ইনসাইড গ্রাউন্ড

সেঞ্চুরির সুযোগ হাতছাড়া সাকিবের, বড় সংগ্রহের পথে বাংলাদেশ

প্রকাশ: ০৪:৫৭ পিএম, ১৮ মার্চ, ২০২৩


Thumbnail

আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে ব্যাট করছে বাংলাদেশ। সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভাল না হলেও, ধীরে ধীরে সুবিধাজনক স্থানে পৌঁছে গেছে স্বাগতিকরা। মাত্র ১৫ রানে অধিনায়ক তামিম ইকবালের উইকেট হারায় বাংলাদেশ। পরের দুটি জুটিও বেশি বড় হয়নি। লিটন-শান্ত আশা জাগিয়েও ৩৪ রানে থেমে যায় দ্বিতীয় উইকেট জুটি। শান্তকে সাথে নিয়ে ৩২ রানের জুটি গড়েন সাকিব। তাতে দ্বিতীয় বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে ওয়ানডেতে ৭ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করেন সাকিব।

আগের তিনটি জুটি পঞ্চাশের আগে থামেলেও দলকে এগিয়ে নিয়েছে সাকিব-হৃদয় জুটি। ওয়ানডেতে অভিষিক্ত এই ব্যাটসম্যানকে নিয়ে দলের রানের চাকা সছল রাখেন সাকিব। ৬০ বল থেকে ৫০ রান পূর্ণ করেন দুজনে। ক্যারিয়ারের ৫৩তম অর্ধশতক তুলে নেন সাকিব আল হাসান। এরপর থেকে হাত খুলে খেলতে থাকেন তিনি। ইনিংসের ৩৫তম ওভারে হ্যারি টেক্টরের উপর রীতিমতো তান্ডব চালিয়েছেন সাকিব। ৫ চারে সে ওভার থেকে ২২ রান তুলে নিয়ে সেঞ্চুরির আশা জাগান এই অলরাউন্ডার।

সাকিবের পর ক্যারিয়ারের প্রথম একদিনের ম্যাচেই অর্ধশতকের দেখা পান তৌহিদ হৃদয়। ২০০৬ সালে ফরহাদ রেজা ও ২০১১ সালে নাসির হোসেনের পর ওয়ানডেতে অভিষেক ম্যাচে সেঞ্চুরি করা তৃতীয় বাংলাদেশি ক্রিকেটার হলেন তিনি। সিনিয়র সাকিবের সাথে বেশ সাবলীলভাবেই ব্যাট করতে থাকেন এই তরুণ ডানহাতি ব্যাটসম্যান। মাঠের চারদিকে শট খেলে মুগ্ধতা ছড়িয়েছেন তিনি। সেই সাথে রানিং বিটুইন দ্যা উইকেটেও বেশ তৎপরতা দেখিয়েছেন হৃদয়।

তবে সেঞ্চুরি থেকে যখন মাত্র ৭ রান দূরে, তখনই নিজের উইকেট বিলিয়ে দিলেন সাকিব। গ্রাহাম হুমের অফ স্টাম্পের অনেক বাইরের একটি বল জায়গা ছেড়ে খেলতে গিয়ে আলগাভাবে ব্যাট চালিয়েছিলেন সাকিব। ব্যাটের কানা ছুঁয়ে তা সহজ ক্যাচে পরিণত হয় উইকেটরক্ষক লরকান টাকারের কাছে। ভাঙে চতুর্থ উইকেটে সাকিব-হৃদয়ের শতরানের জুটি। ১২৫ বলে ১৩৫ রান এসেছে দুজনের ব্যাট থেকে। ২১৬ রানে চতুর্থ উইকেট হারায় বাংলাদেশ।


বাংলাদেশ   আয়ারল্যান্ড   ওয়ানডে   সিলেট  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

অজিদের হারিয়ে ভারত সেমিতে, টিকে রইল বাংলাদেশের স্বপ্ন

প্রকাশ: ১২:২৯ এএম, ২৫ জুন, ২০২৪


Thumbnail

জিতলেই সেমির দৌঁড়ে এগিয়ে, হারলে কঠিন সমীকরণের সামনে- এমন বাঁচা-মরার ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে আজ সর্বোচ্চটা দিয়েই লড়েছে অজিরা। যদিও শেষ পর্যন্ত ভারতের কাছে হেরেছে তারা। আর ক্যাঙ্গারুদের হারে অবশ্য বেঁচে আছে বাংলাদেশের সেমিফাইনালের স্বপ্ন।

সোমবার সেন্ট লুসিয়ার গ্রস আইলেটে ড্যারেন স্যামি স্টেডিয়ামে পাঁচ উইকেটে ২০৫ রান সংগ্রহ করে ভারত। জবাবে নির্ধারিত ২০ ওভারে সাত উইকেটে ১৮১ রানের বেশি করতে পারেনি অস্ট্রেলিয়া। ভারতের জয় ২৪ রানে।

রান তাড়া করতে নেমে আজ প্রথম ওভারেই সাজঘরে ফেরেন ডেভিড ওয়ার্নার। তবে সেই ধাক্কা কাটিয়ে উঠতে সময় নেয়নি অস্ট্রেলিয়া। ট্রেভিস হেড ও মিচেল মার্শের ব্যাটে পাল্টা আক্রমণে অজিরা। দুজনের ব্যাটে দ্রুত লক্ষ্যের কাছে যেতে থাকে দলটি।

নবম ওভারে ৩৭ রানে মার্শ আউট হওয়ার পর আর কেউই বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি। একপ্রান্ত আগলে সর্বোচ্চ ৭৬ রান করেন হেড। ভারতের হয়ে আর্শদীপ তিনটি, কুলদীপ দুটি এবং বুমরাহ ও আক্সার একটি করে উইকেট নেন।

এর আগে টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক মিচেল মার্শ। ভারতের হয়ে ইনিংস উদ্বোধনে নেমে আজও ব্যর্থ বিরাট কোহলি। শূন্য রানে আউট হন এ ওপেনার। তবে রোহিত শর্মা ছিলেন চেনা ছন্দে। শুরু থেকেই অজিদের ওপর ছড়ি ঘোরাতে থাকেন তিনি।

চার-ছক্কার ফুলঝুরিতে মাত্র ১৯ বলে হাফসেঞ্চুরি পূরণ করেন রোহিত। যা চলতি আসরে দ্রুততম। দ্য হিটম্যান ছিলেন সেঞ্চুরির পথেও। তবে ৯২ রানে বোল্ড হয়ে সাজঘরে ফেরেন এ ওপেনার। সূর্যকুমার যাদবের ৩১ ও শিভম দুবের ২৮ রানের ইনিংস ভারতকে এগিয়ে দেয়।

শেষদিকে ব্যাট হাতে ঝড় তোলেন হার্দিক পান্ডিয়া। তার ২৭ রানের ক্যামিওতে ভারতের বড় সংগ্রহ নিশ্চিত হয়। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে মিচেল স্টার্ক ও মার্কাস স্টয়নিস দুটি ও জশ হ্যাজেলউড একটি করে উইকেট শিকার করেন।


অস্ট্রেলিয়া   বাংলাদেশ   টি-২০ বিশ্বকাপ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

রোহিত ঝড়ে ভারতের বিশাল সংগ্রহ

প্রকাশ: ১০:৩০ পিএম, ২৪ জুন, ২০২৪


Thumbnail

অস্ট্রেলিয়ার জন্য বাঁচা-মরার লড়াই। হারলেই বিদায়ের শঙ্কা। তবে ভারতের সেমিফাইনাল প্রায় নিশ্চিত। তাই নিশ্চিন্ত তারা। আর এমন চিন্তাহীন ভারত কতটা ভয়ংকর হতে পারে, সেটাই হারে হারে টের পেল চাপে থাকা অজিরা।

সেন্ট লুসিয়ার গ্রস আইলেটে ড্যারেন স্যামি স্টেডিয়ামে সুপার এইটে নিজেদের শেষ ম্যাচে ২০ ওভারে পাঁচ উইকেটে ২০৫ রান সংগ্রহ করেছে ভারত। এ ম্যাচে অজিরা বড় ব্যবধানে হারলে আর আফগানিস্তানকে বড় ব্যবধানে হারাতে পারলে সেমিতে খেলতে পারবে বাংলাদেশ।

আজ টস জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক মিচেল মার্শ। ভারতের হয়ে ইনিংস উদ্বোধনে নেমে আজও ব্যর্থ বিরাট কোহলি। শূন্য রানে আউট হন এ ওপেনার। তবে রোহিত শর্মা ছিলেন চেনা ছন্দে। শুরু থেকেই অজিদের ওপর ছড়ি ঘোরাতে থাকেন তিনি।

চার-ছক্কার ফুলঝুরিতে মাত্র ১৯ বলে হাফসেঞ্চুরি পূরণ করেন রোহিত। যা চলতি আসরে দ্রুততম। দ্য হিটম্যান ছিলেন সেঞ্চুরির পথেও। তবে ৯২ রানে বোল্ড হয়ে সাজঘরে ফেরেন এ ওপেনার। সূর্যকুমার যাদবের ৩১ ও শিভম দুবের ২৮ রানের ইনিংস ভারতকে এগিয়ে দেয়।

শেষদিকে ব্যাট হাতে ঝড় তোলেন হার্দিক পান্ডিয়া। তার ২৭ রানের ক্যামিওতে ভারতের বড় সংগ্রহ নিশ্চিত হয়। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে মিচেল স্টার্ক ও মার্কাস স্টয়নিস দুটি ও জশ হ্যাজেলউড একটি করে উইকেট শিকার করেন।

রোহিত শর্মা   ভারত   টি-২০ বিশ্বকাপ  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

দ্রুততম ফিফটি রোহিতের

প্রকাশ: ০৯:৩২ পিএম, ২৪ জুন, ২০২৪


Thumbnail

চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দ্রুততম ফিফটি করেছেন রোহিত শর্মা। আজ সুপার এইটের ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে রোহিত ১৯ বলে ফিফটি পূরণ করেন।

সেন্ট লুসিয়ার গ্রস আইলেটে ড্যারেন স্যামি স্টেডিয়ামে এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ৮ ওভারে দুই উইকেটে ৯৩ রান সংগ্রহ করেছে ভারত। রোহিত ৭৬ রানে ব্যাট করছেন।

আজ টস জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক মিচেল মার্শ। ভারতের হয়ে ইনিংস উদ্বোধনে নেমে আজও ব্যর্থ বিরাট কোহলি। তিনি শূন্য রানে আউট হন। তবে অন্যপ্রান্তে রোহিত শর্মা আজ আছেন চেনা ছন্দে।

মাত্র ১৯ বলে অর্ধশতকে পৌঁছান রোহিত। যা বিশ্বকাপের চলতি আসরে দ্রুততম ফিফটি। তিনি পেছনে ফেলেছেন কুইন্টন ডি কককে। যিনি ২২ বলে ফিফটি করেছেন। রোহিত ঝড়ে বর সংগ্রহের পথে আছে টিম ইন্ডিয়া।

সেমিফাইনাল নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে দু’দলের কাছেই এই ম্যাচ খুব গুরুত্বপূর্ণ। এছাড়া এই ম্যাচের ওপর নির্ভর করছে আসরে বাংলাদেশের টিকে থাকা। তাই টাইগাররাও তাকিয়ে থাকবে এ ম্যাচের দিকে।

টি-টোয়েন্টি   বিশ্বকাপ   রোহিত শর্মা   সুপার এইট   অস্ট্রেলিয়া  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

জিম্বাবুয়ে সিরিজের দল ঘোষণা, নতুন অধিনায়ক পেল ভারত

প্রকাশ: ০৯:১৯ পিএম, ২৪ জুন, ২০২৪


Thumbnail

বিশ্বকাপ চলাকালেই আসন্ন জিম্বাবুয়ে সিরিজের জন্য দল ঘোষণা করেছে ভারত। সোমবার (২৪ জুন) নতুন পাঁচ মুখকে নিয়ে ১৫ সদস্যের এই দল ঘোষণা করে বিসিসিআই। ঘোষিত দলের অধিনায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন শুভমান গিল। 

এই সিরিজে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে পাঁচটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে ভারত।

এই সিরিজ দিয়ে প্রথমবার টি-টোয়েন্টি দলে ডাক পেলেন অভিষেক শর্মা, রিয়ান পরাগ, নীতীশ রেড্ডি, ধ্রুব জুরেল এবং তুষার দেশপান্ডে।

তাদের মধ্যে জুরেল এর আগে টেস্ট ক্রিকেট খেলেছেন। বাকিরা জাতীয় দলের স্কোয়াডে সুযোগ পেয়েছেন প্রথমবারের মতো। দলের বেশির ভাগ নিয়মিত ক্রিকেটারদের বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে। বিশ্বকাপ স্কোয়াডের মাত্র দুইজন আছেন এই দলে।

আগামী ৬ জুলাই জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজে মাঠে নামবে ভারত। পরের দিনই দ্বিতীয় ম্যাচ খেলবে ভারত। বাকি তিনটি ম্যাচ ১০, ১৩ ও ১৪ জুলাই। সবগুলো ম্যাচই হবে জিম্বাবুয়ের হারারেতে।

ভারত স্কোয়াড: শুভমান গিল (অধিনায়ক), যশস্বী জয়সওয়াল, রুতুরাজ গায়কোয়াড়, অভিষেক শর্মা, রিংকু সিং, সাঞ্জু স্যামসন (উইকেটরক্ষক), ধ্রুব জুরেল (উইকেটরক্ষক), নিতিশ রেড্ডি, রিয়ান পরাগ, ওয়াশিংটন সুন্দর, রবি বিষ্ণই, আভেশ খান, খলিল আহমেদ, মুকেশ কুমার এবং তুষার দেশপাণ্ডে।

জিম্বাবুয়ে সিরিজ   নতুন অধিনায়ক   ভারত   শুভমান গিল  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

বাংলাদেশের ভাগ্য নির্ধারণের ম্যাচে টস হেরে ব্যাটিংয়ে ভারত

প্রকাশ: ০৮:৩৫ পিএম, ২৪ জুন, ২০২৪


Thumbnail

জিতলেই সেমিফাইনাল নিশ্চিত, হারলে তাকিয়ে থাকতে হবে বাকিদের দিকে- এমন সমীকরণের ম্যাচে সুপার এইটে নিজেদের শেষ ম্যাচে আজ মুখোমুখি হচ্ছে ভারত ও অস্ট্রেলিয়া। যেখানে টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক মিচেল মার্শ।

সেন্ট লুসিয়ার গ্রস আইলেটে ড্যারেন স্যামি স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ৮টায় ম্যাচটি শুরু হবে।

চলমান টি-২০ বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত নিজেদের সব ম্যাচেই জয় পেয়েছে ভারত। অন্যদিকে আফগানিস্তানের কাছে হেরে বেশ বড় ধাক্কা খেয়েছে অস্ট্রেলিয়া।

আর সেমিফাইনাল নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে দু’দলের কাছেই এই ম্যাচ খুব গুরুত্বপূর্ণ। এছাড়া এই ম্যাচের ওপর নির্ভর করছে আসরে বাংলাদেশের টিকে থাকা। তাই টাইগাররাও তাকিয়ে থাকবে এ ম্যাচের দিকে।

আজকের ম্যাচে আছে বৃষ্টির শঙ্কা। অস্ট্রেলিয়া ও ভারত ম্যাচ যদি বৃষ্টিতে ভেস্তে যায় তাহলে দুই দলই পাবে সমান ১ পয়েন্ট করে। সে ক্ষেত্রে ৩ ম্যাচ থেকে ৫ পয়েন্ট নিয়ে সেমিফাইনালে উঠে যাবে ভারত। অস্ট্রেলিয়ার পয়েন্ট হবে ৩।

অজিরা সেমিফাইনালে উঠবে কিনা সেটি তখন নির্ভর করবে বাংলাদেশ-আফগানিস্তান ম্যাচে। সে ম্যাচে আফগানিস্তান জিতলে সুপার এইট থেকে ছিটকে যাবে অস্ট্রেলিয়া।

আর বাংলাদেশ জিতলে ঝুলে থাকবে অজিদের ভাগ্য। যদিও তখন বাংলাদেশকে অন্তত ৮৫ রানের ব্যবধানে জিততে হবে। আর বাংলাদেশ এবং আফগানিস্তান ম্যাচও যদি বৃষ্টিতে ভেস্তে যায় তখন নেট রানরেটে এগিয়ে থাকায় সেমিফাইনালে পা রাখবে অস্ট্রেলিয়া।


অস্ট্রেলিয়া   ভারত   টি-২০ বিশ্বকাপ   ক্রিকেট  


মন্তব্য করুন


বিজ্ঞাপন