ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯, ৩১ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Bagan Bangla Insider

কি করবেন প্রিয় মানুষটি প্রতারণা করলে

লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ২০ এপ্রিল ২০১৯ শনিবার, ০৮:০৫ এএম
কি করবেন প্রিয় মানুষটি প্রতারণা করলে

বহুদিনের ভালোবাসার সম্পর্ক নষ্ট হয়ে গেছে রাহাত আর তানজিলার (ছদ্মানাম)। তাদের চারবছরের সম্পর্ককে উপেক্ষা করে রাহাত নতুন সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েছে, ফলে যত্নে গড়া সম্পর্ককে ছেড়ে যেতে হয়েছে। সে হয়ত ভালোই আছে, কিন্তু তানজিলার মনের মধ্যে চলছে অসম্ভব তোলপাড়। তার কষ্ট একটাই- রাহাত কীভাবে প্রতারণা করতে পারলো! এতদিনের স্মৃতি, ভালোবাসাকে ভুলে গেলো কি করে! সে কিছুতেই মেনে নিতে পারছে না, প্রতারণাকে ভুলে যাওয়া খুব কঠিন মনে হচ্ছে।

সম্পর্কের টানাপোড়ন আমাদের দৈনন্দিন জীবনের চিরাচরিত অংশ। কিন্তু প্রতারণার কারণে বিচ্ছেদ হলে সেটা মেনে নিতে কষ্ট হয়। প্রিয় মানুষটি যখন প্রতারকরূপে সামনে আসে তখন বিশ্বাস হারিয়ে যায়। এই কঠিন আঘাতের পর কীভাবে নিজেকে সামলাবেন তার জন্য থাকছে কিছু টিপস-

সময়ের হাতে কিছুদিনের জন্য ছেড়ে দিন নিজেকে

মনের যেকোনো ক্ষত সারাতে সময়ের চেয়ে ভালো কোনো ওষুধ হতে পারে না, এটা পরীক্ষিত। তাই এই অবস্থায় নিজেকে সময়ের কাছে সঁপে দিতে পারেন। প্রতারিত হওয়ার ব্যথা আস্তে আস্তে সময়ের সঙ্গে চলে যাবে। যদিও কাছের মানুষের প্রতারণা ভুলে যাওয়া কঠিন কাজ। তবুও জীবন কখনো থেমে থাকে না, নিজের গতিতে সে চলবেই। তাই মনকে কখনো একা রাখবেন না। তাকে সঙ্গ দেবেন, নিজের ভালোবাসা দেবেন। চেষ্টা করবেন ব্যস্ত থাকার, অপেক্ষা করুন ক্ষত সেরে ওঠার।

কথা বলুন মন খুলে

মনের মধ্যে কষ্ট চেপে রাখলে তা বাড়তেই থাকে। তাই কাছের লোকদের সঙ্গে জীবনের সবচেয়ে কষ্টের অংশ ভাগ করে নিতে হবে। এতে কষ্ট, ক্ষত কমবে। কষ্ট ভাগ করলে সেটা অবশ্যই লাঘব হয়। তাই আঘাতকে না লুকিয়ে রেখে মন খুলে শেয়ার করুন কাছের কোন মানুষের কাছে। তবে খেয়াল রাখবেন কেউ যেন আপনার দুর্বলতা নিয়ে পরে উপহাস না করে। প্রয়োজনে কোনো কাউন্সিলরের কাছে যান।

নিজের সঙ্গে ভুলেও প্রতারণা নয়

নিজের কাছে অবশ্যই পরিচ্ছন্ন হতে হবে। তাই পুরো সত্যিটা স্বীকার করা সবচেয়ে জরুরি। যে বা যারা প্রতারণার মত কষ্টদায়ক কাজটি অবলীলায় করতে পারে তার জন্য নিজের জীবন শেষ করার মধ্যে কোনো সার্থকতা নেই। তাই নিজেকে ধোঁকা না দিয়ে সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়াই জীবনের মূলমন্ত্র হওয়া উচিত। নিজের ক্ষতির কোনো চেষ্টা না করে ভালো করার চেষ্টা করবেন।

অবস্থার সঙ্গে নিজেকে মানাতে হবে

চরম সত্যিকে মেনে নেওয়া কিছু সময় অসম্ভব মনে হয়। ভালোবাসার সম্পর্কে অনেক টানাপোড়েন থাকেই, কিন্তু তাই বলে প্রতারণা মেনে নেওয়া কখনই সহজ নয়। তাই প্রতারণার শিকার হলে মানুষ বেশিরভাগ সময় মনোকষ্ট থেকে বেরিয়ে আসতে পারে না, হারিয়ে যেতে থাকে অন্ধকারে। নিজেকে সবকিছু থেকে আলাদা করে ফেলে আড়ালে চলে যেতে ইচ্ছে করে। কিন্তু যে ধোঁকা দিয়েছে তার জন্য জীবনকে নষ্ট করবেন না। সম্পর্ক শেষ হয়ে যাওয়া মানে জীবনটা শেষ নয়। অবস্থাকে মেনে নিয়ে সমস্যার যথাযথ সমাধান করা সম্ভব। পরিস্থিতি থেকে পালিয়ে কখনো নিজের কষ্টের হাত থেকে পালানো সম্ভব না। পরিস্থিতি মেনে নিলে প্রতারণার কষ্ট কমে, সমাধানের পথ বাতলে যায়।

নিজেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলবেন না

সম্পর্কে প্রতারিত হলে মানুষ বাইরের পৃথিবীর থেকে নিজেকে বিছিন্ন করে ফেলে, নিজেকে বন্দি করে রাখে চার দেয়ালের মাঝে। কিন্তু এভাবে নিজেকে তিলে তিলে শেষ করে ফেলার থেকে বুঝতে হবে কারো চলে যাওয়া মানে জীবনের সব চাওয়া-পাওয়া শেষ হয়ে যাওয়া না। নিজেকে সবকিছু থেকে দূরে রাখলেই কিন্তু কষ্ট, ব্যথা, যন্ত্রণা নিঃশেষ হয়ে যাবে না। নিজেকে শক্ত করুন।

আনন্দ খুঁজে নিন

নিজেকে আনন্দে রাখার সবচেয়ে সহজ উপায় নিজেকে ব্যস্ত রাখা। নতুন কিছু করুন। ব্যাগ গুছিয়ে নিয়ে বেড়িয়ে পরুন ঘুরতে, চাইলে শিখে নিন পেইন্টিং বা নতুন কোনো শখের কাজ। আনন্দময় জিনিস শিখলে মনের মধ্যে কষ্টগুলো খুব একটা মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে পারে না। ব্যথা ভুলে জীবনের স্বাদ আবারও অনুভব করতে শিখুন।

ক্ষমা করতে শিখুন

ক্ষমা শব্দটি অনেক সমস্যার সমাধান করে দিতে পারে সহজেই। এতে জীবনটা সহজ হয়ে যেতে পারে, মন থেকে ঘৃণা, বিদ্বেষ চলে যেতে পারে। মনের মধ্যে রাগে, অভিমানে ফুলে-ফেঁপে প্রতিশোধপরায়ন হয়ে উঠবেন না, এতে কোনো সমাধান হয় না। উল্টে আপনার মনের মধ্যেই অশান্তি চলতে থাকে। প্রতারক সঙ্গীকে বার বার মনে না করে ক্ষমা করে দিন তাকে। দেখবেন কষ্ট ভুলে যাচ্ছেন। তার প্রতি রাগ চলে যাচ্ছে।

 

বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ