ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২১, ১৩ কার্তিক ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

কিলঘুষি খেয়েছেন বারাদার, কাবুলে গোলাগুলি

বিশ্বজুড়ে ডেস্ক
প্রকাশিত: ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১ মঙ্গলবার, ০৪:২৪ পিএম
কিলঘুষি খেয়েছেন বারাদার, কাবুলে গোলাগুলি

কাবুলের প্রেসিডেন্ট প্রাসাদে নাটকীয় গোলাগুলির ঘটনার পর তালেবানের নেতা মোল্লা আব্দুল গনি বারাদার আড়ালে চলে গিয়েছেন। বারাদারকে আফগানিস্তানের তালেবান সরকারে যাকে যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্ররা মধ্যপন্থী হবে বলে আশা করেছিল।

আফগান সশস্ত্র এই গোষ্ঠীর সবচেয়ে পরিচিত মুখ মোল্লা আব্দুল গনি বারাদার, যিনি যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে শান্তি আলোচনায় নেতৃত্ব দিয়েছিলেন; চলতি মাসের শুরুর দিকে কাবুলের প্রেসিডেন্ট প্রাসাদে মন্ত্রিসভা গঠনের বিষয়ে আলোচনায় যুক্তরাষ্ট্রের কালো তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী গোষ্ঠী হাক্কানি নেটওয়ার্কের একজন নেতার আক্রমণের শিকার হন তিনি। পরিচয় প্রকাশ না করার শর্তে এসব তথ্য জানিয়েছেন সেদিনের আলোচনায় অংশ নেওয়া তালেবানের কয়েকজন নেতা।

তারা বলেছেন, আলোচনায় মোল্লা বারাদার অন্তর্ভুক্তিমূলক মন্ত্রিসভা গঠনের প্রস্তাব দিয়েছিলেন; যে মন্ত্রিসভায় অ-তালেবান নেতা, জাতিগত সংখ্যালঘু গোষ্ঠীর অন্তর্ভুক্তি চেয়েছিলেন তিনি। বলেছিলেন, এ ধরনের মন্ত্রিসভা গঠন করা হলে পুরো বিশ্বের কাছে তা বেশি গ্রহণযোগ্য হবে। বৈঠকের এক পর্যায়ে চরমপন্থী গোষ্ঠী হাক্কানি নেটওয়ার্কের নেতা খলিল উল রহমান হাক্কানি তার চেয়ার থেকে উঠে দাঁড়ান এবং মোল্লা আব্দুল গনি বারাদারকে কিল-ঘুষি মারতে শুরু করেন।

এই ঘটনার পর অক্ষত অবস্থায় রাজধানী কাবুল ছেড়ে কান্দাহারে তালেবানের ঘাঁটিতে তাদের সর্বোচ্চ ও আধ্যাত্মিক নেতা হাইবাতুল্লাহ আখুন্দজাদার কাছে চলে যান বারাদার।