ঢাকা, বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

‘বাংলাদেশের এমন ভালো মানুষের খুব দরকার’

স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০ নভেম্বর ২০১৮ শনিবার, ০৭:৩১ পিএম
‘বাংলাদেশের এমন ভালো মানুষের খুব দরকার’

আজকের সারাদিনের ‘টক অব দা টাউন’ হচ্ছে দেশের ক্রিকেটের দুই বরপুত্র মাশরাফি বিন মর্তুজা এবং সাকিব আল হাসানের মনোনয়নপত্র কেনার ঘোষণা। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে এই দুই ক্রিকেটার আগামীকাল আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র কিনবেন। মাশরাফি বিন মর্তুজা নড়াইল-২ আসন থেকে এবং সাকিব আল হাসান মাগুরা-১ আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন।

সাকিব নিজেই মনোনয়ন পত্র কেনার ব্যাপারে সংবাদমাধ্যমকে জানান। এদিকে, মাশরাফির বাবা গোলাম মর্তুজা স্বপন মাশরাফির মনোনয়ন কেনার ব্যাপারটি নিশ্চিত করে বলেন, ‘আগামীকাল রোববার মনোনয়নের ফরম কিনতে আওয়ামী লীগের ধানমন্ডি অফিসে যাবেন মাশরাফি।‘

আগামী নির্বাচনে মাশরাফি ও সাকিবের প্রার্থী হওয়ার খবরে আনন্দের জোয়ার বইছে পুরো এলাকা জুড়ে। জনপ্রিয় এই দুই ক্রিকেটারকে নির্বাচনে জয়ী করতে সবধরনের সাহায্য-সহযোগিতা ও একসঙ্গে কাজ করার ব্যাপারে আগ্রহ দেখিয়েছে ওই দুই এলাকার মানুষজন।

এলাকার অনেক মানুষ আনন্দিত হলেও দীর্ঘদিন ধরে ওই দুই আসনে রাজনীতি করে আসছেন এমন অনেক নেতাদের মুখে হাসি নেই। অনেকেই মাশরাফি ও সাকিবের প্রার্থী হওয়ার খবরটি ভালভাবে নিতে পারেননি। তাদের মতে, তাঁরা দীর্ঘদিন ধরে রাজনীতি করে আসছেন। রাজপথে থেকে হামলা-মামলার শিকার হয়েছেন। কিন্তু দল না করেও সরকার দলের প্রার্থী হওয়ার কারণে অনেকেই ব্যাপারটি মেনে নিতে পারছেন না। আবার অনেকে শেখ হাসিনার এমন সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানিয়েছেন। শেখ হাসিনা নৌকা মার্কায় যাকেই প্রার্থী বানাবেন তাকে বিজয়ী করার জন্য সবধরনের কাজ করার অঙ্গীকার শোনা যাচ্ছে তাদের মুখে মুখে। 

শুধু ওই দুই আসনে নয়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেও দেখা গেছে ভক্ত ও সমর্থকদের মিশ্র প্রতিক্রিয়া। অনেকেই সাকিব-মাশরাফির নির্বাচন করার ঘোষণাকে নির্বাচনের ইতিবাচক দিক মনে করছেন। আবার কেউ কেউ তাদের এই সিদ্ধান্তটি মেনে নিতে পারছেন না।

ঢাকার মোহাম্মদপুরের বাসিন্দা নাফিসা নওরিন খান ঐশী মাশরাফির মনোনয়নের প্রার্থী হওয়ার ঘোষণায়  নিজের ফেসবুকে লেখেন, ‘ঢাকার ভোটার হয়ে নড়াইলে যেয়ে ভোট দেওয়া যাবে না? আমি খুব করে চাই এই মানুষটা বড় কোনো পজিশনে যাক। একদিন দেশের প্রধানমন্ত্রী হোক। বাংলাদেশের এমন ভালো মানুষের খুব দরকার।‘   

বেসরকারি চাকুরীজীবী অভি ইসলাম সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লেখেন, ‘সামনে বিশ্বকাপ। ১৬ কোটি মানুষের স্বপ্ন বিশ্বকাপ। একমাত্র এই একটি জায়গায় নেই কোনো দলের বিভক্তি। এমন একটি মুহূর্তের আগে সাকিব-মাশরাফির মনোনয়নের এমন সিদ্ধান্ত মেনে নিতে কষ্ট দিচ্ছে। বিশ্বকাপে খারাপ পারফর্ম করলে কত নেতিবাচক মন্তব্য শুধু মাত্র এই কারণে শুনতে হবে সেটা জানেন? রাজনীতি করুণ কিন্তু অবসরের পর করুণ’।

বাংলা ইনসাইডার/এসএকে/জেডএ