ঢাকা, সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

নেপালে ফের ভোটের ঘোষণা

বিশ্বজুড়ে ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৩ মে ২০২১ রবিবার, ০৮:৪৫ পিএম
নেপালে ফের ভোটের ঘোষণা

হিমালয় কন্যা নেপাল। প্রতি বছর লক্ষ লক্ষ মানুষ নেপাল ভ্রমণ করে শুধু নেপাল এর সৌন্দর্য উপভোগ করার জন্য সেখানে নেপাল বাসী রাই যেন শান্তির জন্য হাঁসফাঁস করছে। একে তো করোনার ধাক্কায় নেপাল এর অবস্থা করুণ এর মাঝে নতুন করে যোগ হয়েছে রাজনৈতিক বিশৃঙ্খলতা। 

প্রধানমন্ত্রী কে পি শর্মা ওলির পরামর্শ মেনে শনিবার নেপালে সংসদ ভেঙে দেন প্রেসিডেন্ট বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারী। নভেম্বরে অন্তর্বর্তী নির্বাচন হবে বলে ঘোষণা করেছেন তিনি।

তবে বিরোধী দলগুলি এই ‘অগণতান্ত্রিক, অসাংবিধানিক’ সিদ্ধান্তের সর্বতোভাবে বিরোধিতা করবে বলে জানিয়েছে।

নেপালে ২৭৫ সদস্যের হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভসে চার সদস্যের বহিষ্কারের পরে এখন অন্তত ১৩৬ জনের সমর্থন থাকলে তবেই সরকার গড়া যায়। বর্তমানে নেপালের কমিউনিস্ট পার্টির নেতা ওলি বা বিরোধী নেতা শের বাহাদুর দেউবা কেউই এই মুহূর্তে সেই সমর্থন জোটানোর জায়গায় নেই বলে মনে করেছেন প্রেসিডেন্ট। গত সপ্তাহের শুরুতে একবার আস্থা ভোটে পরাজিত হয়েও ওলি পরে সমর্থক সংখ্যা বাড়িয়ে প্রধানমন্ত্রী পদে শপথ নিয়েছিলেন। কিন্তু সঙ্কট কাটেনি।

বৃহস্পতিবার ওলি জানিয়ে দেন, নতুন করে আর কোনও আস্থা ভোটে যেতে চান না। শুক্রবার ওলি এবং দেউবা, দু’জনেই আলাদা ভাবে সরকার গড়ার দাবি জানিয়ে আসেন। কিন্তু দু’জনেরই সমর্থক সংখ্যার তালিকা নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। কিছু সদস্যের নাম দু’জনের তালিকাতেই রয়েছে বলে খবরে প্রকাশ। তার পরই কাল মধ্যরাতে মন্ত্রীসভার জরুরি বৈঠকের পরে ওলি প্রেসিডেন্টকে সংসদ ভেঙে দেওয়ার পরামর্শ দেন। নভেম্বরের ১২ এবং ১৯ তারিখে ভোট গ্রহণের কথাও বলেন। ভাণ্ডারী সেই সিদ্ধান্তেই সিলমোহর দিয়েছেন। গত ডিসেম্বরেও তিনি ওলির পরামর্শে সংসদ ভেঙে দিয়েছিলেন। যদিও ফেব্রুয়ারিতে সুপ্রিম কোর্টের রায়ে তা পুনর্গঠিত হয়।

নতুন করে নির্বাচনের ঘোষণায় ক্ষুব্ধ বিরোধী দলগুলি ফের এক বার সুপ্রিম কোর্টে যাওয়ার কথাই ভাবছে।

বিষয়: নেপাল