ঢাকা, শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮, ১ পৌষ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

ড. কামাল কি বিএনপির চেয়ারপারসন?

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ শুক্রবার, ০২:০৩ পিএম
ড. কামাল কি বিএনপির চেয়ারপারসন?

সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতি এক মত বিনিময় সভার আয়োজন করে। বৃহস্পতিবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির মিলনায়তনে এ মতবিনিময় সভা হয়। এই মত বিনিময় সভায় মূল বক্তা ছিলেন ড. কামাল হোসেন। ড. কামালের দুই পাশে বসে ছিলেন বিএনপির নেতা এবং সুপ্রীম কোর্ট আইনজীবি সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন ও ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন। দুজনই বিএনপির গুরুত্বপূর্ণ নেতা। এই মত বিনিময় সভা আয়োজন করা হয়েছিল মূলত খালেদা জিয়ার আদালত স্থানান্তরের ব্যাপারে ড. কামালের আইনি মতামত নেয়ার জন্য। এটা কোর্টে না দিয়ে ড. কামাল কেন মত বিনিময় সভায় দিলেন তা নিয়ে আইনজীবিদের মধ্যে প্রশ্ন উঠেছে। যেভাবে তিনি উপস্থিত ছিলেন, তাতে মনে হয়েছে তিনি যেন বিএনপির চেয়ারপার্সন। তার দুই পাশে দুই নেতা বসে আছে, মধ্যখানে তিনি বক্তব্য দিচ্ছেন।

এ ব্যাপারে বার কাউন্সিলের সহ সভাপতি আব্দুল আবদুল বাসেত মজুমদারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন যে, ড. কামাল হোসেন সারাজীবন জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের বিপক্ষে অবস্থান নিয়ে লড়াই করেছেন। আজকে তিনি কেন তাদের ফাঁদে পা দিলেন সেটা আমার বোধগম্য নয়!

তিনি আরও বলেন, ড. কামাল হোসেনরা সবসময়ই পেশাদার আইনজীবী। অর্থ পেলে উনারা যে কোন মক্কেলের পেছনেই থাকবেন। এই মত বিনিময় সভার জন্য কত পেয়েছেন সেটা অবশ্য আমি জানি না।

এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে এর্টনি জেনালের মাহাবুবে আলম বলেন, ড. কামাল হোসেন তার মতামতটা রাজনীতির মঞ্চে না দিয়ে যদি প্রধান বিচারপতির কাছে দিতেন বা কোন কোর্টে দিতেন, তাহলে আর্গুমেন্ট করতে পারতাম এবং আমরা জানি যে অর্থের বিনিময়ে তিনি যেকোন মামলাই লড়তে পারেন। এর আগেও তিনি দেশের স্বার্থবিরোধী , রাষ্ট্রবিরোধী মামলায় উনি আইনজীবী হিসেবে পরামর্শদাতা হয়েছিলেন। আজকে নতুন করে দেখলাম , যাদের বিরুদ্ধে তিনি লড়াই করেছেন। এখন ক্ষমতার মোহে আবার এই সভা করেছেন। আমার জানতে ইচ্ছে করে উনি কি বিএনপিতে যোগ দিয়েছেন? কিংবা জাতীয়তাবাদি আইনজীবির মূলনেতায় পরিনত হয়েছেন?’


বাংলা ইনসাইডার/এমআরএইচ