ঢাকা, বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ২৯ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

রাশিয়ার সঙ্গে পরমাণু চুক্তি বাতিল করছে যুক্তরাষ্ট্র

বিশ্বজুড়ে ডেস্ক
প্রকাশিত: ২১ অক্টোবর ২০১৮ রবিবার, ১০:০৫ এএম
রাশিয়ার সঙ্গে পরমাণু চুক্তি বাতিল করছে যুক্তরাষ্ট্র

রাশিয়ার সঙ্গে করা একটি পরমাণু চুক্তি বাতিল করতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটির প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নিজেই এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। বিবিসি এক প্রতিবেদনে একথা জানিয়েছে।

স্থানীয় সময় শনিবার বিকেলে ট্রাম্প সাংবাদিকদের বলেন, ‘ইন্টারমিডিয়েট রেঞ্জ নিউক্লিয়ার ফোর্স (আইএনএফ) চুক্তি লঙ্ঘন করেছে রাশিয়া।’ একারণেই এই চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।

আইএনএফ চুক্তি অনুযায়ী, স্থলভাগ থেকে উৎক্ষেপিত মধ্যপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র ও ৫০০ থেকে ৫ হাজার ৫০০ কিলোমিটার দূরত্বে আঘাত আনতে সক্ষম ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়। ট্রাম্পের দাবি, রাশিয়া চুক্তির এই শর্তটি লঙ্ঘন করেছে।

সাংবাদিকদের ট্রাম্প বলেন, ‘আমি বুঝতে পারছি না, বারাক ওবামা প্রেসিডেন্ট থাকাকালে তিনি কেন এটা বাতিল করেননি কিংবা কোন আলোচনা করেননি। রাশিয়া বহু আগে থেকেই এই চুক্তি লঙ্ঘন করে আসছে।’

ট্রাম্পের মন্তব্য প্রসঙ্গে রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একটি সূত্র জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্র নিজেদের একটি অভিলাষ পূরণ করার জন্য এ পদক্ষেপ নিয়েছে। দেশটি বিশ্বের একমাত্র সুপারপাওয়ার হিসেবে প্রতিষ্ঠা করতে চায়।

গত শুক্রবার নিউ ইয়র্ক টাইমসে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বলা হয়, চীনের সামরিক আগ্রাসন বন্ধ করতেই যুক্তরাষ্ট্র নিজেদের ওই চুক্তি থেকে বের করে আনার পরিকল্পনা করছে।

এর আগে, ২০১৪ সালে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা একবার রাশিয়ার বিরুদ্ধে আইএনএফ চুক্তি ভঙ্গের অভিযোগ এনেছিলেন। তিনি দাবি করেছিলেন, নোভাটের-৯এম৭২৯ নামে মধ্যপাল্লার একটি ক্ষেপণাস্ত্র প্রযুক্তি তৈরি করেছে রাশিয়া। এর মাধ্যমে খুব সহজেই ন্যাটোভুক্ত দেশগুলোর ওপর আক্রমণ চালাতে পারবে দেশটি। তবে রাশিয়া এই অস্ত্র নিয়ে সরাসরি কোন মন্তব্য না করলেও চুক্তি ভঙ্গের বিষয়টি প্রত্যাখ্যান করেছে তারা।

বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় রাশিয়ায় মধ্যপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র অনেক সস্তা বলে জানা যায়। স্নায়ুযুদ্ধের সময় সোভিয়েত ইউনিয়ন এসএস-২০ ব্যবস্থা গ্রহণ করার কারণে রাজনৈতিক অস্থিরতা ছড়িয়ে পড়ে। আইএনএফ চুক্তির মাধ্যমেই পরিস্থিতি শান্ত হয়।

বাংলা ইনসাইডার/এএইচসি