ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ , ৯ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

ন্যাটো আলোচনায় আফগানিস্তান সংকট

বিশ্বজুড়ে ডেস্ক 
প্রকাশিত: ১২ জুলাই ২০১৮ বৃহস্পতিবার, ০৩:১৮ পিএম
ন্যাটো আলোচনায় আফগানিস্তান সংকট

ন্যাটো সম্মেলনের দ্বিতীয় দিনে নেতারা আফগানিস্তানের সংঘাতের বিষয়টিকে বিশেষ গুরুত্ব আরোপ করেছেন। দীর্ঘ ১৭ বছর  ধরে চলা আফগান সংকট নিরসনের ব্যাপারে আলোচনায় আফগান প্রধানমন্ত্রী আশরাফ গনির উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে। 

আফগান পরিস্থিতির বিষয়ে সম্মেলন শুরুর আগে থেকেই ন্যাটোর মহাসচিব জিন্স স্টোলটেনবার্গ ও  শীর্ষ নেতারা আলোচনা করে আসছেন। আজ বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত সম্মেলনে ন্যাটোর মহাসচিব আশা প্রকাশ করছেন ২০২৪ সাল পর্যন্ত আফগানিস্তানের সামরিক বাহিনীকে অর্থায়নে শীর্ষ নেতারা সম্মতি জানাবেন।

ইতিমধ্যেই ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে আফগানিস্তানে আরও ৪৪০ জন সেনা সদস্য পাঠানোর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ন্যাটো সম্মেলনের প্রথম দিনই তিনি এ ঘোষণা দেন।

এর আগে গত বছরে সেপ্টেম্বর মাসে যুক্তরাষ্ট্র আরও ৩ হাজার সেনা পাঠানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, এর আগে মোতায়েন করা হয়েছিল প্রায় ১২ হাজার মার্কিন সেনা।

আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের সন্ত্রাসবিরোধী যুদ্ধ অভিযান শুরু ২০০১ সালের ৯/১১ হামলার পর থেকেই। আফগানিস্তানি তালেবানদের সরিয়ে মার্কিন সরকার সেখানে নতুন সরকার গঠন করে। তবে এতেও শেষ হয়নি দীর্ঘদিন ধরে চলা দুই দেশের মধ্যে দ্বন্দ্ব।

এদিকে গত বছর থেকেই ট্রাম্পের যুদ্ধবাদী নীতি দেখা যাচ্ছে। তাই আফগান সংকট নিরসনে যুক্তরাষ্ট্রের ভূমিকা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করছে আন্তর্জাতিক মহলগুলো।

সম্মেলনের প্রথম দিনে প্রতিরক্ষা খরচ বৃদ্ধিতে উত্তেজনাপূর্ণ বাক্য বিনিময় করেন শীর্ষ নেতারা। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে অভিযোগ পাল্টা অভিযোগ চলে ন্যাটো নেতাদের। গত বুধবার অনুষ্ঠিত সম্মেলনে ট্রাম্প সামরিক খাতে ৪% ব্যয় বৃদ্ধির প্রস্তাব দেন। এ বিষয়ে জার্মানির দ্বিমত থাকায় দেশটির তীব্র সমালোচনা করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

বাংলা ইনসাইডার/জেডআই/জেডএ