ইনসাইড গ্রাউন্ড

গ্রুপ সেরার হাতছানি স্পেনের, ঘুরে দাড়াতে চায় জাপান

প্রকাশ: ০১:০২ এএম, ০২ ডিসেম্বর, ২০২২


Thumbnail

'এফ' গ্রুপের ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে স্পেন ও জাপান। খলিফা ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়ামে এই ম্যাচে জয় তুলে নিলে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে নকআউটে চলে যাবে ২০১০ সালের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। ড্র করলেও পরের রাউন্ডের টিকিট পাবে দলটি। তবে ম্যাচটি বাঁচা মরার লড়াই জাপানের জন্য। প্রথম ম্যাচে জার্মানিকে হারিয়ে চমক দেখালেও, পরের ম্যাচে কোস্টা রিকার কাছে হেরে সমীকরণটা কঠিন বানিয়ে ফেলেছে জাপান। এ ম্যাচে তাই জয় তুলে নিতে চায় এশিয়ার দলটি।

দুই দলের একাদশ ও ফর্মেশন:

স্পেন একাদশ:

উনাই সিমোন, সিজার আজপিলিকুয়েতা, পাও তোরেস, আলেজান্দ্রো বাল্দে, রদ্রি, সার্জিও বুসকেতস, গাভি, পেদ্রি, আলভারো মোরাতা, নিকো উইলিয়ামস, দানি ওলমো।

ফর্মেশন: ৪-৩-৩

জাপান একাদশ:

সুচি গন্দা, শোগো তানিগুইচি, কোউ ইতাকুরা, মায়া ইয়োশিদা, ইয়োতো নাগাতোমো, হিদেমাসা মরিতা, জুনায়া ইতো, আও তানাকা, তাকেফুসা কুবো, দাইচি কামাদা, দাইজেন মায়েদা।

ফর্মেশন: ৩-৪-৩


কাতহার বিশ্বকাপ   স্পেন   জাপান   খলিফা ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়াম  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

সৌদি সুপার কাপের চ্যাম্পিয়ন নেইমারের আল হিলাল

প্রকাশ: ১২:৫৮ পিএম, ১২ এপ্রিল, ২০২৪


Thumbnail

ফরাসি ক্লাব পিএসজি থেকে সৌদি ক্লাব আল হিলালে যোগ দেওয়ার পর খুব বেশি খেলতে পারেননি ব্রাজিলিয়ান তারকা নেইমার। পায়ের গোড়ালির ইনজুরির কারণে দীর্ঘদিন মাঠের বাইরে তিনি। তবে নেইমারের ক্লাব আল হিলাল যখন সৌদি সুপার কাপের ফাইনালে উঠল, তখন তিনি দূরে থাকতে পারলেন না। স্টেডিয়ামে হাজির হয়ে গেলেন সুপার কাপের ফাইনাল দেখতে। 


আবু ধাবির মোহাম্মদ বিন জায়েদ স্টেডিয়ামের গ্যালারিতে বসেই নেইমার দেখলেন করিম বেনজেমার ক্লাব আল ইত্তিহাদকে বিধ্বস্ত হওয়া দেখলেন এই আল হিলাল তারকা। ম্যাচটিতে ইত্তিহাদকে ৪-১ গোলে হারিয়েছে নেইমারের ক্লাব। এদিন ফাইনাল শেষে ট্রফি মঞ্চে উঠে এলেন নেইমার নিজেও এবং চ্যাম্পিয়ন ট্রফি গ্রহণ করলেন তিনি।


ফাইনালে আল ইত্তিহাদের বিপক্ষে জোড়া গোল করেন ব্রাজিলিয়ান তারকা ম্যালকম। সালেম আল দাওসারি এবং নাসের আল দাওসারি শেষ দিকে গোল দিয়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন।


জোড়া গোলদাতা ম্যালকম বলেন, ‘এটা ছিল খুবই কঠিন একটি ম্যাচ। দুটি গোল করতে পেরেছি বলে খুব খুশি। একই সঙ্গে মৌসুমের প্রথম শিরোপা জয় করতে পেরেছি বলেও খুব ভালো লাগছে আমাদের।’


এ শিরোপা জয়ের পর চলতি মৌসুমে চার ট্রফি জয়ের দ্বারপ্রান্তে বলা যায় আল হিলাল। এরই মধ্যে সৌদি প্রো লিগের শিরোপা প্রায় জিতে ফেলেছে তারা। লিগের আর মাত্র ৭ ম্যাচ বাকি। দ্বিতীয় স্থানে থাকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর আল নাসরের চেয়ে ১২ পয়েন্ট এগিয়ে তারা।


এছাড়া এএফসি চ্যাম্পিয়ন্স লিগ এবং সৌদি কিং কাপের সেমিফাইনালে উঠে গেছে আল হিলাল। সে সঙ্গে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে টানা ৩৪টি ম্যাচ জয়ের বিশ্ব রেকর্ডও ধরে রেখেছে নেইমারের ক্লাবটি।


রিয়াল মাদ্রিদ থেকে আনা করিম বেনজেমা আল ইত্তিহাদের হয়ে জালই খুঁজে পাননি। এছাড়া আবদেররাজ্জাক হামদাল্লাহ পেনাল্টি মিস করেন।


নেইমার   সৌদি সুপার কাপ   আল হিলাল  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

ঈদে স্ত্রীর সাথে ছবি পোস্ট করে অস্বস্তিতে শোয়েব মালিক

প্রকাশ: ১১:১৯ এএম, ১২ এপ্রিল, ২০২৪


Thumbnail

বাংলাদেশে গতকাল বৃহস্পতিবার ঈদুল ফিতর উদযাপিত হলেও একদিন পূর্বে বুধবারেই বিশ্বের অধিকাংশ দেশে উদযাপিত হয়েছে পবিত্র ঈদুল ফিতর। সেই ধারাবাহিকতায় পাকিস্তানেও ঈদ অনুষ্ঠিত হয়েছে বুধবার। 

ঈদ মানে আনন্দ, ঈদ মানে খুশি। সে অনুযায়ী সাধারণ মানুষের পাশাপাশি ঈদের আনন্দে মেতেছিলেন দেশটির তারকা ক্রিকেটাররাও। এদিন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নিজেদের ঈদ উদযাপনের ছবি শেয়ার করেন পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক শোয়েব মালিক। সেই ছবিতে ছিলেন তার তৃতীয় স্ত্রী সানা জাভেদ।

আর সেই ছবি পোস্ট করার পর থেকেই অস্বস্তিতে পড়েছেন এই অলরাউন্ডার। বুধবার রাতে সোশ্যাল প্লাটফর্ম মাধ্যম এক্সে স্ত্রী সানার সঙ্গে অন্তরঙ্গ একটি ছবি আপলোড করে ক্যাপশনে লিখেন ‘ঈদ মুবারক’। আর এতেই ক্রিকেটপ্রেমীদের একাংশ তাকে বিদ্রুপ করতে শুরু করেছেন।

শোয়েবের পোস্ট করা সেই ছবিতে অনেকেই মন্তব্য করেছেন। একজন লিখেছেন, ‘এটা ঈদ, ১৪ ফেব্রুয়ারি নয়।’ পবিত্র ঈদের শুভেচ্ছার সঙ্গে শোয়েবের দেওয়া ছবিটি মানানসই নয় বলে মতামত অনেকের। 

তাদের বক্তব্য, ভালবাসা দিবসের শুভেচ্ছা জানালে শোয়েবের ব্যবহৃত ছবিটি সামঞ্জস্য পূর্ণ হত। ঈদের সঙ্গে নয়।

এক ক্রিকেটপ্রেমী আবার সানিয়া মির্জার একটি পুরনো ঈদের পোস্টের স্ক্রিন শট ব্যবহার করে কটাক্ষ করেছেন এ পাক অলরাউন্ডারকে। আবদুল্লা নামে সেই ক্রিকেটপ্রেমী তার পোস্টে লিখেছেন, ‘লোকটা প্লাস্টিক খুঁজতে গিয়ে হিরে হারিয়েছে।’

সবাই যে এমন করে কটাক্ষ করেছেন এমনটি নয়। অনেকে শোয়েব এবং সানাকে ঈদের শুভেচ্ছাও জানিয়েছেন। সেই সঙ্গে তাদের জন্য প্রার্থনা করেছেন।


শোয়েব মালিক   সানা   সানিয়া মির্জা  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

প্রাক্তন স্ত্রী ও বন্ধুর হত্যা মামলা থেকে মুক্তি পাওয়া ফুটবলারের মৃত্যু

প্রকাশ: ১০:২১ এএম, ১২ এপ্রিল, ২০২৪


Thumbnail

ডাবল মার্ডারের মামলা থেকে মুক্তি পাওয়া সাবেক আমেরিকান তারকা ফুটবলার ও অভিনেতা ওরেনথাল জেমস সিম্পসন প্রোস্টেট ক্যান্সারে মারা গেছেন। 

৭৬ বছর বয়সী সিম্পসন কেমোথেরাপি নিচ্ছিলেন বলে এক বিবৃতিতে জানিয়েছে প্রো ফুটবল হল অফ ফেম। সিম্পসনের পরিবারের বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, মৃত্যুর সময় তার সন্তান এবং নাতি-নাতনিরা পাশে ছিলেন। 

১৯৯৫ সালে প্রাক্তন স্ত্রী নিকোল ব্রাউন এবং তার বন্ধু রন গোল্ডম্যানকে হত্যার মামলা থেকে ওজে সিম্পসনের বেকসুর মুক্তি মিললে বিষয়টি তুমুল বিতর্কের জন্ম দিয়েছিল। ১৯৯৪ সালে লস অ্যাঞ্জেলেসে ব্রাউনের বাড়ির বাইরে এই দম্পতিকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়েছিল। এ ঘটনায় সন্দেহভাজন হিসেবে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল সিম্পসনকে।

২০০৮ সালে তাকে সশস্ত্র ডাকাতির অভিযোগে তাকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছিল। ২০১৭ সালে তিনি জেল থেকে ছাড়া পান। সান ফ্রান্সিসকোতে জন্মগ্রহণকারী সিম্পসন এনএফএলে খেলার আগে কলেজে খ্যাতি অর্জন করেছিলেন।


আমেরিকান ফুটবলার   সিম্পসন  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

বড় সংগ্রহের পরও মুম্বাইয়ের কাছে বেঙ্গালুরুর হার

প্রকাশ: ০৯:৫৬ এএম, ১২ এপ্রিল, ২০২৪


Thumbnail

মুম্বাইয়ের বিপক্ষে শুরুতে জ্বলে উঠে ১৯৬ রানের বড় সংগ্রহ পেলেও শেষ পর্যন্ত জয়ের মুখ দেখতে পায়নি রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। ইশান কিশান ও সূর্যকুমার যাদবের ব্যাটিং তাণ্ডবে ৭ উইকেটের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে মুম্বাই।

বৃহস্পতিবার ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ২৫তম ম্যাচে মুম্বাইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে টস জিতে বেঙ্গালুরুকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় স্বাগতিকরা। আগে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে বেঙ্গালুরু সংগ্রহ করে ১৯৬ রান। এই রান ২৭ বল হাতে রেখেই তাড়া করে ফেলে মুম্বাই।

বিরাট কোহলিকে (৩) হারিয়ে শুরু হয় বেঙ্গালুরুর ইনিংস। তবে আরেক ওপেনার ফাফ ডু প্লেসি চালাতে থাকেন ব্যাট। অপরপ্রান্তে উইল জ্যাকস এসে ৮ রানে বিদায় নিলে ডু প্লেসিকে সঙ্গ দেন রজত পতিধর। ৪৭ বলে ৮২ রানের ঝড়ো জুটি গড়ার পথে দুইজনই পান ফিফটির দেখা। স্রেফ ২৫ বলে অর্ধশতক পূর্ণ করেন পতিদর। আর ডু প্লেসির লাগে ৩৩ বল। রজতকে ফিরিয়ে এই জুটি ভাঙেন কুটসিয়া। এরপর বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি ডু প্লেসিও। ৪০ বলে তার সংগ্রহ ৬১ রান।  

দুই গুরুত্বপূর্ণ ব্যাটারের বিদায়ের পর ক্রিজে এসে তাণ্ডব চালান দিনেশ কার্তিক। স্রেফ ২২ বলে পঞ্চাশ পূর্ণ করা এই ব্যাটার ৫ চার ও ৪ ছক্কায় ৫৩ রান করে দলকে এনে দেন বড় সংগ্রহ। বাকিদের বাজে বোলিংয়ের দিনে মুম্বাইয়ের হয়ে আলো ছড়ান বুমরাহ। ৪ ওভারে ২১ রান খরচায় তিনি নেন ৫ উইকেট।  

রান তাড়ায় নেমেই তাণ্ডব চালাতে থাকেন ইশান কিশান। তাকে সঙ্গ দেন রোহিত শর্মা। উদ্বোধনী জুটিতে তারা যোগ করেন ৫৩ বলে ১০১ রান। ২৩ বলে পঞ্চাশ হাঁকিয়ে কিশান দলের জয় সহজ করে বিদায় নেন ৬৯ রানে। তার ইনিংসটি সাজানো ছিল ৭ চার ও ৫ ছক্কায়। এরপর ৩৮ রান নিয়ে সাজঘরে ফেরেন রোহিত।  

তিনে নেমে বিধ্বংসী হয়ে ওঠেন সূর্যকুমার। স্রেফ ১৭ বলে তিনি ফিফটি তুলে নেন তিনি। ৫২ রানে তার বিদায়ের পর একইভাবে ব্যাট চালান পান্ডিয়া। ৬ বলে ৩ ছক্কায় ২১ রানে অপরাজিত থাকেন মুম্বাই অধিনায়ক। ১০ বলে ১৬ রানে অপরাজিত থাকেন রাহুল তেওয়াতিয়া।


আইপিএল   মুম্বাই   বেঙ্গালুরু  


মন্তব্য করুন


ইনসাইড গ্রাউন্ড

বার্সেলোনায় যুদ্ধে লড়তে যাওয়ার ঘোষণা পিএসজি কোচের

প্রকাশ: ০৯:২৯ এএম, ১২ এপ্রিল, ২০২৪


Thumbnail

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের কোয়ার্টার ফাইনালের প্রথম লেগে বুধবার রাতে পার্ক দ্য প্রিন্সেসে স্প্যানিশ জায়ান্টদের মুখোমুখি হয়েছিল প্যারিসিয়ানরা। যেখানে বার্সেলোনার কাছে ৩-২ গোলে হেরেছে পিএসজি। 


আর এমন হারকে হতাশাজনক ও বিরক্তিকর উল্লেখ করে এবার বার্সেলোনায় ফিরতি লেগে যুদ্ধে লড়তে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন প্যারিসের কোচ লুইস এনরিকে। 


এদিন খেলায় শুরুতে পিছিয়ে পড়লেও দ্বিতীয়ার্ধে তিন মিনিটের ব্যবধানে দুই গোল করে এগিয়ে যায় পিএসজি। তবে এরপর রাফিনিয়া ও ক্রিসতেনসন গোল করে বার্সেলোনাকে এনে দিয়েছে জয়। এতে সেমিফাইনালের পথে অনেকটা এগিয়ে গেছে কাতালানরা।


আগামী ১৬ এপ্রিল রাতে বার্সেলোনার মাঠে ফিরতি লেগ খেলতে যাবে পিএসজি। ওই ম্যাচকে যুদ্ধ হিসেবেই দেখছেন এনরিকে, ‘আমরা বার্সেলোনায় যুদ্ধে লড়তে যাব। গতরাতে আমরা খুব ভালো খেলেছি কিন্তু এমন হার হতাশার এবং বিরক্তিকর। আমরা শুধু সেগুলোই পরিবর্তন করব যা কাজে লাগেনি।’


প্রথম লেগ জেতায় ফিরতি লেগে বার্সেলোনার হার এড়ালেই চলবে। তবে পিএসজির দরকার দুই গোলের ব্যবধানে জয়। তিনি বলেন, ‘অনেক আশা প্রত্যাশা নিয়ে আমরা খেলতে যাব। আমরা সেখানে জিততেও পারি এই ভাবনা আমাদের জন্য ইতিবাচক দিক। আমাদের জন্য ফাইনাল ম্যাচ হতে যাচ্ছে। আমার দলের ওপর বিশ্বাস আছে যে তারা পারবে।’


লুইস এনরিক   পিএসজি   বার্সেলোনা   ফুটবল   চ্যাম্পিয়ন্স লিগ  


মন্তব্য করুন


বিজ্ঞাপন