ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৮, ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

কীভাবে চিনবেন মধু খাঁটি না ভেজাল

লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০ জুলাই ২০১৮ মঙ্গলবার, ০৫:২২ পিএম
কীভাবে চিনবেন মধু খাঁটি না ভেজাল

ভেষজ এবং ঔষধিগুণ সম্পন্ন যে কয়টি উপাদান আমাদের কাছে সুপরিচিত, মধু তার মধ্যে অন্যতম। আমরা মধু খাই, রূপচর্চা করি কিন্তু আসল বা নকল মধু চিনি না। কিন্তু খুব সহজেই একটু জানা থাকলেই মধুর পার্থক্য চেনা যায়। জেনে নিই পার্থক্যগুলো:  

১. খাটি মধুতে কখনো কটু বা বাজে কোনো গন্ধ থাকবে না। খেয়াল করলেই দেখবেন খাঁটি মধুর গন্ধ মিষ্টি ও আকর্ষণীয় হয়।

২. আর মধুর স্বাদ অবশ্যই মিষ্টি হবে। কোনো ঝাঁঝালো, তিক্ত বা পানসে ভাব থাকলে সেটা আসল মধু হবে না।

৩. আমরা দেখি যে মধু বেশ কিছুদিন রেখে দিলে কেমন যেন চিনি জমতে থাকে। এটা যদি পুরো পাত্রসহ গরম পানিতে কিছুক্ষণ রেখে দিন। দেখবেন চিনি গলে মধু আবার স্বাভাবিক হয়ে যাবে। তবে এটা নকল মধুর ক্ষেত্রে হবে না।

৪. এবারে হাতে কলমে মধু পরীক্ষা করে দেখুন। একটা পাত্রে কিছু পানি নিয়ে তাতে এক চামচ মধু দিন। যদি দেখেন যে মধু পানির মিশে গেছে তাহলে সেটা আসল না। কারণ আসল মধুর ঘনত্ব পানির চেয়ে বেশি বলে তা সহজে পানির সঙ্গে মেশে না।

৫. এবার আরেকটি পরীক্ষা। একটি মোমবাতি নিয়ে তার সলতেটিতে মধু লাগান ভালোভাবে। এবার আগুন ধরিয়ে দেখুন ধরে কি না। জ্বলে ওঠলে বুঝবেন সেটি খাঁটি মধু। আর যদি না জ্বলে তাহলে বুঝে নেবেন তাতে পানি বা ভেজাল মেশানো আছে।

৬. ভালো পরীক্ষার জন্য এক টুকরো সাদা কাপড়ে মধু মাখান। এভাবে আধাঘণ্টা রেখে দিন। তারপর সেটা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। দাগ যদি না যায় তাহলে বুঝবেন সেটি নকল।

৭.  ঠাণ্ডায় যদি মধু দানা না বেধে যায় তাহলে বুঝবেন সেটি খাঁটি মধু না। কারণ বেশ ঠাণ্ডায় খাঁটি মধু জমাট বেঁধে যায়।

৮. পিপড়া ভালো মধু চিনতে পারে। আপনার মধুতে যদি পিপড়া না আসে তাহলে বুঝবেন সেটি আসল মধু। আর যে মধুতে পিপড়া আসে সেটি অবশ্যই ভেজাল।

বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ/জেডএ