ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি ২০২১, ৬ মাঘ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

‘দলের উর্ধ্বে গিয়ে জাতির বিবেক সাজার সুযোগ নেই’

জুয়েল খান
প্রকাশিত: ০৯ জানুয়ারি ২০২১ শনিবার, ০৪:০০ পিএম
‘দলের উর্ধ্বে গিয়ে জাতির বিবেক সাজার সুযোগ নেই’

আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম বলেছেন, আওয়ামী লীগ কিংবা এর সহযোগী সংগঠনের সাথে যারা যুক্ত আছেন কিংবা তাদের পরিবারের কারও যদি কোনো অভিযোগ থাকে সেটা দলীয় ফোরামে আলোচনা করার সুযোগ আছে কিন্তু রাস্তায় মাইক লাগিয়ে বলার কিছু নেই। দলের উর্ধ্বে থেকে জাতির বিবেক সাজার সুযোগ নেই। দলীয় বিবেক, দলের ভেতরেই রাখতে হবে। 

দলের উর্ধে গিয়ে নিজেকে তুলের ধরার প্রবণতা এবং আওয়ামী লীগের দলীয় শৃঙ্খলার বিভিন্ন দিক নিয়ে কথা বলেছেন তিনি। পাঠকদের জন্য বাহাউদ্দিন নাসিমের সাক্ষাৎকার নিয়েছেন বাংলা ইনসাইডারের নিজস্ব প্রতিবেদক জুয়েল খান।

বাহাউদ্দিন নাসিম বলেন, আওয়ামী লীগ বিবেকবান মানুষদের মূল্যায়ণ করে। কিন্তু দলের অনেকে আছেন যারা কিছু বিষয়কে এমনভাবে মানুষের সামনে নিয়ে আসার চেষ্টা করেন যেন তিনি ছাড়া আর কেউ ভালো মানুষ নয়। কারও বিরুদ্ধে অভিযোগ কিংবা আলোচনা করার সুযোগ আছে সেটা আওয়ামী লীগের দলীয় বিশেষ সৌন্দর্য। কিন্তু অনেকে নিজেকে সবচেয়ে ভালো দেখানোর জন্য দলীয় ফোরামে বলার কথা পাবলিকলি বলে। কিন্তু আওয়ামী লীগের সকল নেতাকর্মীরা দলীয় শৃঙ্খলায় আবদ্ধ।

তিনি বলেন, রাজনীতিবিদদের সকলেরই একটি সীমা-পরিসীমা আছে। সেই সীমার ভেতর দিয়েই আমাদের চলা, কথা বলা এবং বক্তব্যের জায়গাগুলোতে পেরিফেরির মধ্যে থেকেই করতে হবে। নিজেকে বিশেষভাবে প্রকাশ করার কোনো সুযোগ নেই। দলীয় নিয়মের বাইরে কেউ নয়। যদি কেউ দলীয় শৃঙ্খলার বাইরে গিয়ে নিজেকে আলাদাভাবে তুলে ধরার চেষ্টা করে তাহলে দলীয় গঠনতন্ত্র অনুযায়ি ব্যবস্থা নেয়া হবে। সেখানে কারও পরিচয় বিবেচ্য বিষয় নয়।   

আওয়ামী লীগ দলীয় শৃঙ্খলা বাজায় রাখতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হচ্ছে জানিয়ে তিনি বলেন, এবারের স্থানীয় সরকার নির্বাচনে দলীয় শৃঙ্খলার নীতি কঠোরভাবে মানা হচ্ছে। অতীতে যারা আওয়ামী লীগের প্রার্থীর বিরুদ্ধে বিদ্রোহী হয়ে নির্বাচন করেছিলেন এবার তাদেরকে মনোনয়ন দেয়া হয়নি। আওয়ামী লীগ অনেক বড় দল কাজেই দলীয় শৃঙ্খলা বাজায় রাখতে কঠোর অবস্থানে যাবার সিদ্ধান্ত রয়েছে। আর এই শক্ত পদক্ষেপের মধ্য দিয়ে আগামীতে আওয়ামী লীগ কীভাবে চলবে তার একটা নিদর্শন সৃষ্টি হচ্ছে। 

বাহাউদ্দিন নাসিম বলেন, দলীয় শৃঙ্খলা বজায় রাখতে কমিটি গঠন এবং মনোনয়ন দেয়ার ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ স্বচ্ছতা রাখা হচ্ছে। এক্ষেত্রে দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় নেতারা সার্বক্ষণিক মনিটরিং করছেন। এর মাধ্যমে তৃণমূলে প্রভাব বলয় মুক্ত করে যোগ্য নেতাদের যোগ্য জায়গায় দায়িত্ব দেয়ার চেষ্টা চলছে।