনলাইনে। আবেদন করতে ক্লিক করুন এখানে।

সুযোগ ও সুবিধা : সশস্ত্র বাহিনীর নীতিমালা অনুযায়ী অফিসার ক্যাডেটরা বেতন ও ভাতা প্রাপ্ত হবেন। পরবর্তী সময়ে কমিশন্ড অফিসার হিসেবে প্রযোজ্য বেতন ভাতা ও অন্যান্য আনুষঙ্গিক সুবিধা প্রাপ্ত হবেন।  

প্রশিক্ষণের বিভিন্ন পর্যায়ে এবং কমিশন প্রাপ্তির পর মেধাবী ক্যাডেট এবং অফিসারদের প্রশিক্ষণের জন্য বিদেশে গমনের সুযোগ পাবেন। নির্বাচিত কমিশনপ্রাপ্ত অফিসাররা পরবর্তী সময়ে এমআইএসটি থেকে ইঞ্জিনিয়ারিং ডিগ্রি লাভের সুযোগ পাবেন।  

এ ছাড়া ব্যক্তিগত যোগ্যতার ভিত্তিতে স্নাতকোত্তর, এমফিল ও পিএইচডি ডিগ্রি অর্জনের সুযোগ পাবেন। এছাড়াও নীতিমালা অনুসারে অন্যান্য সুবিধা দেওয়া হবে।

আবেদনের শেষ তারিখ: ৭ অক্টোবর ২০২২

সেনাবাহিনী   চাকরি   ক্যারিয়ার   নিয়োগ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড ক্যারিয়ার

কার্ড ডিভিশনে লোক নেবে স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড

প্রকাশ: ০১:০৮ পিএম, ১০ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail কার্ড ডিভিশনে লোক নেবে স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড সম্প্রতি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি তাদের কার্ড ডিভিশনে লোকবল নিয়োগ দেবে। আগ্রহীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

পদের নাম : হেড অব কার্ডস।

পদের সংখ্যা : ১।

আবেদন যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতা: যেকোনো বিষয়ে মাস্টার্স পাস করতে হবে। একাডেমিক পর্যায়ে কোনো প্রকার তৃতীয় বিভাগ থাকা যাবে না। 

দলবদ্ধ হয়ে কাজের আগ্রহ থাকতে হবে। স্মার্ট ও দক্ষ হতে হবে। ইংরেজি ভাষায় সাবলীল হতে হবে। প্রার্থীর বয়সসীমা ৪৫ বছর। তবে পদ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে কমপক্ষে ১২ বছরের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। এরমধ্যে কমপক্ষে তিন বছর কার্ড ডিভিশনের নেতৃত্বের থাকতে হবে।

এছাড়াও ক্রেডিট কার্ড,  মার্কেটিং ও প্রডাক্ট ডেভেলপমেন্ট বিষয়ে জানাশোনা থাকতে হবে। 

বেতন ও সুযোগ সুবিধা : বেতন আলোচনা সাপেক্ষ। কোম্পানির নীতিমালা অনুসারে অন্যান্য সুবিধা প্রদান করা হবে। 

আবেদন যেভাবে : আগ্রহীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন। আবেদন করতে ক্লিক করুন এখানে।

আবেদনের শেষ তারিখ : ২০ আগস্ট, ২০২২

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড   কার্ড ডিভিশন   চাকরি   ক্যারিয়ার   নিয়োগ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড ক্যারিয়ার

রিসার্চ ট্রেইনি পদে লোক নেবে আইসিডিডিআরবি

প্রকাশ: ০৯:৩৩ এএম, ০৭ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail রিসার্চ ট্রেইনি পদে লোক নেবে আইসিডিডিআরবি

জনবল নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র বাংলাদেশ (আইসিডিডিআরবি)। সংস্থাটি রিসার্চ ট্রেইনি পদে কর্মী নিয়োগ দেবে। আগ্রহীরা আগামী ১৩ আগস্ট পর্যন্ত অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন।

পদের নাম: রিসার্চ ট্রেইনি
পদসংখ্যা:
যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতা: স্বীকৃত প্রতিষ্ঠান থেকে পাবলিক হেলথ, সমাজবিজ্ঞান, পপুলেশন সায়েন্স, পরিসংখ্যান, বায়োস্ট্যাটিসটিকস, অ্যাপ্লাইড স্ট্যাটিসটিকস, এপিডেমিওলজি, নিউট্রিশন, ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ, বায়োইনফরমেটিকস বা ইনফরমেশন টেকনোলজিতে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অথবা এমবিবিএস ডিগ্রি থাকতে হবে। পাবলিক হেলথ, ডিজিটাল হেলথ বা ই-হেলথে অন্তত এক বছরের চাকরির অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। রিসার্চে দক্ষতা থাকলে, আন্তর্জাতিক জার্নালে লেখা প্রকাশিত হলে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে।

চাকরির ধরন: এক বছরের চুক্তিভিত্তিক (চুক্তির মেয়াদ বাড়ার সম্ভাবনা আছে)
কর্মস্থল: ঢাকা

বেতন-ভাতা: মাসিক বেতন ৬৭ হাজার ৬৯০ টাকা (আলোচনা সাপেক্ষে)। এছাড়া আয়কর, ক্যানটিন ভর্তুকি, পরিবহন ও ডে-কেয়ার সুবিধা দেওয়া হবে।

আবেদন করবেন যেভাবে
আগ্রহী প্রার্থীদের আইসিডিডিআরবির ওয়েবসাইটের এই লিংক থেকে নিয়োগসংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য জেনে Apply Online বাটনে ক্লিক করে আবেদন করতে হবে।

আবেদনের শেষ সময়: ১৩ আগস্ট ২০২২।

আইসিডিডিআরবি   চাকরি   ক্যারিয়ার   নিয়োগ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড ক্যারিয়ার

চাকরির বাজারে বাড়ছে বিসিএস উন্মাদনা

প্রকাশ: ০৮:০১ এএম, ০৭ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail চাকরির বাজারে বাড়ছে বিসিএস উন্মাদনা

ছোট একটি শব্দ 'বিসিএস'। এই শব্দটিকে ঘিরে জড়িয়ে থাকে অনেক স্বপ্ন। আর এই স্বপ্নের উন্মাদনা যেনো দিন দিন বেড়েই চলছে। স্বপ্ন পূরণের এই অঙ্গিকারে দিনরাত পড়ে থাকেন বিসিএসের পড়াশোনা বা বই নিয়ে, নিতে থাকে প্রস্তুতি। একজন বিসিএস পরিক্ষার্থীর দিকে তাকালে দেখতে পাই যেনো সে কত স্বপ্ন জল্পনা কল্পনায় বুনে রেখে তার সর্বস্ব দিয়ে চেষ্টা করছে তার স্বপ্ন পূরণের লক্ষ্যে পৌছানোর। তবে এই বিসিএসে কেনো এত লড়াই বা কেনোই বা এত বিসিএস নিয়ে এত উন্মাদনা।

আমরা রক্তে মাংসে গড়া মানুষ। আমাদের মধ্যে  আত্ত্বসম্মান বোধটা একটু বেশি। আর একজন বিসিএস ক্যাডার সেই মর্যাদা টুকু অনায়াসেই পায়। তবে কেউ কেউ মর্যাদা বা সম্মান পেতে চায় আবার কেউ কেউ বর্তমান সমাজে ক্ষমতা খাটিয়ে চলতে চায়। আর একজন বিসিএস ক্যাডারের উপরিউক্ত   উভয় সুবিধাই ভোগ করার মত ক্ষমতা পায়। এক কথায় বলতে গেলে একজন বিসিএস ক্যাডার সামাজিক মর্যাদা, ক্ষমতা সবই পায়। যার ফলে বিসিএসের একটি আসনের জন্য পরিক্ষা দিচ্ছে হাজারো মানুষ।

এখন তো গেলো আত্মসম্মান, সামাজিক মর্যাদা আর ক্ষমতা পাওয়ার সুবিধার কথা। যে সুবিধা একজন বিসিএস ক্যাডারের পাওয়াটাই স্বাভাবিক। আর এগুলা তো সাধারণ কিছু সুবিধা। এছাড়াও একজন বিসিএস ক্যাডারের কি কি সুবিধা এবং কেনো এই সেক্টরে উন্মাদনা ক্রমান্বে বাড়ছে সেটা নিয়েই বাংলা ইনসাইডারের আজকের এই আয়োজন। 

প্রথমেই একজন শিক্ষার্থীর পড়াশোনা শেষে কর্মজীবনে প্রয়োজন চাকরির নিশ্চয়তা। বর্তমানে চাকরি বাজারের খুবই খারাপ অবস্থা। যার ফলে শিক্ষিত হয়েও বেকার থাকছে অনেকে। আবার অনেকেই পড়াশোনা শেষে কোনো না কোনো  বেসরকারি প্রতিসঠানে কর্মরত থাকলেও নেই সে চাকরির নিশ্চয়তা। তবে একজন বিসিএস ক্যাডারকে কখনোই এই ভয়ে থাকতে হয় না যে তার চাকরি থেকে কখন ছাটাই করে দেয়। যার ফলে একজন শিক্ষার্থী বিএসেসের প্রতি আগ্রহ বেশি থাকে৷

দ্বিতীয়য়ত, চাকরি থাকলেও বেতন চাহিদা অনুযায়ী থাকে না। আর বেতন যদি চাহিদা অনুযায়ী না থাকে তাহলে সংসার বা পরিবার চালাতে বা পরিবারে চাহিদা মেটাতে বর্তমান সময়ে খুবই কষ্টসাধ্য। যে ভোগান্তিতে একজন বিসিএস ক্যাডারকে পড়তে হয় না। তাই বিসিএসটাই তাদের প্রধান তাকিকায় রাখে।  কারণ একজন বিসিএস ক্যাডারের উচ্চ বেতন পাওয়ার সুবিধা থাকে।  

তৃতীয়ত,  শুধু কি চাকরির নিশ্চয়তা আর উচ্চ বেতন ছাড়াও একজন বিসিএস ক্যাডারের থাকে একধিক সুবিধা।  যেমন বিভিন্ন রকম ভাতা সুবিধা। 

বিসিএস ক্যাডাররা মাসিক মূল বেতনের সাথে বাড়িভাড়া ভাতা, চিকিৎসা ভাতা, শিক্ষা সহায়ক ভাতা, যাতায়াত সুবিধা ভাতা, উৎসব ভাতা, নববর্ষ ভাতা, কার্যভার ভাতা, পাহাড়ি ভাতা, ভ্রমণ ভাতা পেয়ে থাকে। 

আর এইসব কারনেই সমসাময়িক চাকরির বাজারে দেখা যায় বিসিএসমূখী প্রবনতা। যার প্রভাব দিনদিন বাড়ছেই।

চাকরি   বিসিএস  


মন্তব্য করুন


বিজ্ঞাপন