ঢাকা, রোববার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২০, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

কুরুক্ষেত্র: ভোলা-১

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২ ডিসেম্বর ২০১৮ রবিবার, ০৪:৫৭ পিএম
কুরুক্ষেত্র: ভোলা-১

দিন গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে সারা দেশেই জেঁকে বসছে নির্বাচনী উত্তেজনা। ভোলা-১ আসনও এর ব্যতিক্রম নয়। তবে এই আসনটি ঘিরে নির্বাচনী উত্তাপ একটু বেশিই। এ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ। প্রবীন এই নেতা দশম বারের মতো তাঁর দল থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন। অন্যদিকে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ঐক্যফ্রন্ট ভোলা-১ আসনে বিজেপির চেয়ারম্যান ও সাবেক এমপি ব্যারিস্টার আন্দালিভ রহমান পার্থকে মনোনয়ন দিয়েছে। অভিজ্ঞ তোফায়েল আহমেদের সঙ্গে তুলনা করলে পার্থকে নবীনই বলা চলে। একারনে ভোলা-১ আসনের লড়াইকে অনেকে প্রবীণের সঙ্গে নবীনের লড়াই হিসেবে অভিহিত করছেন।

ভোলার সদর উপজেলা নিয়ে গঠিত ভোলা-১ আসন। এই আসনে মোট ভোটার ৩ লাখ ১২ হাজার। এর মধ্যে নারী ভোটার সংখ্যা ১ লাখ ৫২ হাজার।

স্বাধীনতার পর ১৯৭৩ সালে তোফায়েল আহমেদ প্রথম ভোলা-১ আসন থেকে নির্বাচিত হন। এরপর ১৯৭৯ স্বতন্ত্র প্রার্থী মোশারফ হোসেন তালুকদারের কাছে হেরে যান তিনি। ১৯৮৬’র নির্বাচনেও তিনি প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিলেন। তবে সেবার তিনি আন্দালিভ রহমান পার্থর বাবা নাজিউর রহমান মঞ্জুর তাকে পরাজিত করেন। ১৯৯১ সালের নির্বাচনে জিতে রাজত্ব পুনরুদ্ধার করেন তোফায়েল। এরপর ১৯৯৬ সালে একই আসন থেকে আবারো নির্বাচিত হন তিনি। তবে ২০০১ সালের নির্বাচনে বিএনপি প্রার্থী মোশারফ হোসেন শাজাহানের কাছে পরাজিত হন তোফায়েল।

ওয়ান ইলেভেনের ঘটনা প্রবাহের পর ২০০৮ সালের নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ভোলা-১ আসন থেকে ইউসুফ হোসেন হুমায়ূনকে মনোনয়ন দেয়। এই নির্বাচনেই বিজেপির প্রার্থী হিসেবে আন্দালিভের আবির্ভাব হয়। রাজনৈতিক পট পরিবর্তনের পরের এই নির্বাচনে আন্দালিভ জয়ী হন। তবে ২০১৪ সালে আবারো ভোলা-১ আসনের সাংসদ হন তোফায়েল আহমেদ। বিভিন্ন সময়ে সরকারের গুরুত্বপূর্ণ পদে কাজ করেছেন বর্ষীয়ান এই নেতা। সর্বশেষ দশম জাতীয় সংসদে তিনি কার্য উপদেষ্টা কমিটির সদস্য এবং বাণিজ্যমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

অন্যদিকে আন্দালিভ রহমান পার্থ মূলত ২০০০ সাল নাগাদ রাজনীতিতে সক্রিয় হন। এর আগে ব্যারিস্টার রফিকুল হকের তত্ত্বাবধানে শিক্ষানবিশ আইনজীবী হিসেবে ৩ বছর কাজ করেন তিনি।

প্রবীনের সঙ্গে নবীনের লড়াই বলা হলেও তোফায়েল আহমেদ এবং আন্দালিভ রহমান পার্থ দুজনই হেভিওয়েট প্রার্থী। পুরোনো অনেক হিসাব নিকাশ থাকলেও এবারই প্রথম নির্বাচনের মাঠে মুখোমুখি হচ্ছেন তারা। পার্থর বাবা মঞ্জুরের কাছে ভোলা-১ আসনে হেরে গিয়েছিলেন তোফায়েল। এবার তিনি পার্থকে পরাজিত করে ওই হারের প্রতিশোধ নিতে পারেন কিনা সেটাই দেখার অপেক্ষা।

বাংলা ইনসাইডার/এএইচসি/জেডএ