ঢাকা, রোববার, ২১ জুলাই ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Bagan Bangla Insider

অফিসের নতুন পরিবেশের সঙ্গে মানাতে…

লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৮ আগস্ট ২০১৮ মঙ্গলবার, ০২:৫৩ পিএম
অফিসের নতুন পরিবেশের সঙ্গে মানাতে…

একটা মানানসই চাকরি আমাদের তরুণ প্রজন্মের কাছে অসম্ভব আরাধ্য একটি বিষয়। একটি নতুন চাকরিতে ঢোকার পরে আবার নতুন সব চিন্তা। নতুন পরিবেশ পরিস্থিতিতে মানিয়ে নেওয়া একটি বড় বিষয়। এজন্য ধাপে ধাপে আপনাকে এগোতে হবে, মানিয়ে নিতে হবে অফিসের সঙ্গে।

১. নতুন কর্মস্থলে গেলে প্রথমেই যেটা জরুরি সেটা হলো শৃঙ্খলা বজায় রাখা। সব অফিসেই একটা সুনির্দিষ্ট শৃঙ্খলা থাকে। প্রথমে সেই শৃঙ্খলা বুঝতে চেষ্টা করুন। তারপর সেটার সঙ্গে গুছিয়ে তাল মিলিয়ে চলুন। এতে করে দেখবেন নিজেকে সবকিছুর সঙ্গে মানিয়ে নেওয়া খুব একটা কঠিন হবে না।

২. আর মানিয়ে নেওয়ার প্রধান মূলমন্ত্র হলো গুছিয়ে নিজের সব কাজ করা। এজন্য সকালে ঘুম থেকে উঠেই মনে মনে সারাদিনের একটা পরিকল্পনা করে নিন। অবশ্যই সঠিক সময়ে অফিসে যাবেন, কখনোই দেরি করবেন না। অফিস পরিস্থিতি ও প্রয়োজনীয়তা বুঝে যেসব কাজ আগে করা দরকার, তা করে নিন।

৩. এরপরেই আসে সহকর্মীদের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখার বিষয়টি। আস্তে আস্তে নিজের পরিচয় দিন সবার কাছে। সব সহকর্মীদের পরিচয়ও জেনে নিন। আলাপ হওয়ার পর থেকে তাদের সঙ্গে দেখা হলেই সৌজন্যমূলক কথা বলুন।

৪. নতুন চাকরিতে ঢোকার পরে অফিসিয়াল পুরো বিষয় ধাতস্থ করতে কয়েকদিন সময় লাগেই। সহকর্মীদের কথাবার্তা, চালচলন, আচার-আচরণ দ্বারা অফিসের হালচাল ও পারিপার্শ্বিক অবস্থা বোঝার চেষ্টা করুন। বস এবং সহকর্মীদের মন্তব্য মন দিয়ে শুনুন।

৫. কাউকে আঘাত দিয়ে কখনো কোনো কথা বলবেন না। এতে করে অফিসে আপনার ভালো অবস্থান প্রতিষ্ঠিত হবে না। অন্য কারো কাছে আপনার অবস্থান ইতিবাচক হবে না। সহজ সরল, খোলামেলাভাবে সবার সঙ্গে কথা বলুন।

৬. আপনার কাজের গুণগত মান ভালো করার জন্য দরকার ভালো পরিবেশ। তাই নিজের বসার জায়গাটা ফুল, গাছ বা পছন্দের ছোটখাটো জিনিস দিয়ে মনের মতো করে সাজিয়ে নিন।

৭. কর্মস্থলে কোনো সমস্যা হলে অবশ্যই বস বা অফিস কর্তৃপক্ষকে জানান। বা যে সহকর্মীর সঙ্গে একটু ভালো সম্পর্ক গড়ে উঠেছে, তাকে সমস্যা খুলে বলতে পারেন।

৮. অফিসে বসে কখনো ব্যক্তিগত কাজ, যেমন সোশ্যাল মিডিয়া সময় কাটানো, অতিরিক্ত ফোনে আলাপ এড়িয়ে চলুন। এতে করে আপনার মনোযোগ তো নষ্ট হবেই, আশেপাশের লোকজনেরও বিরক্ত লাগবে।

৯. যতক্ষণ অফিসে থাকবেন, ততক্ষণ প্রফেশনাল হতে চেষ্টা করুন। অপ্রয়োজনীয় আলোচনা, সমালোচনা থেকে বিরত থাকুন। মনে রাখবেন যে গল্পের সময়ে গল্প আড্ডা, আর কাজের সময়ে শুধু কাজ। কাজের সময়টা গল্প-আড্ডায় নষ্ট করবেন না।


বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ/জেডএ