ইনসাইড গ্রাউন্ড

৩য় দিনের শুরুতেই জুটি ভাঙলেন মিরাজ

প্রকাশ: ০৮:৩৫ পিএম, ২৬ জুন, ২০২২


Thumbnail

কাইল মায়ার্স একের পর এক জুটি গড়ে যাচ্ছেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১৩২ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে ফেলার পর পঞ্চম উইকেটে জার্মেই ব্ল্যাকউডকে নিয়ে ১১৬ রানের জুটি গড়েছিলেন এই সেঞ্চুরিয়ান।

ওই জুটি ভাঙার পর দ্বিতীয় দিনের শেষ সেশনে জসুয়া ডি সিলভাকে নিয়ে ফের প্রতিরোধ মায়ার্সের। ষষ্ঠ উইকেটেও জুটিটা শতরানের কাছাকাছি চলে এসেছিল।

তবে তৃতীয় দিনের সকালেই ৯৬ রানের জুটি ভেঙে দিয়েছেন মেহেদি হাসান মিরাজ। ১১৫ বল খেলে ২৯ রান করা জসুয়াকে অবশেষে এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে ফেলেছেন টাইগার অফস্পিনার।

মিরাজের ঘূর্ণি বল সুইপ করতে চেয়েছিলেন ক্যারিবীয় উইকেটরক্ষক। তবে সেটা পুরোপুরি মিস করে ফেলেন। আম্পায়ার আঙুল তুলে দিলে আর জায়গায় এক সেকেন্ডও দাঁড়াননি জসুয়া।

এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ১১০ ওভার শেষে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সংগ্রহ ৬ উইকেটে ৩৫৯ রান। মায়ার্স ১৩৬ আর আলজেরি জোসেফ ২ রানে অপরাজিত আছেন। এখন পর্যন্ত লিড ১২৫ রানের।

এর আগে কাইল মায়ার্সের অপরাজিত সেঞ্চুরিতে ভর করে ৫ উইকেটে ৩৪০ রান নিয়ে তৃতীয় দিনের খেলা শুরু করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। প্রথম দিন শেষে লিড ছিল ১০৬ রানের।


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

কমনওয়েলথ গেমস: জলবায়ু পরিবর্তন বিশ্বজুড়ে বদলে দিচ্ছে জীবন

প্রকাশ: ০৯:০০ এএম, ০৯ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail কমনওয়েলথ গেমস: জলবায়ু পরিবর্তন বিশ্বজুড়ে বদলে দিচ্ছে জীবন

২০২০ সালের ফেব্রুয়ারিতে আলেকজান্ডার স্টেডিয়ামের পুনর্নির্মাণের কাজ শুরু হয়েছিল, যখন কিনা সবচেয়ে বেশি বৃষ্টিপাত হয় এই অঞ্চলে। কমনওয়েলথ গেমসের কেন্দ্রবিন্দুতে থাকা এই স্টেডিয়ামের চূড়ান্ত কাজ শেষ হয় চলতি বছরের জুলাইয়ে, ঠিক এমন এক সময় যখন যুক্তরাজ্যের তাপমাত্রা ছাড়িয়ে গিয়েছিলো অতীতের সব রেকর্ড।

জলবায়ু পরিবর্তন বিদ্যমান। শুধু এখানে না, অন্য সব দেশেই। আর এই পরিবর্তন বেশ ভালো ভাবেই অনুভব করেছেন বার্মিংহামে আয়োজিত এই আসরের কয়েকজন প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী ।

আগামীতে খেলাধুলা, মানবতা এবং পৃথিবীর ভবিষ্যত নিয়ে তাদের ভয় এবং আশার কথা ব্যক্ত জানিয়েছেন তিনজন কমনওয়েলথ ক্রীড়াবিদ।

এলিউড কিপচোগে (কেনিয়া, অ্যাথলেটিক্স)

"আমি কেনিয়ার যে গ্রামাঞ্চলে থাকি এবং প্রশিক্ষণ করি, সেইখানআকার  জনসংখ্যার প্রায় ৮০ শতাংশ কৃষক।

"মানুষ জানে যে আজ থেকে ৫ বছর আগেই যে পরিমাণ বৃষ্টিপাত হতো, জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে এখন আর সেই মাত্রায় হয়না। এটি বাস্তব একটি কথা। এটি ক্রীড়াবিদদের উপরও প্রভাব ফেলে। জলবায়ু পরিবর্তন কিছু দেশে কঠিন সমস্যার সৃষ্টি  করেছে। একটানা দুই, তিন ঘন্টা দৌড়ানো সম্ভব হয় না।"

"এটি ম্যারাথন দৌড়বিদ হিসাবে সত্যিই দুঃখজনক। গরম পরিবেশে দৌড়ানো খুবই কঠিন। এটা ভীতিকর যে, একটি সেশন বা রেস শেষে, আপনি কীভাবে অনুভব করেন যে আপনার সমস্ত শক্তি চলে গেছে।‘’

"আমরা দেখেছি কিভাবে ২০১৯ সালে দোহায় বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে ম্যারাথন মধ্যরাতে শুরু করতে হয়েছিল যার একামত্র কারণ অত্যধিক গরম।

"আপনি যদি পারফর্ম করতে চান, আপনি যদি সত্যিই দৌড় উপভোগ করতে চান, আপনার অবশ্যই পরিষ্কার অক্সিজেন সহ একটি পরিচ্ছন্ন পরিবেশ থাকতে হবে।সুতরাং, পরিবেশের বিপর্যয় নিয়ে অবস্থান নেয়া এবং যার যার জায়গা থেকে জলবায়ু বাঁচানোর জন্য কথা বলা আমাদের জন্য সত্যিই গুরুত্বপূর্ণ।"

"সোশ্যাল মিডিয়া কল্যাণে মানুষ  এখন দ্রুতই সকল খবর পেতে পারে। আপনি একজন বন্ধুকে বলতে পারেন যে এটি আমাদের দেশ, আমাদের মহাদেশ, আমাদের আবাসস্থল, আমাদের বাড়ি। আমাদের অন্য কেউ নেই।"

ইরোনি সাউ (ফিজি, রাগবি সেভেন)

"আমি যে দ্বীপগুলিতে বড় হয়েছি সেখানে বড় ধরণ এর একটি জতিলতা রয়েছে। সেখানে প্রতিদিন জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে সৃষ্ট পরিবর্তনগুলি খালি চোখে দেখা যায়। যা আমাদের চোখের সামনে ঘটছে।‘’

"আমার মায়ের গ্রামে একটি রান্নাঘর এবং এক বাথরুমযুক্ত একটি বিল্ডিং ব্লক ছিল। আমি যখন ছোট ছিলাম তখন এটি সৈকত থেকে ১০ মিটার দূরে ছিল। কিন্তু এটি আর সেখানে নেই। আপনি চাইলে সমুদ্রতলে এর ভিত্তি স্থাপনা গুলো দেখতে পারবেন।"

" চার বছর বাইরে থাকার পরে সম্প্রতি বাড়িতে ফিরে গিয়েছিলাম। সেখানে একটি কবরস্থান রয়েছে যেখানে আমরা আমাদের দাদা-দাদি এবং পূর্বপুরুষদের কবর দিয়েছিলাম, কিন্তু এখন সমুদ্রের উচ্চতা বৃদ্ধির কারণে লোকেরা মৃতদেহগুলিকে আরও অভ্যন্তরীণ বা পাহাড়ের কাছে সরানোর কথা বলছে।

"এটি সত্যিই আমাদের জীবনকে, এমনকি খেলাধুলাকেও প্রভাবিত করছে।

"ছোটবেলায় আমরা সৈকতে রাগবি খেলতে পছন্দ করতাম৷ আমরা সবসময় সৈকতের শীর্ষে বালির স্ট্রিপে খেলতাম, একদিকে সমুদ্র এবং অন্যদিকে নারকেল গাছ৷

"এখন যদিও জোয়ারের সময় সেই বালির স্ট্রিপ নেই, জল নারকেল গাছের পাশ দিয়ে উঠে আসে। আমাদের খেলার জন্য কোন সমুদ্র সৈকত, জায়গা নেই।

"যদিও এটি সত্যিই পুরো বিশ্বকে প্রভাবিত করছে। ফ্রান্সে, যেখানে আমি এখন রাগবি খেলি সেকাহ্নে আমার বাড়ি থেকে বেশী গরম অনুভূত হয়। আমি মার্সেইতে বিমান থেকে নামার সাথে সাথে অত্যধিক গরমের কারণে আমার মাথা ঘোরা শুরু করে। গ্রীষ্মে ফ্রান্সের দক্ষিনাঞ্চলে থাকা সাত্যি বেশ কঠিন"

মুবাল আজম (মালদ্বীপ, সাঁতারু)

"মালদ্বীপের অনেক দ্বীপে ঘরবাড়ি প্লাবিত হয়েছে, ভাঙ্গনের কারণে বিলীন হয়ে গেছে অনেকের সহায়-সম্বল।

"রাজধানী মালে, যেখানে আমি আমার জীবনের বেশিরভাগ সময় বসবাস করেছি, সেখানে জনগণের জন্য কৃত্রিম বিচ রয়েছে। তবে বালু ক্ষয়ের কারণে এখানকার সমগ্র ভৌগলিক অবস্থার পরিবর্তন হয়েছে বলএ মনে হচ্ছে।‘’

"আমাদের প্রজন্মের ক্রীড়াবিদদের মধ্যে আমি ক্রমবর্ধমান পরিবেশ সচেতনতা দেখতে পাচ্ছি, যে্টা আমরা সরাসরি নিজেরা পেয়েছি।‘’

"আমি আমার দলের সাথে সাগরে প্রশিক্ষণ নিতাম। কিন্তু জল এত দূষিত ছিলো যে প্রায়ই অনুশীলন করা সম্ভব হতোনা।

"আমরা জানতাম যে আমাদের এটিতে অভ্যস্ত হতে হবে কারণ আমরা প্রয়োজনের সময়ে সচেতন হতে পারিনি৷ কিন্তু এটি আমাকে ভাবতে সাহায্য করেছে কীভাবে আমি আমাদের দেশসহ আরও টেকসই উন্নয়নের উদ্দেশশে সাহায্য করতে পারবো।‘’

তিনি মনে করেন ক্রীড়া সম্প্রদায়ের দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তন করা অনেক জরুরি। ক্যাননা তাদের মধ্যে সকলকে একিত্রিত করার শক্তি রয়েছে।

"আমি সমমনা অনেক লোকের সাথে দেখা করেছি। আমি মনে করি খেলাধুলা এই বিষোয়ে বিশেষ প্রভাব বিস্তার করতে হবে। কারণ নিজেরা বাচতে চাইলে আমাদের মাঝে পরিবেশ সচেতনতা গড়ে তুলতেই হবে।


কমনওয়েলথ   বিশ্ব   গেমস  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

ধারাবাহিক নাটকে দেখা যাবে ক্রিকেটার আশরাফুল ও জাহানারাকে

প্রকাশ: ০৮:৩৯ এএম, ০৯ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail ধারাবাহিক নাটকে দেখা যাবে ক্রিকেটার আশরাফুল ও জাহানারাকে

এবার ধারাবাহিক নাটকে দেখা যাবে জাতীয় দলের সাবেক তারকা ক্রিকেটার মোহাম্মদ আশরাফুল ও জাতীয় মহিলা ক্রিকেট দলের অন্যতম ক্রিকেটার জাহানারা আলমকে। যদিও এর আগে বিভিন্ন সময়ে টেলিভিশন নাটকে অভিনয় করতে দেখা গেছে আশরাফুল।

জানা গেছে, তারিক মুহাম্মদ হাসানের রচনা ও পরিচালনায় ‘গোল্ডেন সিক্স’ নামের একটি ধারাবাহিক নাটকে তারা অভিনয় করবেন। জানা গেছে, আজ ৯ আগস্ট থেকে বেসরকারি চ্যানেল আরটিভির পর্দায় দেখা যাবে ধারাবাহিক নাটকটি।

নির্মাতা তারিক মুহাম্মদ হাসান জানান, এতে জাভেদ চরিত্রে অভিনয় করেছেন মোহাম্মদ আশরাফুল এবং জাহান চরিত্রে থাকছেন জাহানারা আলম। বিভিন্ন চরিত্রে আরও অভিনয় করেছেন যাহের আলভী, শেহতাজ, চমক, মিহি আহসান, তিথি, অলিউল হক রুমী, মুকিত জাকারিয়া, শরাফ আহমেদ জীবন, সোহেল খান, মুসাফির সৈয়দ এবং সাবেক ক্রিকেটার হাসিবুল হোসেন শান্ত।

উল্লেখ্য, নাটকে হাসান নামের এক যুবক মাটি খুঁড়তেই বেরিয়ে আসে একটা ধাতব বাক্স। সে এটাকে গুপ্তধন মনে করে, কিন্তু ঝামেলা হয় এ নিয়ে। পুরো ঘটনাটা দেখে ফেলে গ্রামের দুষ্ট ব্যবসায়ী সদরুলের কর্মচারী রূপচাঁদ। এরপর নাটকে নতুন মোড় নেয়, চলতে থাকে গল্পের নাটকীয়তা।

ক্রিকেটার   আশরাফুল   জাহানারা  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

এশিয়া কাপের জন্য বিবেচনায় সাব্বির-সৌম্য

প্রকাশ: ০৯:২৪ পিএম, ০৮ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail এশিয়া কাপের জন্য বিবেচনায় সাব্বির-সৌম্য

সম্প্রতি টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশের পারফরম্যান্স হতাশাজনক। জিম্বাবুয়ে সিরিজে নবীনদের দিয়ে চেষ্টা করেও ৩ ম্যাচের সিরিজ ২-১ ব্যবধানে হেরে যায় সাকিব-মুশফিকদের ছাড়া দলটি। এর মধ্যে নুরুল হাসান সোহান, লিটন দাস, ইয়াসির আলী রাব্বির ইনজুরিতে এশিয়া কাপের দল গঠন নিয়েই দুশ্চিন্তায় নির্বাচকরা।

এদিকে ৮ আগস্টের মধ্যে স্কোয়াড ঘোষণার নির্ধারিত সময় দিয়েছিলো এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল (এসিসি)। বিসিবির আবেদনের প্রেক্ষিতে ১১ আগস্ট পর্যন্ত সময় বাড়িয়েছে তারা। এর মধ্যে বিসিবিকে দল ঘোষণা করতে হবে। কিন্তু বেটিং সাইটের সঙ্গে সাকিবের চুক্তির কারণে টি-টোয়েন্টির অধিনায়ক হিসেবে তার নামও ঘোষণা করতে পারছে না বিসিবি। ইতিমধ্যে সাকিবের সঙ্গে আলোচনা করে বিষয়টির সুরাহা করার চেষ্টায় সংস্থাটি।

এদিকে দলের নিয়মিত ক্রিকেটারদের অফফর্ম এবং ইনজুরির কারণে সৌম্য-সাব্বিরদের মতো ক্রিকেটারদের নিয়ে ভাবছে নির্বাচকরা। সৌম্য সরকার জাতীয় দলের জার্সিতে সর্বশেষ কুড়ি ওভারের ম্যাচ খেলেছেন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে। সাব্বির রহমান তো আরও আগে, ২০১৯ সালে চট্টগ্রামে আফগানিস্তানের বিপক্ষে শেষবার খেলেন।

এই দুই ক্রিকেটারের অন্তর্ভুক্তি নিয়ে জালাল ইউনুস বলেছেন, এই ব্যাপারটা তো সিলেক্টরদের। তাদের মাথায় অনেক চিন্তা-ভাবনাই আছে। যেহেতু এখন চোট সমস্যা আছে, সাপোর্ট প্লেয়ারও লাগবে। সাপোর্ট প্লেয়ারে আপনি যাদের নাম বললেন (সাব্বির-সৌম্য), হয়তো তাদের নামও আছে। এই চিন্তাটা তারা করছে, আমরা একটা ব্যাকআপ রাখতে চাচ্ছি। সিলেক্টরাও চিন্তা-ভাবনা করছে, রেখেছে তাদের নাম। আর অধিনায়কের বিষয়টি দু-একদিনের মধ্যে জেনে যাবেন।

মূলত ইনজুরি কনসার্নের কারণেই এশিয়া কাপের দল দিতে এতটা বিলম্ব হচ্ছে। দলে যেন ইনজুরির কোনও সমস্যা না থাকে সেটি দেখছে বিসিবি, ‘এশিয়া কাপের দল ঘোষণার জন্য সময় নিয়েছি আমরা। ইনজুরি লিস্টটা অনেক লম্বা। সাইফউদ্দিন এখনও ইনজুরিতে, সে কাজ করছে। রাব্বিও ইনজুরড। মোস্তাফিজের ব্যথা আছে। এই কারণে আমরা একটা চূড়ান্ত লিস্ট দিতে চাচ্ছি, যেখানে ইনজুরি কনসার্ন থাকবে না। এরপর বিশ্বকাপ আছে। তাই আমরা চিন্তা করছি যে লিস্টটা দেবো, সেটা যেন আমরা এশিয়া কাপ থেকে কন্টিনিউ করতে পারি।’


বাংলাদেশ   ক্রিকেট  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

তুরস্কে ইমরানের গতির ঝড়

প্রকাশ: ০৮:৫৩ পিএম, ০৮ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail তুরস্কে ইমরানের গতির ঝড়

তুরস্কের কোনিয়ায় চলমান ইসলামী সলিডারিটি গেমসের ১০০ মিটার স্প্রিন্ট ইভেন্টের সেমিফাইনালে উঠেছেন বাংলাদেশের দ্রুততম মানব ইমরানুর রহমান।

কমনওয়েলথ গেমসে ইমরান ১০.৪৬ সেকেন্ড দৌড়েছিলেন। এক সপ্তাহের কম ব্যবধানে টাইমিং ০.৪৫ কমিয়ে এনেছেন। হিটে ইমরানুর ১০.০১ সেকেন্ড সময় নিয়ে সেমিফাইনালে নাম লিখিয়েছেন।

হিটে ৮ জনের মধ্যে দ্বিতীয় হয়েছেন ইমরানুর। আগামীকাল তুরস্ক সময় বিকেল ৪.৩০ মিনিটে ইমরান সেমিফাইনালে দৌড়াবেন।

অসাধারণ পারফরম্যান্স করেও বেশ নির্ভার ইমরান, ‘ভালো লাগছে বাংলাদেশকে পরবর্তী রাউন্ডে নিতে পেরে। আমার এই পারফরম্যান্সের জন্য বাংলাদেশ অলিম্পিক এসোসিয়েশন, ফেডারেশন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী সহ সকলকে ধন্যবাদ জানাই!’

এই বছরের শুরুতে ১০.৫০ সেকেন্ড টাইমিং করে জাতীয় রেকর্ড করে দ্রুততম মানব হয়েছিলেন। আমেরিকায় বিশ্ব অ্যাথলেটিকস চ্যাম্পিয়নশিপে দৌড়েছিলেন ১০.৪৭ সেকেন্ডে আর কমনওয়েলথে ১০.৪৬। আজ ১০.০১ সেকেন্ড দৌড়ে নিজের ক্যারিয়ারের সেই রেকর্ডও ভেঙে দিলেন।



মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

আমাদের তুলনায় জিম্বাবুয়ে ভালো দল: তামিম

প্রকাশ: ০৮:১৯ পিএম, ০৮ অগাস্ট, ২০২২


Thumbnail আমাদের তুলনায় জিম্বাবুয়ে ভালো দল: তামিম

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রথমবারের মত টি-টোয়েন্টি সিরিজ হেরে ওয়ানডেতে ঘুরে দাঁড়ানোর প্রত্যয় ছিল টাইগার শিবিরে। অথচ টানা দুই হারে এক ম্যাচ বাকি থাকতেই ওয়ানডে সিরিজ হাতছাড়া টাইগারদের। অধিনায়ক তামিম ইকবাল এর মতে, চলমান সিরিজে বাংলাদেশের চেয়ে জিম্বাবুয়ে ভালো দল বলেই তারা জিতেছে।

রোববার সিরিজ নির্ধারনী ম্যাচে হারের পর তামিম বলেন, “জিম্বাবুয়েকে কৃতিত্ব দিতে হবে। এ সিরিজে ওরা আমাদের চেয়ে ভালো দল। আমরা সেরা ক্রিকেট খেলতে পারেনি বলেই এ অবস্থায় পড়েছি।”

প্রথম ওয়ানডেতে জিতে বাংলাদেশের বিপক্ষে ৯ বছরের হারের খরা কাটিয়েছিল জিম্বাবুয়ে। বাংলাদেশ দেয়া ৩০৩ রানের সংগ্রহ গড়েও জয় নিশ্চিত করতে পারেনি। সিকানদার রাজার অসাধারণ সেঞ্চুরিতে সহজেই জিতে যায় স্বাগতিকরা। দ্বিতীয় ম্যাচ এ ঘুরে দাঁড়ানোর প্রত্যয় থাকলেও তবে সেটি আর হয়নি, ২৯০ রানের সংগ্রহ গড়ে সেই একই ব্যাটার সিকান্দার রাজার অনবদ্য সেঞ্চুরির কাছে হার মেনেছে বাংলাদেশ।

দুই ম্যাচে জিম্বাবুয়ের তিনজনের ব্যাট থেকে চারটি শত রানের ইনিংস এসেছে। বিপরীতে বাংলাদেশের ছয় ব্যাটার অর্ধশতকের কোটা পার করতে পারলেও শতকের ঘরে ছুঁতে পারেনি কেউ। এখানেই দুই দলের মধ্যে ঠিক এখানেই পার্থক্য দেখছেন অধিনায়ক তামিম ইকবাল।

তার মতে, “ওরা (জিম্বাবুয়ে) চারটি সেঞ্চুরি করেছে, আমরা একটাও করতে পারেনি। এটাই পার্থক্য। আমরা ভালো সংগ্রহ তুলেছিলাম। শুরুটা ভালো করেছিলাম। কিন্তু কেউ সেটা এগিয়ে নিতে পারিনি। উইকেট শুরু থেকেই ভালো ছিল। যদিও স্পিনের বিপক্ষে ব্যাট করা কিছুটা কঠিন ছিল।”

সিরিজের প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশের ৩০৪ রান ৫ উইকেট হাতে রেখে জিতেছে জিম্বাবুয়ে। ওই ম্যাচে ইনোসেন্ট কায়া এবং সিকান্দার রাজা সেঞ্চুরি করেছিলেন। দ্বিতীয় ম্যাচে ২৯১ রান তাড়া করে সিরিজ জয় নিশ্চিত করেছে স্বাগতিকরা।

এ ম্যাচে রাজার টানা সেঞ্চুরির সাথে অধিনায়ক চাকাভার তুলে নিয়েছেন ক্যারিয়ারের প্রথম ওয়ানডে সেঞ্চুরি। দুই ব্যাটারের সেঞ্চুরিতে ৫ উইকেটে জয় তুলে এক ম্যাচ বাকি থাকতেই সিরিজ নিশ্চিত করেছে জিম্বাবুয়ে।


বাংলাদেশ   ক্রিকেট  


মন্তব্য করুন


বিজ্ঞাপন