ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ জানুয়ারি ২০১৯, ৯ মাঘ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

অর্থনীতিতে শক্তিশালী দেশগুলো কে কোথায়?

বিশ্বজুড়ে ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮ জানুয়ারি ২০১৯ মঙ্গলবার, ০২:০২ পিএম
অর্থনীতিতে শক্তিশালী দেশগুলো কে কোথায়?

লন্ডনভিত্তিক গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর ইকোনমিকস অ্যান্ড বিজনেস রিসার্চ (সিইবিআর) সম্প্রতি ‘ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক লিগ টেবিল ২০১৯’ শীর্ষক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। তাদের প্রতিবেদনে বিশ্বের ১৯৩টি দেশের অর্থনৈতিক চিত্র উঠে এসেছে।

সিইবিআর’র প্রতিবেদন অনুযায়ী, বিশ্বের সর্ববৃহৎ অর্থনীতির দেশ যুক্তরাষ্ট্র। এর পরের তিনটি অবস্থানে আছে যথাক্রমে চীন, জাপান ও জার্মানি। ভারত আছে পাঁচে। সিইবিআর’র তালিকার সর্বশেষ অবস্থানে আছে অস্ট্রেলিয়ার পূর্ব উপকূলীয় ছোট্ট দ্বীপরাষ্ট্র টুভালু। 

পৃথিবীর বৃহৎ অর্থনীতির দেশের তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান এখন ৪১। গতবছর এই অবস্থান ছিল ৪৩তম স্থানে। বাংলাদেশের প্রতিবেশী মিয়ানমার আছে ৭২ এ। অন্যদিকে পাকিস্তান তিন ধাপ পিছিয়ে চলে গেছে ৪৪তম স্থানে।

বিশ্বের প্রায় সব দেশেই সিইবিআর’র ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক লিগ টেবিল শীর্ষক প্রতিবেদনটির গ্রহণযোগ্যতা রয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি তাদের প্রতিবেদনে শুধু নির্দিষ্ট একটি বছরের অর্থনৈতিক চিত্রই তুলে ধরে না, বরং পরবর্তী ১৫ বছরে একটি দেশের অর্থনীতি কেমন হতে পারে সেটাও এই প্রতিবেদন থেকে জানা যায়। কিন্তু কীসের ভিত্তিতে ‘ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক লিগ টেবিল’ তৈরি করে সিইবিআর?

প্রতিষ্ঠানটির ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, ২০০৩ সাল থেকে একটি দেশের জিডিপি (মোট দেশজ উৎপাদন), পিপিপি (ক্রয় ক্ষমতার সামঞ্জস্যতা), অভ্যন্তরীণ ভোগ চাহিদা, সরকারি ব্যয়, প্রবাসী আয়, রপ্তানি তথা সামগ্রিক অর্থনৈতিক অবস্থা পর্যালোচনা করে ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক লিগ টেবিল তৈরি করা হয়।

সিইবিআর এবার দশমবারের মতো এই প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০৩৩ সাল নাগাদ বিশ্বের সর্ববৃহৎ অর্থনীতির দেশের তকমা হারাবে যুক্তরাষ্ট্র। তালিকার এক নম্বরে উঠে আসবে বিশ্বের নতুন পরাশক্তি চীন। দ্বিতীয় স্থানে থাকবে যুক্তরাষ্ট্র। জাপানকে কে চারে ঠেলে দিয়ে তৃতীয় স্থানে উঠে আসবে ভারত। আর জার্মানি নেমে যাবে পাঁচে। যুক্তরাষ্ট্রের অন্যতম প্রতিপক্ষ রাশিয়া এবারের তালিকায় ১২ নম্বরে রয়েছে। ২০৩৩ সাল নাগাদ দেশটি আরও পিছিয়ে ১৬ নম্বরে নেমে যাবে বলে পূর্বাভাস দিচ্ছে সিইবিআর।

এ বছরের ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক লিগ টেবিলে এশিয়ার বিস্ময় মালয়েশিয়া এবং সিঙ্গাপুর আছে যথাক্রমে ৩৫ ও ৩৬-এ। ২০৩৩ সালে মালয়েশিয়া দশ ধাপ এগুলেও সিঙ্গাপুর ১৪ ধাপ পিছিয়ে ৪০ এ চলে যাবে বলে মনে করছে সিইবিআর। একই সময়ে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি হবে বাংলাদেশের অর্থনীতিতে। আগামী ১৫ বছরে ১৫ ধাপ উন্নতি হবে বাংলাদেশের। অবস্থান করবে বর্তমানে বেলজিয়ামের স্থান ২৪-এ। আর বেলিজিয়াম পিছিয়ে চলে যাবে ৩৭তম স্থানে। 

বাংলা ইনসাইডার/এএইচসি/এমআর