ঢাকা, বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

পেঁয়াজের ঝাঁঝালো গুণ

লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০ আগস্ট ২০১৮ শুক্রবার, ০৩:১৬ পিএম
পেঁয়াজের ঝাঁঝালো গুণ

পেঁয়াজ কাঁটতে গিয়ে কান্নাকাটি করেন নি, এমন লোক খুব কমই আছে। এই পেঁয়াজের ঝাঁঝ যে শুধু চোখই জ্বালা করায় তা নয়, এই পেয়াজের রয়েছে ঝাঁঝালো অনেকগুলো গুণ। শরীরের বিভিন্ন সমস্যায় পেঁয়াজ বিভিন্ন কাজে আসে আমাদের।

রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে থাকে

বর্তমান মহামারী রোগ ডায়বেটিসকে দূরে রাখতে পেঁয়াজ বেশ উপকারী। পেঁয়াজে রয়েছে সালফার এবং কুয়েরসেটিন নামক উপাদান। এগুলো রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে। তাই যাদের ডায়বেটিস রয়েছে, তারা নিয়মিত কাঁচা পেঁয়াজ খেতে পারেন।

হৃদপিণ্ড সুস্থ রাখে

গবেষণায় প্রমাণিত যে পেঁয়াজে থাকা ফ্ল্যাভোনয়েড শরীরে প্রবেশ করলে হৃদপিণ্ডের ক্ষমতা বেড়ে যায়। ফলে কোনো ধরনের কার্ডিওভাসকুলার ডিজিজে আক্রান্তের আশঙ্কা কমে যায়। ফলে হঠাৎ করে হার্ট অ্যাটাকের ভয়ও থাকে না। বর্তমান প্রজন্মের মানুষের মধ্যে হার্টের অসুখ, হার্ট অ্যাটাকের পরিমাণ দিন দিন বেড়ে যাচ্ছে। তাই নিজেকে ভালো রাখতে নিয়মিত পেঁয়াজ খান।

শরীরের আঁচিল দূর হয়

শুনতে অবাক লাগবে যে পেঁয়াজ দিয়ে কীভাবে আঁচিল দূর হবে। কিন্তু এটা সম্ভব। গবেষণাতেই দেখা গেছে আঁচিলের সমস্যা কমাতে পেঁয়াজ দারুণ কাজে আসে। এজন্য প্রতিদিন রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে গোল করে পেঁয়াজ কেটে আঁচিলের উপর রেখে দিন। তারপর তাতে একটা কাপড় বেঁধে দিন। নিয়মিত কিছুদিন এমনটা করলে আঁচিল খসে পড়তে পারে।

পুড়ে গেলে ক্ষত সারায়

রান্না করা বা অন্য যেকোনো কাজ করতে গিয়ে হাত-পা বা শরীরের কোনো অংশ পুড়ে যেতে পারে। হঠাৎ পুড়ে গেলে করণীয় কি সেটাই বুঝে উঠি না আমরা। তখন পেঁয়াজ হতে পারে ভালো কোনো চিকিৎসা। এমন পরিস্থিতিতে ক্ষতস্থানে এক টুকরো পিঁয়াজ কিছু সময়ের জন্য রেখে দিন। এতে দেখবেন অল্প সময়েই জ্বালাভাব কমে যাবে। সঙ্গে ক্ষতও সেরে যেতে পারে।

সাইনাসের প্রকোপ কমায়

অনেকেই ভাবেন যে, সাইনাসের সমস্যা থাকলে পেঁয়াজ খাওয়া ঠিক না। এটা ভুল ধারণা। সাইনাসের প্রকোপ কমাতে চাইলে আজ থেকেই প্রতিদিন কাঁচা পিঁয়াজ খাওয়া শুরু করুন। এতে করে সমস্যা কমে যাবে। আবার অন্য উপায়ও আছে। চা বানানোর সময় তাতে অল্প করে আদা এবং পেঁয়াজ ফেলে পানি  ফুটিয়ে নিন। পরে সেই চা পান করুন। এতে সাইনাসের প্রকোপ কমবে।

ক্যানসারকেও প্রতিহত করতে পারে

গবেষণায় প্রমাণিত, প্রতিদিন কাঁচা পেঁয়াজ খেলে শরীরে কিছু পরিবর্তন শুরু হয়। তার ফলে ক্যানসারের সেল জন্মানোর আশঙ্কা একেবারে কমে যায়। ফলে ক্যানসারের ভয় কমে যাবে। বিশেষত, ব্রেস্ট এবং কোলন ক্যানসারের আশঙ্কা একেবারেই কমে যায়। তাই ভুলবেন না পেঁয়াজ খেতে।

সর্দি-কাশির প্রকোপ কমে

সর্দি-কাশি থেকে বাঁচতে একটা পেঁয়াজ কেটে রস সংগ্রহ করুন। তারপর তাতে কয়েক ফোটা মধু মিশিয়ে একটি মিশ্রণ বানিয়ে নিন। এই মিশ্রণ দিনে অন্তত দুবার পান করুন। এতে  করে দেখবেন আপনার সর্দি-কাশির সমস্যা শরীরের একদম ভেতর থেকে নিরাময় কয়ে যাবে।

সূত্র: বাংলা বোল্ডস্কাই

বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ/জেডএ