ঢাকা, বুধবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৮, ১ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

মাটিতে আসন পেতে খেলে

লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৬ মে ২০১৮ বুধবার, ০৫:৩৬ পিএম
মাটিতে আসন পেতে খেলে

খুব সাধ করে আয়েশ করে খাওয়াদাওয়ার জন্য বেশ খরচ করে ডাইনিং টেবিল কিনেছেন। পরিবারের সবার সঙ্গে মিলেমিশে খাবেন গল্প আর আড্ডায়। অনেকের কাছে ডাইনিং টেবিলে খাওয়াটা অন্যরকম একটা আভিজাত্যও বলা যায়। কিন্তু হয়তো জানেন না যে ডাইনিং টেবিল নয়, নিচে আসন পেতে খেলে তুলনামূলক বেশি উপকার পাওয়া যায়। না জানলে জেনে নিন আজই:

হার্ট কর্মক্ষম হয়

হাঁটু মুড়ে বসে থাকলে শরীরের উপরিঅংশে রক্তের প্রবাহ বেড়ে যায়। ফলে হার্টে কর্মক্ষমতা বাড়তে শুরু করে। হার্টে কোনোরকম জড়তা বা প্রতিবন্ধকতা থাকেনা। সেই সঙ্গে হার্টের বিভিন্ন অসুখ-বিসুখের প্রবণতা কমে যেতে থাকে।

শরীরে রক্ত চলাচলে কোনো বাধা থাকেনা

শরীরকে সুস্থ রাখতে প্রতিটি অঙ্গে অক্সিজেন সমৃদ্ধ রক্ত পৌঁছে যাওয়াটা খুবই জরুরি। এতে করে শরীরে রোগের প্রকোপ কমে। সেই সঙ্গে শরীরও চাঙ্গা হয়ে ওঠে। তাই হাঁটু মুড়ে বসে খেলে সারা শরীরে বিশুদ্ধ অক্সিজেন সমৃদ্ধ রক্তের চলাচল বেড়ে যায়।

মানসিক চাপ কমে

একটু বেশি সময় পা এবং শরীরকে সঠিক নিয়মে রেখে নিচে বসে কাজ করলে শরীর আর মস্তিস্কে রক্ত ভালোভাবে প্রবাহিত হতে পারে। মস্তিস্কে রক্ত প্রবাহিত হলে মাথাটা হালকা লাগে, কোনো ব্যথা-বেদনা বা চাপ কম অনুভব করা যায়, শরীরের স্ট্রেস হরমোনের ক্ষরণ কমে যায়। ফলে মানসিক অবসাদও কমে যায়।

মাটিতে বসে খাওয়া মানেই বিভিন্ন আসন

মাটিতে বলে খাওয়ার সময় আমরা নিজেদের অজান্তেই একাধিক আসন, যেমন- সুখাসন, সোয়াস্তিকাসন অথবা সিদ্ধাসন করে ফেলি। ফলে মাটিতে বসে খাওয়ার সময় পেট ভরার পাশাপাশি শরীর ও মস্তিষ্ক ভিতর থেকে চাঙ্গা হয়ে যায়।

শরীর বেশ শক্তপোক্ত হয়

মাটিতে বসে খাওয়ার অভ্যাস করলে থাই, গোড়ালি এবং হাঁটুর কর্মক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। সেই সঙ্গে শিরদাঁড়া, পেশি, কাঁধ এবং বুকের নমনীয়তাও বাড়ে। এর ফলে শরীর সচল হয়, শরীরে রোগশোকও কম হয়।

হজম ক্ষমতা বাড়ে

নিচে বসে আসন গেড়ে খেলে হজম ক্ষমতা বাড়তে থাকে। যাদের বদ হজম বা অ্যাসিডিটির সমস্যা রয়েছে তাদের টেবিল চেয়ারে বসে খাওয়া উচিত নয়। এতে করে শরীর একটা অবস্থাতেই থাকে। কিন্তু আসন পেতে খেলে কখনো সোজা হয়ে বা সামনের দিকে ঝুকে খাই। ফলে হজম সহায়ক ’ডায়জেস্টিভ জ্যুস’ এর ক্ষরণ বেড়ে যায়। ফলে হজম প্রক্রিয়া ভালোভাবে চলে।

আয়ু বৃদ্ধি পায়

আয়ু বৃদ্ধি পাক সেটা কে না চায়। সে কারণে আজ থেকেই মাটিতে বসে খাওয়া শুরু করুন। এতে শরীরের সচলতা বৃদ্ধি পায়। সেই সঙ্গে শরীরের কোনো ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কাও কমে যায়। প্রসঙ্গত যারা কোনো সাপোর্ট ছাড়া মাটিতে বসে থাকতে থাকতে সোজা হয়ে দাঁড়িয়ে পরতে পারেন, তাদের শরীরে নমনীয়তা বেড়ে যাওয়ার পাশপাশি অন্য অঙ্গের কর্মক্ষমতা বাড়ে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই আয়ু বৃদ্ধি পায়।

শরীরের বিভিন্ন ব্যথা কমে

গবেষণায় দেখা গেছে, মাটিতে বসে খাওয়ার সময় আমরা মূলত পদ্মাসনে বসি। এভাবে বসলে পিঠ, পেলভিস এবং তলপেটের পেশীর কর্মক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। ফলে শরীরের কর্মক্ষমতা বৃদ্ধি পায়, বিভিন্ন ধরনের ব্যথাবেদনা চলে যেতে থাকে।

ওজন কমে যায়

মাটিতে বসে খাওয়ার সময় আমাদের ভেগাস নার্ভের কর্মক্ষমতা বাড়ে। ফলে খাওয়ার পরে পেট ভরে গেলে সহজেই মস্তিস্কের কাছে সে কথা পৌঁছে। তাতে অতিরিক্ত খাওয়ার ইচ্ছা আর থাকেনা। ফলে অতিরিক্ত ওজনের আর ভয়ও থাকেনা। তাই মাটিতে বসে খাওয়া অবশ্যই জরুরি।

সূত্র: বোল্ডস্কাই

বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ