ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ মার্চ ২০১৯, ৬ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

কীভাবে আইএমএফ’র শীর্ষে পৌঁছুলেন কৃষকের মেয়ে গীতা?

বিশ্বজুড়ে ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১ জানুয়ারি ২০১৯ শুক্রবার, ১২:৫৯ পিএম
কীভাবে আইএমএফ’র শীর্ষে পৌঁছুলেন কৃষকের মেয়ে গীতা?

গ্রামের সাধারণ একজন কৃষকের মেয়ের পক্ষে কতটা উচ্চপদে আসীন হওয়া সম্ভব? সিনেমা-নাটকে হলে এর কোনো সীমা পরিসীমা নেই। কিন্তু বাস্তবে এর উল্টোটাই দেখতে পাই আমরা। প্রত্যন্ত একটি গ্রামের মেয়ের জন্য প্রাথমিক শিক্ষার গণ্ডি পেরোনোটাই দুঃসাধ্য এক কাজ হয়ে দাঁড়ায়। একের পর এক প্রতিবন্ধকতা তার স্বপ্ন পূরণের ইচ্ছাটাকে দমিয়ে রাখতে বাধ্য করে। কিন্তু ভারতের ছোট্ট এক গ্রামের মেয়ে গীতা গোপীনাথের ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা নয়, বরং স্বপ্নেরই জয় হয়েছে। 

সম্প্রতি আন্তর্জাতিক মূদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) প্রধান অর্থনৈতিক উপদেষ্টার পদে বসেছেন গীতা গোপীনাথ। প্রথম নারী এবং সর্বকনিষ্ঠ অর্থনীতিবিদ হিসেবে এই পদে বসলেন ৪৭ বছর বয়সী গীতা। তার বাবা টি ভি গোপীনাথ ছিলেন একজন কৃষক। আর মা গৃহিণী। ১৯৭১ সালে কলকাতায় জন্ম হয় গীতার। আর পাঁচটা খেটে খাওয়া পরিবারের মেয়ের মতোই শৈশবটা কাটছিল তার। জীবিকার তাগিদে একসময় গীতার মা বাবা কর্নাটক রাজ্যের মহীশূরে পাড়ি জমান। সেখানেই বেড়ে ওঠেন ছোট্ট গীতা। স্কুল কলেজের পাঠ চুকিয়ে দিল্লির লেডি শ্রীরাম কলেজ থেকে অর্থনীতিতে স্নাতক হন তিনি। দিল্লি স্কুল অব ইকোনমিকস থেকে স্নাতকোত্তর শেষ করেন।

স্নাতোকোত্তর শেষ করেই থেমে থাকেননি গীতা, বরং এখান থেকেই তার সাধারণ থেকে অসাধারণ হয়ে ওঠার গল্পের শুরু। ২০০১ সালে যুক্তরাষ্ট্রের প্রিন্সটন ইউনিভার্সিটি থেকে অর্থনীতিতে পিএইচডি করেন। এরপরে শিকাগো বিশ্ববিদ্যালয়ে অর্থনীতি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক হিসেবে কাজে যোগ দেন। ২০১০ এ হার্ভার্ডের অর্থনীতি বিভাগের স্থায়ী অধ্যাপক পদে নিযুক্ত হন তিনি।

বিশ্বের প্রথম সারির বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষকতাই নয়, জি-২০’র অর্থ মন্ত্রণালয়ের পরামর্শক কমিটির সদস্য হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন গীতা। এছাড়া ২০১৬ সালে পিনারাই বিজয়নের কেরল সরকারের অর্থনৈতিক উপদেষ্টা হিসেবেও কাজ করার অভিজ্ঞতা আছে তার। এর আগে ২০১৪ সালে বিশ্বের ৪৫ বছরের কম বয়সী ২৫ জন প্রথম সারির অর্থনীতিবিদ হিসেবে আইএমএফের স্বীকৃতি পান গীতা।

দৃঢ়চেতা এই নারী ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকেও ছেড়ে কথা বলেননি। মোদির নোট বাতিল নীতির তীব্র সমালোচনা করেছিলেন তিনি। গীতা ভারতীয় বংশোদ্ভূত প্রথম নারী যিনি আইএমএফ-এর শীর্ষ পদে বসলেন। তার নিয়োগ প্রসঙ্গে আইএমএফের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ক্রিস্টিনা লাগার্দ বলেন, ‘গীতার মতো একজন অভিজ্ঞ ব্যক্তিকে পেয়ে আমরা আনন্দিত। গীতা গোপীনাথ আন্তর্জাতিক অভিজ্ঞতাসম্পন্ন অসামান্য অর্থনীতিবিদ। তার বিস্তর অভিজ্ঞতা ও আকর্ষণীয় নেতৃত্ব গুণ আইএমএফকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাবে।’

ব্যক্তিগত জীবনে গীতা বিবাহিতা। তার স্বামী ইকবাল সিং ঢালিওয়াল ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অব টেকনলোজির অর্থনীতি বিভাগের নির্বাহী পরিচালক।

বাংলা ইনসাইডার/এএইচসি/এমআর