ইনসাইড ওয়েদার

দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা তেঁতুলিয়ায়

প্রকাশ: ০১:১২ পিএম, ২৫ নভেম্বর, ২০২২


Thumbnail

দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে তেঁতুলিয়ায় ১৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল টেকনাফে ৩০ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে কোনো বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়নি।

শুক্রবার (২৫ নভেম্বর) সকালে আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ হাফিজুর রহমান স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, আগামী ২৪ ঘণ্টা অস্থায়ীভাবে মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে। রাত ও দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকবে। শনিবার ভোরের দিকে দেশের কোথাও কোথাও হালকা কুয়াশা থাকার সম্ভাবনা রয়েছে। আগামী তিন দিনের আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, সারাদেশের আবহাওয়া উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন নেই।

সর্বনিম্ন তাপমাত্রা   তেঁতুলিয়া  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড ওয়েদার

৪ জেলায় বইছে শৈত্যপ্রবাহ

প্রকাশ: ০১:০৪ পিএম, ০২ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩


Thumbnail

তাপমাত্রা অনেকটাই কমে গিয়ে দেশের চার জেলায় ফের শুরু হয়েছে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ। রাতের তাপমাত্রা আরও কমে শীত বাড়তে পারে বলেও জানিয়েছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর।

সম্প্রতি তাপমাত্রা বেড়ে গিয়ে শীত প্রায় দূর হয়ে গিয়েছিল। এরমধ্যে শীত বাড়ার পূর্বাভাস দেয় আবহাওয়া বিভাগ। একদিনের ব্যবধানে দেশের সব অঞ্চলে তাপমাত্রা কমে গেছে। কোনো কোনো অঞ্চলে তাপমাত্রা কমে গেছে ৫ ডিগ্রি পর্যন্ত। তাই দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে শীতের তীব্রতা বেড়েছে। বইছে হিমেল হাওয়া। শীত অনুভূত হচ্ছে ঢাকাতেও।

একদিনের ব্যবধানে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা সাড়ে ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের বেশি কমে গেছে। বুধবার সকালে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৪ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছিল পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায়। আজ তা কমে হয়েছে ৮ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস, কুড়িগ্রামের রাজারহাটে। ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রায় ২১ ডিগ্রি সেলসিয়াস থেকে কমে হয়েছে ১৬ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আবহাওয়াবিদ মো. বজলুর রশিদ জানান, দক্ষিণ-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর এবং তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত নিম্নচাপটি পশ্চিম ও দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়ে বৃহস্পতিবার সকালে শ্রীলঙ্কা উপকূল অতিক্রম করেছে। এটি আরও পশ্চিম ও দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হতে পারে। এর বর্ধিতাংশ উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে।

নীলফামারী, পাবনা, দিনাজপুর ও কুঁড়িগ্রাম জেলার ওপর দিয়ে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে বলেও জানান তিনি।

বৃহস্পতিবার (২ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাস তুলে ধরে বজলুর রশিদ বলেন, অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে। শেষরাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের নদী অববাহিকার কোথাও কোথাও মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা এবং দেশের অন্যত্র হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে।

এ সময়ে সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য কমতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে বলেও জানান এ আবহাওয়াবিদ।

বুধবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩১ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছিল সীতাকুণ্ড ও কক্সবাজারে।



মন্তব্য করুন


ইনসাইড ওয়েদার

ফের বাড়তে পারে শীত

প্রকাশ: ০২:০৮ পিএম, ০১ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩


Thumbnail

শীতের দ্বিতীয় মাস মাঘের ১৮ তারিখ আজ বুধবার (১ ফেব্রুয়ারি)। কিছুদিন আগে সারাদেশেই শীতের তীব্রতা থাকলেও পরে তা ধীরে ধীরে কমতে থাকে। অনেকে লেপ-কাঁথা তুলে রাখতে শুরু করেন। বাদ দেন শীতের পোশাক পরাও। এ অবস্থায় ফের শীত বাড়ার পূর্বাভাস দিয়েছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে দিন ও রাতের তাপমাত্রা ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত কমে শীত বেড়ে যেতে পারে বলে জানিয়েছে সংস্থাটি।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২১ ডিগ্রি সেলসিয়াসে উঠেছে। মঙ্গলবারও ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৬ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। একদিনে ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের বেশি বেড়েছে। তবে বুধবার সকাল থেকে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের আকাশ মেঘলা রয়েছে।

এর আগে মঙ্গলবার দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১১ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছিল মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে। আজ দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৪ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায়। গতকাল তেঁতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৩ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আজকে শ্রীমঙ্গলের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা সাড়ে ৪ ডিগ্রি বেড়ে হয়েছে ১৫ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আবহাওয়াবিদ মো. ওমর ফারুক জানান, নিম্নচাপটি দক্ষিণ-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর এবং তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। এটি পশ্চিম ও দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হতে পারে। এর বর্ধিতাংশ বিস্তৃত রয়েছে উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত। উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ বিহার ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে।

বুধবার সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাস তুলে ধরে তিনি বলেন, আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে। শেষরাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারাদেশে হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে।

এসময় সারাদেশে রাত এবং দিনের তাপমাত্রা ১ থেকে ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস কমতে পারে বলে জানান ওমর ফারুক।

মঙ্গলবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩২ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছিল কক্সবাজারে। ঢাকায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২৯ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।



মন্তব্য করুন


ইনসাইড ওয়েদার

দূষিত শহরে আজ আবারও শীর্ষে ঢাকা

প্রকাশ: ০৯:৫০ এএম, ৩০ জানুয়ারী, ২০২৩


Thumbnail

বায়ুদূষণের কারণে দূষিত শহরের তালিকায় আজ সোমবারও প্রথম স্থানে আছে রাজধানী ঢাকা। সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে ঢাকার এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্স (একিউআই) স্কোর ২৬৩। একই সময়ে আজ অস্বাস্থ্যকর শহরের তালিকায় ঢাকার পরেই আছে পাকিস্তানের লাহোর (১৯০)।

সুইজারল্যান্ডভিত্তিক বায়ুর মান পর্যবেক্ষণকারী প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান আইকিউ এয়ার দূষিত বাতাসের শহরের এ তালিকা প্রকাশ করে। প্রতিদিনের বাতাসের মান নিয়ে তৈরি করা একিউআই স্কোর একটি নির্দিষ্ট শহরের বাতাস কতটুকু নির্মল বা দূষিত, সে সম্পর্কে মানুষকে তথ্য দেয় এবং তাদের কোনো ধরনের স্বাস্থ্যঝুঁকি তৈরি হতে পারে কি না, তা জানায়।

একিউআই স্কোরে সোমবার সকাল সাড়ে ৮টায় তৃতীয় স্থানে কাজাখস্তানের আস্তানা (১৮৯)। ১৮৮ স্কোর নিয়ে চতুর্থ স্থানে আছে ভিয়েতনামের হ্যানয়। চীনের উহান আছে পঞ্চম স্থানে, স্কোর ১৮১। এরপরই আছে ভারতের মুম্বাই (১৭০) ও নেপালের কাঠমান্ডু (১৬৫)।

একিউআই স্কোর শূন্য থেকে ৫০ ভালো হিসেবে বিবেচিত হয়। ৫১ থেকে ১০০ মাঝারি হিসেবে গণ্য করা হয়। আর সংবেদনশীল গোষ্ঠীর জন্য অস্বাস্থ্যকর হিসেবে বিবেচিত হয় ১০১ থেকে ১৫০ স্কোর। ১৫১ থেকে ২০০ পর্যন্ত অস্বাস্থ্যকর হিসেবে বিবেচিত হয়।

একইভাবে একিউআই স্কোর ২০১ থেকে ৩০০ হলে খুবই অস্বাস্থ্যকর বলে বিবেচনা করা হয়। আর ৩০১-এর বেশি হলে তা দুর্যোগপূর্ণ বলে বিবেচিত হয়। বায়ুদূষণ গুরুতর স্বাস্থ্যঝুঁকি তৈরি করে। এটা সব বয়সী মানুষের জন্য ক্ষতিকর। তবে শিশু, অসুস্থ ব্যক্তি, প্রবীণ ও অন্তঃসত্ত্বাদের জন্য বায়ুদূষণ খুবই ক্ষতিকর। 



মন্তব্য করুন


ইনসাইড ওয়েদার

আরও কিছুদিন অস্বাস্থ্যকর থাকবে ঢাকার বায়ু

প্রকাশ: ০১:০১ পিএম, ২৮ জানুয়ারী, ২০২৩


Thumbnail

বিশ্বের দূষিত শহরগুলোর মধ্যে গত কয়েকদিন ধরে শীর্ষে রয়েছে ঢাকা। কোনোভাবেই স্বাস্থ্যকর হচ্ছে না বাংলাদেশের রাজধানীর বায়ু অবস্থার। শনিবারও (২৮ জানুয়ারি) এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্সে (একিউআই) বেলা ১১টার দিকে দেখা গেছে, দূষিত শহরগুলোর মধ্যে ঢাকার অবস্থান তৃতীয়। স্কোর হচ্ছে ১৯৮, যা অস্বাস্থ্যকর। এর আগে টানা ছয়দিন দূষিত শহরের তালিকায় ঢাকাকে শীর্ষে দেখা গেছে।

এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্সের পূর্বাভাসেই বলা হয়েছে, আরও কিছু দিন অস্বাস্থ্যকর থাকবে ঢাকার বায়ু। রোববার (২৯ জানুয়ারি) ১৩০ স্কোর নিয়ে সংবেদনশীল গোষ্ঠীর জন্য অস্বাস্থ্যকর থাকবে বিশ্বের অন্যতম জনবহুল এই শহরটির বায়ু। সোমবার (৩০ জানুয়ারি) দূষণের স্কোর থাকতে পারে ১৩৭। তবে আগামী মঙ্গলবার এই স্কোর বেড়ে দাঁড়াতে পারে ১৪০।


গতকাল শুক্রবার (২৭ জানুয়ারি) একিউআই ইনডেক্সে ১৯৩ স্কোর নিয়ে ঢাকার বায়ু অস্বাস্থ্যকর ছিল। বৃহস্পতিবার (২৬ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ঢাকার এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্স (একিউআই) স্কোর ছিল ৩৭২, যা অত্যন্ত ঝুকিপূর্ণ। বুধবার (২৫ জানুয়ারি) সকাল ১০ টা ১৮ মিনিটে এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্সে ২৭৬ স্কোর নিয়ে শীর্ষে ছিল ঢাকা। এর আগের কয়েকদিনও একই পরিস্থিতি দেখা যায়।

সুইজারল্যান্ডভিত্তিক বায়ুমান পর্যবেক্ষণকারী প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান আইকিউ এয়ার দূষিত বাতাসপূর্ণ শহরগুলোর তালিকা প্রকাশ করে আসছে। প্রতিদিনের বাতাসের মান নিয়ে তৈরি করা একিউআই স্কোর একটি নির্দিষ্ট শহরের বাতাস কতটুকু নির্মল বা দূষিত, সে সম্পর্কে ধারণা দেয়।

বায়ু পরিমাপের এ সূচকে স্কোর ১০১-২০০ এর মধ্যে থাকলে অস্বাস্থ্যকর বলে বিবেচিত হয়। আর স্কোর শূন্য থেকে ৫০ এর মধ্যে থাকলে ভালো বলে ধরে হয়। ৫১-১০০ মোটামুটি, ১০১-১৫০ পর্যন্ত সতর্কতামূলক ও ২০১-৩০০ এর মধ্যে থাকলে খুবই অস্বাস্থ্যকর বলা হয়। আর ৩০১ এর বেশি স্কোরকে বলা হয় বিপজ্জনক।



মন্তব্য করুন


ইনসাইড ওয়েদার

লঘুচাপ সৃষ্টির আভাস

প্রকাশ: ১১:৩৯ এএম, ২৬ জানুয়ারী, ২০২৩


Thumbnail

আগামী তিনদিনের মধ্যে দক্ষিণপূর্ব বঙ্গোপসাগর তৎসংলগ্ন এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হওয়ার আভাস দিয়েছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর।

বৃহস্পতিবার (২৬ জানুয়ারি) বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ মো. শাহীনুল ইসলাম তথ্য জানান। 

আবহাওয়ার সিনপটিক অবস্থা তুলে ধরে তিনি জানান, আগামী তিনদিনের মধ্যে দক্ষিণপূর্ব বঙ্গোপসাগর তৎসংলগ্ন এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। বর্তমানে উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ বিহার তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে, এর বর্ধিতাংশ উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে।

তিনি জানান, শেষরাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে। আগামী ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য বৃদ্ধি পেতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। এছাড়া আগামী ২৪ ঘণ্টায় অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে।



মন্তব্য করুন


বিজ্ঞাপন