ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৫ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

সবার আকর্ষণ গুলশানে

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১৯ নভেম্বর ২০১৮ সোমবার, ০১:১১ পিএম
সবার আকর্ষণ গুলশানে

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা-১৭ (গুলশান, বনানী, ক্যান্টনমেন্ট, মহাখালীর নিউ ডিওএইচএস, ভাসানটেক, বারিধারা ও শাহজাদপুর এলাকা) আসনের দিকে নজর অনেকের। সব রাজনৈতিক দলের মধ্যেই এই আসন নিয়ে ব্যাপক আগ্রহ ও উৎসাহ লক্ষ্য করা যাচ্ছে।

গুলশানে আওয়ামী লীগ থেকে বেশ কয়েকজন প্রার্থী হতে চান। তবে এই আসনে আওয়ামী লীগে ভালো প্রার্থী তেমন নেই। তাই এই আসনে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে একজন দেশসেরা ব্যবসায়ীর কথা ভাবা হচ্ছে।

আওয়ামী লীগের জোটের শরিক জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের নজরও গুলশানের দিকে। গত রোববার তিনি এই আসন থেকে মনোনয়ন সংগ্রহ করেছেন। এরই মধ্যে কয়েকবার এই আসন থেকে প্রার্থী হওয়ার আগ্রহের কথা জানিয়েছেন এরশাদ।

ঐক্যফ্রন্ট থেকে বলা হয়েছিল, শেষ পর্যন্ত যদি ড. কামাল হোসেন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেন, তবে তাকে এই আসন দেওয়া যেতে পারে। তবে ঐক্যফ্রন্টের বড় শরিক বিএনপিরও নজর আছে গুলশানে। খালেদা জিয়ার দুই পুত্রবধূ জোবায়দা রহমান ও সৈয়দ শর্মিলা রহমান সিঁথির কোনো একজন এই আসন থেকে লড়তে পারেন ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে। 

এদিকে বিএনপি নেতৃত্বাধীন জোট ২০ দলের শরিক বিজেপির চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থও গুলশান আসনের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন। তিনিও এই আসন থেকে নির্বাচন করবেন বলে আশাবাদী।

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন কৌশল চূড়ান্ত। যে কোনো দিন এর ঘোষণা আসতে পারে। আর বিএনপিরও মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার শেষ পর্যায়ে। প্রধান দুই দলের ঘোষণার মাধ্যমেই নিশ্চিত হয়ে যাবে গুলশানে কার ভাগ্যের শিঁকে ছিড়ছে।

বাংলা ইনসাইডার/জেডআই/জেডএ