ঢাকা, সোমবার, ২৫ মে ২০২০, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Bangla Insider

শীতে কম পানি খাচ্ছেন?

লাইফস্টাইল ডেস্ক
প্রকাশিত: ১৩ জানুয়ারি ২০২০ সোমবার, ০৪:৩৯ পিএম
শীতে কম পানি খাচ্ছেন?

যে হাড় কাঁপানো শীত, তার মধ্যে সব কাজই কেমন যেন থেমে যাচ্ছে। খাইতে-নাইতে, বাইরে বেরোতে গেলেই কাঁপুনি উঠে যাচ্ছে শরীরে। বেশি ঠাণ্ডা লাগে, এমন কাজকর্ম পারতপক্ষে আমরা এড়িয়ে চলি। বিশেষ করে পানি খেতেই যেন সবচেয়ে বেশি অনীহা। শীতকালে এই পানি কম খাওয়া হয় বলে ঠাণ্ডার হাত থেকে আপনি বাঁচলেও শরীর কিন্তু খুব খারাপ হতে পারে।

প্রত্যেকের শরীরের পানির চাহিদাই ভিন্ন। দিনে কতটুকু পানি পান করতে হবে তা নির্ভর করে আপনার কাজের ধরন, বয়স এসবের উপর। সুস্থ থাকতে একজন প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের প্রতিদিন ৩-৪ লিটার পানি পান করতে হয়। তবে শীত মৌসুমে পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করা হয়ে ওঠে না। শুষ্ক আবহাওয়া, সঙ্গে কম পানি পান করার প্রভাবে শরীরে বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়।

পানির সঙ্গে শরীরের বিষাক্ত উপাদানগুলো বাইরে বেরিয়ে যায়। পানির ঘাটতি থাকলে স্বাভাবিকভাবেই শরীরের বিষাক্ত উপাদানগুলো বের হতে পারে না। তাই জেনে নিন পানি কম পান করার ফলে শরীরে যেসব সমস্যা দেখা দেয়।

শীতের সময় পনি কম পান করার ফলে ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়। তবে এই সময়ের আবহাওয়ার জন্য ত্বক এমনিতেই কিছুটা শুষ্ক থাকে। তাই অনেকেই এই বিষয়টা লক্ষ্য করেন না। পানি কম পান করা ফলে শরীরে টক্সিনের পরিমাণ অনেকটাই বেড়ে যায়। এতে ত্বকে ব্রন ওঠা, ত্বকে হালকা জ্বালা জ্বালা অনুভব করাসহ একাধিক সমস্যা হতে পারে।

ত্বক শুষ্ক হওয়ার পাশাপাশি মাথায় যন্ত্রণা হতে পারে। আর মাইগ্রেন বা মাথা যন্ত্রণার সমস্যা থাকলে পানি পানের ব্যপারে আপনাকে সতর্ক থাকতে হবে। বেশিক্ষণ মাথা যন্ত্রণা করলে সঙ্গে সঙ্গে বেশি পরিমাণ পানি পান করুন। তাহলে দেখবেন অনেকটা আরাম পাচ্ছেন।

এছাড়া গ্রীষ্মের মতো শীতেও কম পানি পান করা ফলে কোষ্ঠকাঠিন্য হতে পারে। যাদের অর্শ বা অন্য কোনো সমস্যা রয়েছে তাদের বেশি সতর্ক থাকা উচিত। তাই শীতকালে পানি কম লাগে মনে করে কম খাবেন না কিন্তু।

এছাড়া দেখা যায়, শীতের সময় বেশি পানি পান করলে বারে বারে প্রস্রাব ভেবে অনেকেই কম পানি পান করেন। বিশেষ করে রাতের সময়। এতে প্রস্রাবের সমস্যা দেখা দিতে পারে। কারণ প্রস্রাবের সময় মূত্রনালী দিয়ে অনেকটা পরিমাণে টক্সিন বাইরে বেরিয়ে যায়। তাই পানি কম পান করলে প্রস্রাব করার সময় ব্যাথা হতে পারে।

শীতে দীর্ঘ সময় পরিশ্রম করেও ক্লান্তি আসে না। তবে শীতকালে যদি অল্পতেই ক্লান্ত হয়ে পড়ছেন, তাহলে বুঝবেন শরীরে পানির ঘাটতি হচ্ছে। শারীরবৃত্তীয় প্রক্রিয়া ঠিকমতো না হওয়াতেই অল্পতেই ক্লান্ত হয়ে পড়েন আপনি।

শীতে ঠাণ্ডা পানি পান করতে সমস্যা হলে গরম পানি হতে পারে সমাধান। হালকা গরম করে পান করার উপকার কিন্তু ঠাণ্ডা পানি পানের চেয়ে অনেক বেশি। তাই শুধু শীতের সময়ই নয়, সারা বছরই হালকা গরম পানি পানের অভ্যাস করতে পারেন।

 

বাংলা ইনসাইডার/এসএইচ