ইনসাইড বাংলাদেশ

শক্তিশালী সশস্ত্র বাহিনী সার্বভৌমত্ব রক্ষার পূর্বশর্ত: রাষ্ট্রপতি

প্রকাশ: ০৮:৪১ এএম, ২১ নভেম্বর, ২০২৩


Thumbnail

একটি শক্তিশালী, আধুনিক ও প্রশিক্ষিত সশস্ত্র বাহিনী দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষার অন্যতম পূর্বশর্ত বলে মন্তব্য করেছেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন।

তিনি বলেন, ‘সরকার সশস্ত্র বাহিনীর আধুনিকায়নের লক্ষ্যে ফোর্সেস গোল ২০৩০ প্রণয়ন করেছে। এর আওতায় সশস্ত্র বাহিনীতে যুক্ত হচ্ছে অত্যাধুনিক সামরিক সরঞ্জাম, যা নিঃসন্দেহে সশস্ত্র বাহিনীকে আরও আধুনিক, দক্ষ ও গতিশীল করবে। সশস্ত্র বাহিনীর উন্নয়নে নেতৃত্বের প্রতি গভীর আস্থা, পারস্পরিক বিশ্বাস, শ্রদ্ধাবোধ, পেশাগত দক্ষতা এবং সর্বোপরি শৃঙ্খলা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।’

আজ (২১ নভেম্বর) সশস্ত্র বাহিনী দিবস উপলক্ষে সোমবার (২০ নভেম্বর) দেওয়া এক বাণীতে এসব কথা বলেন তিনি। এসময় সশস্ত্র বাহিনী দিবস- ২০২৩ উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি বাংলাদেশ সেনা, নৌ ও বিমানবাহিনীর সব সদস্যকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান।

সশস্ত্র বাহিনী দিবসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করে রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘যার নেতৃত্বে দীর্ঘ নয় মাস সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর আমরা চূড়ান্ত বিজয় অর্জন করি। আমি গভীর শ্রদ্ধা জানাচ্ছি সাতজন বীরশ্রেষ্ঠকে, যারা মাতৃভূমির জন্য জীবন উৎসর্গ করেছেন। আমি গভীর শ্রদ্ধায় স্মরণ করছি মহান মুক্তিযুদ্ধসহ বিভিন্ন সময়ে দেশ ও দেশের বাইরে পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে আত্মোৎসর্গকারী সশস্ত্র বাহিনীর বীর সদস্যদের। তাদের আত্মার মাগফেরাত ও শান্তি কামনা করি। সশস্ত্র বাহিনীর যুদ্ধাহত সদস্য ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাচ্ছি।’

তিনি বলেন, ‘মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে গড়ে ওঠা সশস্ত্র বাহিনী জাতির গর্ব ও আস্থার প্রতীক। মহান মুক্তিযুদ্ধকালীন ১৯৭১ সালের ২১ নভেম্বর তিন বাহিনী সম্মিলিতভাবে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর ওপর সর্বাত্মক আক্রমণ পরিচালনা করে। তিন বাহিনীর সম্মিলিত এই প্রয়াস আমাদের বিজয়কে ত্বরান্বিত করে। তাই বাংলাদেশের স্বাধীনতা-সংগ্রামের ইতিহাসে ২১ নভেম্বর এক স্মরণীয় দিন। মুক্তিযুদ্ধে সশস্ত্র বাহিনীর অবদান ও বীরত্বগাথা জাতি গভীর শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করে।’

রাষ্ট্রপতি আরও বলেন, ‘দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষার মহান দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি যেকোনো প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলায় বেসামরিক প্রশাসনকে সহযোগিতাসহ জাতিগঠনমূলক কর্মকাণ্ডে সশস্ত্র বাহিনী প্রশংসনীয় ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে। বাংলাদেশে করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধ ও মহামারি মোকাবিলায়ও সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যরা সাহসিকতার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করেছে। কেবল দেশেই নয়, সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যরা জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে অংশ নিয়ে পেশাগত দক্ষতা, সর্বোচ্চ শৃঙ্খলা, সততা ও নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করে বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জল করে চলেছেন।’

মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যরা রাষ্ট্র ও নেতৃত্বের প্রতি পরিপূর্ণ অনুগত থেকে কঠোর অনুশীলন ও দেশপ্রেমের সমন্বয়ে সশস্ত্র বাহিনীর গৌরব সমুন্নত রাখতে সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চালাবেন- এ প্রত্যাশা করেন রাষ্ট্রপতি। এসময় তিনি সশস্ত্র বাহিনীর উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি এবং বাহিনীসমূহের সব সদস্য ও তাদের পরিবারবর্গের অব্যাহত সুখ, শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করেন।


রাষ্ট্রপতি   সশস্ত্র বাহিনী দিবস  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড বাংলাদেশ

সিরাজগঞ্জে পুকুরের পানিতে ডুবে এক শিশুর মৃত্যু

প্রকাশ: ০৯:২৮ পিএম, ১৪ জুলাই, ২০২৪


Thumbnail

সিরাজগঞ্জ পৌর শহরের চক কোবদাস পাড়ায় পুকুরের পানিতে ডুবে জুনায়েদ (৮) নামের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে।  

রোববার (১৪ জুলাই) বেলা ১২ টার দিকে পৌর শহরের চক কোবদাস পাড়া মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে। 

নিহত শিশু জুনায়েদ পৌর শহরের চক কোবদাস পাড়া আজিজুল হাকিম এর ছেলে ও স্থানীয় চক কোবদাস পাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেনীর ছাত্র। 

নিহত শিশু জুনায়েদ এর চাচা সোহেল রানা জানান, আজকে বেলা ১২টার দিকে আমার ভাতিজা জুনায়েদ  স্কুল থেকে বাড়িতে ফিরে তার মাকে পা ধোয়ার কথা বলে বাড়ির পিছনে পুকুরে চলে যায়। এসময় পা পিছলে পুকুরের গর্তের মধ্যে পড়ে যায়। পরে গর্তে থেকে জুনায়েদকে উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। 

এ বিষয়ে সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান নাছিম রেজা নুর দিপু  বলেন, শিশুটি স্কুল থেকে বাড়ি গিয়ে তার মাকে পা ধোঁয়ার কথা বলে পুকুর পারে চলে যায়। এমন সময় শিশুটি পা পিছলে পুকুরের গর্তে পরে যায়। পড়ে স্থানীয়রা শিশুটিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। পরে নিহত শিশুর বাড়িতে গিয়ে শোকাহত পরিবারের লোকজনকে সান্ত্বনা দেই।'

সিরাজগঞ্জ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড বাংলাদেশ

তিন হাজার বাংলাদেশি কর্মী নেবে ইইউভুক্ত চার দেশ: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশ: ০৯:০৫ পিএম, ১৪ জুলাই, ২০২৪


Thumbnail

ইউরোপীয় ইউনিয়নের চারটি দেশ ইতালি, জার্মানি, গ্রিস ও রোমানিয়া বাংলাদেশ থেকে তিন হাজার বাংলাদেশি কর্মী নেবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ। 

রোববার (১৪ জুলাই) রাজধানীর সেগুনবাগিচায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত চার্লস হোয়াইটলির বিদায়ী সাক্ষাতের পর সাংবাদিকদের এ কথা তিনি জানান। 

ড. হাছান জানান, এ তিন হাজার কর্মীর দক্ষতার ওপর নির্ভর করে ভবিষ্যতে আরও কর্মী নেওয়ার সম্ভাবনার কথাও জানিয়েছেন ইইউ রাষ্ট্রদূত। পাশাপাশি বাংলাদেশ ২০২৬ সালে স্বল্পোন্নত দেশ থেকে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হওয়ার পরও ২০৩২ সাল পর্যন্ত যাতে আমাদের পণ্যের জন্য ইইউ থেকে জিএসপি বা শুল্কহ্রাস সুবিধাসহ এখন যে অন্যান্য সুবিধা পাই, সেগুলো যেন অব্যাহত থাকে, সে বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। 

এ সময় ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লিতে ১১-১২ জুলাই অনুষ্ঠিত বিমসটেক দেশগুলোর পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের দ্বিতীয় রিট্রিট সম্মেলনের বিষয়ে সাংবাদিকদেরকে মন্ত্রী জানান, জলবায়ু পরিবর্তন, চিকিৎসা, জ্বালানি নিরাপত্তা খাতে সহায়তা এবং নেপাল ও ভুটানে জলবিদ্যুৎ উৎপাদনের মাধ্যমে সবুজ শক্তি ব্যবহার বৃদ্ধি নিয়ে রিট্রিটে কথা হয়েছে।

হাছান মাহমুদ জানান, আগামী সেপ্টেম্বর মাসের চার তারিখে থাইল্যান্ডে বিমসটেক শীর্ষ সম্মেলন। সেখানে বিমসটেকের পরবর্তী চেয়ার হিসেবে দায়িত্ব নেবে বাংলাদেশ। 

ইইউ   পররাষ্ট্রমন্ত্রী   ড. হাছান মাহমুদ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড বাংলাদেশ

জামালপুরে বন্যার পানিতে ডুবে ৪ জনের মৃত্যু

প্রকাশ: ০৮:৪৭ পিএম, ১৪ জুলাই, ২০২৪


Thumbnail

জামালপুরের মেলান্দহ উপজেলায় বন্যার পানিতে গোসল করতে নেমে শিশুসহ চারজনের মৃত্যু হয়েছে।

রোববার (১৪ জুলাই) বিকাল ৫টার দিকে উপজেলার শ্যামপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ বালুরচর এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, গৃহবধু রোকসানা (৩২), তৃষ্ণা (১৭), খাদিজা (১১) ও সাদিয়া (১১)।

মেলান্দহ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাজু আহমেদ জানান, নিহতরা একে অপরের প্রতিবেশী। তারা বিকেলে জমে থাকা বন্যার পানিতে গোসল করতে নামে। এ সময় খাদিজা ও সাদিয়া পানিতে ডুবে গেলে রোকসানা ও তৃষ্ণা তাদের উদ্ধারে এগিয়ে যান এবং তারাও ডুবে যান। পরে এলাকাবাসী তাদের মৃত অবস্থায় উদ্ধার করেন।


নিহত   বন্যা   মৃত্যু   শিশু   জামালপুর  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড বাংলাদেশ

সিসিইউতে খালেদা জিয়া, অবস্থার আরও অবনতি

প্রকাশ: ০৮:৩৩ পিএম, ১৪ জুলাই, ২০২৪


Thumbnail

রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

রোববার (১৪ জুলাই) বিএনপির স্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক ডা. রফিকুল ইসলাম এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, বেগম জিয়ার শারীরিক অবস্থা অবনতির দিকে। প্রতিবারই তাকে হাসপাতালে জরুরি ভিত্তিতে নিয়ে আসতে হচ্ছে, এটি খুবই উদ্বেগজনক। এবার হাসপাতালে ভর্তির পর তার অবস্থা আরও আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছে।

বিএনপির মিডিয়া সেলের সদস্য শায়রুল কবির খান জানিয়েছেন, বিএনপি চেয়ারপারসন এখনও মেডিকেল বোর্ডের সার্বক্ষণিক তত্ত্বাবধানে সিসিইউ-সংবলিত সুবিধায় কেবিনে চিকিৎসাধীন।

সবশেষ শুক্রবার (১২ জুলাই) রাত থেকে তার লিভারের সমস্যা বেড়েছে, যাকে আশঙ্কাজনক বলছেন চিকিৎসকরা।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, গত চারদিনে খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার কোনো উন্নতি হয়নি, বরং দিনে দিনে অবনতি হচ্ছে। তার হার্ট, লিভারসহ শারীরিক অন্য প্যারামিটার বেশ অস্বাভাবিক। মেডিকেল বোর্ডের চিকিৎসকরা নানাভাবে চিকিৎসা অব্যাহত রেখেছেন।

শারীরিক অবস্থার হঠাৎ অবনতি হওয়ায় গত ৮ জুলাই মধ্যরাতের পর খালেদা জিয়াকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। এরপর থেকে তিনি সেখানে চিকিৎসাধীন।


খালেদা জিয়া   বিএনপি   সিসিইউ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড বাংলাদেশ

নৈশ প্রহরীকে হত্যা করে ৫ অটোরিকশা চুরি

প্রকাশ: ০৭:২০ পিএম, ১৪ জুলাই, ২০২৪


Thumbnail

গাইবান্ধার পলাশবাড়িতে দুদু মিয়া (৬০) নামে এক নৈশ প্রহরীকে শ্বাসরোধে হত্যা করে গ্যারেজ থেকে পাঁচটি অটোরিকশা নিয়ে গেছে চোর চক্র। ঘটনার সঙ্গে পূর্ব শত্রুতার জেরও থাকতে পারে বলে ধারণা করছে পুলিশ। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করা হয়েছে। 

শনিবার (১৩ জুলাই) দিবাগত গভীর রাতে পলাশবাড়ি পৌর শহরের সুঁইগ্রামের একটি গ্যারেজে এ ঘটনা ঘটে। গত কয়েকদিন আগেও ওই গ্যারেজে চুরির ঘটনা ঘটেছে। নিহত দুদু মিয়া একই গ্রামের মৃত আমির আলীর ছেলে। তিনি কয়েক বছর থেকে নুরে আলম জিল্লু মিয়া নামে এক ব্যাক্তির গ্যারেজে নাইটগার্ড (নৈশ প্রহরী) হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন গাইবান্ধার সহকারি পুলিশ সুপার (সি সার্কেল) উদয় কুমার সাহা। তিনি জানান, গতকাল রাতে সুঁই গ্রামের একটি গ্যারেজের নৈশ প্রহরীকে হত্যা করে পাঁচটি অটোরিকশা চুরি করে নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা। নিহতের মুখে কাপড় গোজানো ছিল, ধারণা করা হচ্ছে তাকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, এর আগে ২০১৬ সালে ওই গ্যারেজ থেকে একটি অটোরিকশা চুরি হয়। এরপর একাধিকবার একই গ্যারেজ থেকে অটোর চার্জার, ব্যাটারিসহ বিভিন্ন যন্ত্রাংশও চুরি হয়েছে। ঘটনাটি পূর্ব শত্রুতার জেরেও হয়ে থাকতে পারে।

সহকারি পুলিশ সুপার আরও জানান, এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করা হয়েছে। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা দায়ের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।


প্রহরী   হত্যা   চুরি   পুলিশ  


মন্তব্য করুন


বিজ্ঞাপন